Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     রোববার   ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||  আশ্বিন ১১ ১৪২৮ ||  ১৭ সফর ১৪৪৩

ম্যাচে ফিরছেন মুমিনুল-শান্তরা, ভাবনায় পাকিস্তান সিরিজ

ক্রীড়া প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৯:০৩, ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১  
ম্যাচে ফিরছেন মুমিনুল-শান্তরা, ভাবনায় পাকিস্তান সিরিজ

সতীর্থরা টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে ডুবে আছেন। মুমিনুল, শান্তরা জাতীয় দলে আছেন শুধুমাত্র টেস্ট ক্রিকেটের জন্য। তাদের হাতে অফুরন্ত সময়। নিজেদের উদ্যোগে অনুশীলন বাদে করার নেই তেমন কিছু। তবে বিসিবি এবার তাদের ম্যাচ খেলার সুযোগ করে দিচ্ছে।

বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) থেকে শুরু হচ্ছে বাংলাদেশ ‘এ’ দলের চারদিনের ম্যাচ। প্রতিপক্ষ বিসিবি হাই পারফরম্যান্স ইউনিট। চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে বিসিবির ২ দল দুটি চারদিনের ও তিনটি একদিনের ম্যাচ খেলবে।

মুমিনুল, শান্ত, সাইফ, সাদমানরা সবশেষ টেস্ট খেলেছে জুলাইতে, জিম্বাবুয়েতে। এরপর অনুশীলনে সময় কেটেছে তাদের। দীর্ঘদিন পর মাঠে নামার সুযোগ পাওয়ায় উচ্ছ্বসিত শান্ত।

বাঁহাতি এ ব্যাটসম্যান বলেছেন, ‘আমরা যারা সবসময় টেস্ট দলে খেলি, যারা সাদা বলে কম খেলি তারা আবার একত্র হয়েছি। একটা সিরিজ খেলার সুযোগ তৈরি হয়েছে। আমাদের সবার জন্য ভালো সুযোগ। একটা লম্বা সময় বিরতি ছিল আমাদের। আমাদের ম্যাচের ভেতরে আসা জরুরি ছিল। সাধারণত আমরা টেস্ট ম্যাচ অনেক দিন পরপর খেলি। এক মাস বা ১৫ দিন পরপর খেলি তাও না। লম্বা সময় বিরতি থাকে। তাই ম্যাচ খেলা জরুরি ছিল।’

নিজেদের মধ্যে ম্যাচ আয়োজন হলেও নভেম্বরে পাকিস্তান সিরিজের কথা মাথায় আছেন শান্তদের। পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে বাংলাদেশের টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের লড়াই শুরু হবে। বাবর আজমদের বিপক্ষে চট্টগ্রামেই হবে প্রথম টেস্ট।

এ প্রসঙ্গে নিজের ভাবনা জানিয়ে শান্ত আরও বলেছেন, ‘পাকিস্তানের বিপক্ষে সিরিজ আছে নভেম্বরে। চট্টগ্রামেও ম্যাচ আছে। এখানে চারদিনের ম্যাচ খেলব। সামনে যে টেস্ট ম্যাচ আছে সেটা কাজে লাগবে। এতদিন সবাই যার যার বিভাগীয় শহরে ব্যক্তিগত ট্রেনিং করেছি। একসঙ্গে অনুশীলন করার সুযোগ ছিল না। এখানে একসঙ্গে হয়ে অনুশীলন ও সিরিজ খেলতে পারছি সেটা অবশ্যই ভালো। সামনে এনসিএল টুর্নামেন্টও আছে। এটাও ভালো প্রস্তুতির সুযোগ। এখানেও যদি ব্যাটসম্যানরা রান করে, বোলাররা উইকেট পায় তাহলে আত্মবিশ্বাস বাড়বে। ভালো করার সুযোগ বেশি হবে।’

১৬ থেকে ১৯ সেপ্টেম্বর প্রথম ম্যাচ এবং ২৩ থেকে ২৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত দ্বিতীয় ম্যাচ। মুমিনুল হক ‘এ’ দলকে নেতৃত্ব দেবেন। তার সঙ্গে সাইফ, শান্ত, সাদমান, মিঠুন, মিরাজ, নাঈম, ইবাদত, রাহীকেও রেখেছেন নির্বাচকরা।

এইচপি দল অনেক আগের থেকেই চট্টগ্রামে ক্যাম্প করছে। ঘরোয়া ক্রিকেটের প্রতিশ্রুতিশীল ক্রিকেটারদের নিয়ে স্কোয়াডটি সাজানো হয়েছে।

বাংলাদেশ ‘এ’ দল: মুমিনুল হক (অধিনায়ক), সাইফ হাসান, সাদমান ইসলাম, নাজমুল হোসেন শান্ত, ইয়াসির আলি চৌধুরি, মোহাম্মদ মিঠুন, ইরফান শুক্কুর, মেহেদী হাসান মিরাজ, নাঈম হাসান, ইবাদত হোসেন চৌধুরী, আবু জায়েদ চৌধুরী, সৈয়দ খালেদ আহমেদ, কামরুল ইসলাম রাব্বি, শহিদুল ইসলাম, ইমরুল কায়েস (শুধু একদিনের ম্যাচের জন্য) ।

বাংলাদেশ এইচপি দল: ব্যাটসম্যান: তানজিদ হাসান তামিম, পারভেজ হোসেন ইমন, মুনিম শাহরিয়ার, শাহাদাত হোসেন, মাহমুদুল হাসান জয়, তৌহিদ হৃদয়, আনিসুল ইসলাম ইমন। উইকেটকিপার: ইমরান উজ জামান, আকবর আলী। স্পিনার: মিনহাজুল আবেদীন আফ্রিদি, রকিবুল হাসান, হাসান মুরাদ, তানভির ইসলাম, রিশাদ হোসেন। পেসার: শফিকুল ইসলাম, মুকিদুল ইসলাম, তানজিম হাসান সাকিব, মোহাম্মদ শাহিন আলম, সুমন খান, নোমান চৌধুরী সাগর, রেজাউর রহমান রাজা, রুয়েল মিয়া।

ঢাকা/ইয়াসিন/ফাহিম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়