Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     শনিবার   ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||  আশ্বিন ১০ ১৪২৮ ||  ১৬ সফর ১৪৪৩

নতুন মৌসুমে নতুন জাতীয় লিগ

ক্রীড়া প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২০:৪৫, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১  
নতুন মৌসুমে নতুন জাতীয় লিগ

গত ২২ মার্চ ২০২০-২১ মৌসুমের জাতীয় ক্রিকেট লিগের পর্দা উঠেছিল || (ফাইল ফটো)

জাতীয় দল ও আশেপাশের ক্রিকেটাররা মাঠে থাকলেও ঘরোয়া ক্রিকেটে যারা নিয়মিত মুখ তারা একদমই আড়ালে। ঘরোয়া ক্রিকেট অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ থাকায় অধিকাংশ ক্রিকেটাররা অলস সময় কাটাচ্ছেন।

ঘরোয়া ক্রিকেটের নিয়মিত পারফর্মার শামসুর রহমান শুভ। নিজ উদ্যোগে অনুশীলন করে যাচ্ছেন সাকিবের মাস্কো সাকিব ক্রিকেট একাডেমিতে। সেই একাডেমিতে ব্যক্তিগত অনুশীলন করতে গিয়ে হাতে চোট পেয়ে অস্ত্রোপচার করানো লেগেছে এনামুল হক বিজয়ের। এ রকম হাতে গোনা কয়েকজন ক্রিকেটার নিজেদের ইচ্ছায় ব্যাট-প্যাড ও বল নিয়ে মাঠে নামলেও বাকিদের খোঁজখবরও নেই।

তবে তাদের জন্য সুখবর দিচ্ছে দেশের ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা। অক্টোবরে পুরোদমে ঘরোয়া ক্রিকেট ফেরানোর উদ্যোগ নিয়েছে বিসিবি। জাতীয় ক্রিকেট লিগ দিয়ে ২০২১-২২ মৌসুমের ক্রিকেট ক্যালেন্ডার শুরু করার পরিকল্পনা। এরপর বিপিএল, ঢাকা লিগ ও বিসিএল আয়োজন করবে বিসিবি।

করোনাভাইরাসের কারণে দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর চলতি বছরের ২২ মার্চ শুরু হয় জাতীয় ক্রিকেট লিগ। কিন্তু দুই রাউন্ডের খেলা না হতেই অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ হয়ে যায় লিগের খেলা। নতুন ক্রিকেট মৌসুমে আগের আসরের খেলা শুরু করার পক্ষপাতি নন জাতীয় প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু। রাইজিংবিডিকে মুঠোফোনে তিনি বললেন,‘নতুন মৌসুমে নতুন লিগ শুরু করলে ভালো। খেলোয়াড়দের মধ্যেও সতেজ ভাব থাকবে। স্থগিত থাকা একটা লিগ শুরুর মানে দেখি না।’

লিগ শুরু না করার পেছনে আরেকটি কারণও বললেন তিনি,‘মাত্র দুই রাউন্ড খেলা হয়েছিল। শিরোপা নির্ধারণের কোনো সুযোগ নেই। ফলে নতুন করে লিগ শুরু করলেই ক্রিকেটাররা ম্যাচ বেশি খেলার সুযোগ পাবে।’

করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউয়ে লিগ বন্ধ হয়েছিল। প্রায় দশ মাস পর লিগ নতুন করে শুরু করবে বোর্ড। দুইটি স্টেডিয়ামের চারটি মাঠে ম্যাচ পরিচালনা করার ইচ্ছা বোর্ডের। এজন্য সিলেটের মূল স্টেডিয়াম ও আউটার মাঠ ব্যবহার করবে। সঙ্গে কক্সবাজারের দুইটি মাঠ ব্যবহার করা হবে। চারটি ভেন্যুতে সম্পূর্ণ জৈব সুরক্ষা বলয় তৈরি করে ম্যাচ চালানোর পরিকল্পনা।

সামনেই নির্বাচকদের সঙ্গে বিসিবির টুর্নামেন্ট, পরিচালনা ও গেম ডেভেলাপমেন্ট বিভাগের বৈঠক রয়েছে। সেখানেই সব কিছুর চূড়ান্ত করবেন নীতিনির্ধারকরা। 

ঢাকা/ইয়াসিন

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়