Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     শনিবার   ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||  আশ্বিন ১০ ১৪২৮ ||  ১৬ সফর ১৪৪৩

সব ধরনের ক্রিকেট থেকে মালিঙ্গার অবসর

ক্রীড়া ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৯:১৭, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১   আপডেট: ১৯:৩১, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১
সব ধরনের ক্রিকেট থেকে মালিঙ্গার অবসর

বল মুঠোয় নিয়ে তাতে চুমু দিয়ে কোকড়ানো চুলে বাবরি দুলিয়ে দৌড়ে এসে ভয়ঙ্কর ইয়র্কারে প্রতিপক্ষের ব্যাটসম্যানকে তটস্থ করতে দেখা যাবে না লাসিথ মালিঙ্গাকে। ২০১১ সালে টেস্ট, তারপর ২০১৯ সালে ওয়ানডে ক্রিকেটকে বিদায় জানান। এবার ২৯৫ ম্যাচে ৩৯০ উইকেট নেওয়ার পর টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটকেও বিদায় বললেন শ্রীলঙ্কার এই পেসার। তাতে করে সব ধরনের ক্রিকেট ছাড়লেন তিনি। আইপিএল দল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স ছেড়ে দিলে এই বছর জানুয়ারিতে ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট থেকেও অবসর নেন তিনি।

ক্রিকেটের ছোট ফরম্যাটে মালিঙ্গার পরিসংখ্যান অসাধারণ- ১৬.৬০ স্ট্রাইক রেট, ৭.০৭ ইকোনমি এবং গড় ১৯.৬৮। আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে ১০০ উইকেট নেওয়া প্রথম বোলার তিনি, ৮৪ ম্যাচের ক্যারিয়ার শেষ করেছেন ১০৭ উইকেট নিয়ে। বাংলাদেশের সাকিব আল হাসান (১০৬) তার থেকে হাতছোঁয়া দূরত্বে।

টি-টোয়েন্টিতে সর্বাধিক উইকেটশিকারির তালিকায় ডোয়াইন ব্রাভো, ইমরান তাহির ও সুনীল নারিনের পরে চতুর্থ স্থানে মালিঙ্গা।

মালিঙ্গা অবসরের ঘোষণায় বলেন, ‘আজ আমার জন্য খুব বিশেষ একটি দিন। আমার টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ার জুড়ে যারা আমাকে সমর্থন দিয়ে গেছেন, তাদের সবাইকে ধন্যবাদ। আজ আমি আমার টি-টোয়েন্টি বোলিং জুতোগুলোকে শতভাগ বিশ্রাম দিচ্ছি।’ তিনি আরও যোগ করেছেন, ‘আমি শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বোর্ড, মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স, মেলবোর্ন স্টার্স, কেন্ট ক্রিকেট ক্লাব, রংপুর রাইডার্স, গায়ানা ওয়ারিয়র্স, মারাঠা ওয়ারিয়র্স ও মন্ট্রিল টাইগার্স ধন্যবাদ দেই। আমি এখন আমার অভিজ্ঞতা ভাগাভাগি করব তরুণ ক্রিকেটারদের সঙ্গে যারা ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট ও জাতীয় দলে খেলতে চায়।’

২০১৪ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জয়ী মালিঙ্গা সবশেষ বললেন, ‘আমার জুতোগুলো বিশ্রামে থাকলেও খেলার প্রতি ভালোবাসা কখনো বিশ্রাম নিবে না। আমাদের তরুণদের ইতিহাস তৈরি দেখতে মুখিয়ে।’

সর্বকালের অন্যতম সেরা টি-টোয়েন্টি বোলার মালিঙ্গা আইপিএল, বিগ ব্যাশ লিগ, ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ ও অন্য ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্টে নিজ দলে দারুণ ভূমিকা রেখেছিলেন। পাঁচবারের চ্যাম্পিয়ন মুম্বাইয়ের হয়ে চারবার শিরোপা হাতে নিয়েছেন তিনি।

ঢাকা/ফাহিম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়