ঢাকা     শুক্রবার   ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ ||  মাঘ ২০ ১৪২৯

‘বন্ড মার্কেট সরকারের মেগা প্রকল্প বাস্তবায়নে সহায়ক হবে’

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২২:৩৮, ৬ ডিসেম্বর ২০২২   আপডেট: ২২:৫৫, ৬ ডিসেম্বর ২০২২
‘বন্ড মার্কেট সরকারের মেগা প্রকল্প বাস্তবায়নে সহায়ক হবে’

চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জ (সিএসই) পিএলসির ব্যবস্থাপনা পরিচালক গোলাম ফারুক বলেছেন, ‘একটি কার্যকরী বন্ড মার্কেট থাকলে সরকারের মেগা অবকাঠামো প্রকল্প বাস্তবায়ন সহজ হবে।’

সোমবার (৫ ডিসেম্বর) চট্টগ্রামে সিএসইর প্রধান কার্যালয়ে জুম প্ল্যাটফর্মে ‘শেয়ারবাজারে স্টক এক্সচেঞ্জ ট্রেডিং প্ল্যাটফর্মে সরকারি সিকিউরিটিজ লেনদেনের গতি বেগবান করা এবং সচেতনতা তৈরি’ শীর্ষক আলোচনা সভায় এ কথা বলেন তিনি।

অনুষ্ঠানে সিএসইর হেড অব আইটি মোহাম্মদ মেজবাহ উদ্দিন, হেড অব ট্রেক মার্কেটিং অ্যান্ড সার্ভিসেস মোহাম্মাদ মরতুজা আলম, হেড অব বিজনেস প্রোমোশন অ্যান্ড মার্কেটিং মোহাম্মদ মনিরুল হক, হেড অব সার্ভিলেন্স অ্যান্ড মার্কেট অপারেশন্স মো. নাহিদুল ইসলাম খান উপস্থিত ছিলেন।

গোলাম ফারুক বলেন, ‘বন্ডগুলো ইক্যুইটির জন্য দীর্ঘমেয়াদী এবং স্বল্পমেয়াদী অর্থায়নের বিকল্প হিসেবে কাজ করে। বন্ডগুলো যদি শেয়ারবাজারে ট্রেডিং হয়, বন্ড মার্কেটের আকারও বৃদ্ধি পাবে। সাথে সাথে শেয়ারবাজারে পণ্যের বৈচিত্র্যও আসবে। সে ক্ষেত্রে শেয়ারবাজার জিডিপি বৃদ্ধির পাশাপাশি লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে সহযোগী খাত হিসেবে উন্মোচিত হবে।’

অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন সিএসইর ট্রেনিং অ্যান্ড এওয়্যারনেস বিভাগের প্রধান এম সাদেক আহমেদ। তিনি সরকারি বন্ড ট্রেডিংয়ের প্রেক্ষাপট ও এর সাম্প্রতিক সুবিধা সম্পর্কে অবহিতকরণের মাধ্যমে অনুষ্ঠানটি শুরু করেন।

সেন্ট্রাল ডিপোজিটরি বাংলাদেশ লিমিটেডের (সিডিবিএল) সিডিএস অ্যাপ্লিকেশন অ্যান্ড ট্রেনিং বিভাগের মো. মইনুল হক বিপিআইডি থেকে বিওআইডিতে শেয়ার পাঠানোর সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া উপস্থাপন করেন। সিএসই’র আইটি বিভাগ থেকে স্টক এক্সচেঞ্জ ট্রেডিং প্ল্যাটফর্মে সরকারি সিকিউরিটিজ লেনদেনের সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া উপস্থাপন করা হয়।

অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণকারীদের বিভিন্ন ধরনের প্রশ্নের পরিপ্রেক্ষিতে উপস্থিত বক্তারা সেগুলোর বাস্তবসম্মত ও গৃহীত পদক্ষেপ গ্রহণের নির্দেশনা দেন।

উল্লেখ্য, সিএসই সরকারি সিকিউরিটিজ লেনদেনের প্রক্রিয়াটি সকলের কাছে বোধগম্য ও জনপ্রিয় করতে এবং এক্সচেঞ্জ প্ল্যাটফর্মের লেনদেনের গতিশীলতা আনতে গত মে মাস থেকেই সরকারি সিকিউরিটিজের ওপর বিভিন্ন ধরনের ট্রেনিং ও সচেতনতামূলক অনুষ্ঠানের আয়োজন করছে। প্রতিবারের মতো এবারও সিএসইর এই অনুষ্ঠানে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের প্রায় ২০০ জন কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত সকলে আশা করেন, সরকারি সিকিউরিটিজের সেকেন্ডারি লেনদেন, স্টক এক্সচেঞ্জের প্ল্যাটফর্মে করার মাধ্যমে দেশে একটি প্রাণবন্ত বন্ড মার্কেট গড়ে উঠবে। এখন থেকে বাংলাদেশের শেয়ারবাজার শুধু ইকুইটি মার্কেটের ওপর নির্ভরশীল হবে না, বরং এটি বন্ড মার্কেটের ওপরও নির্ভরশীল হবে। এতে বিনিয়োগকারীদের ঝুঁকিও অনেক হ্রাস পাবে। সেই সাথে দেশের শেয়ারবাজার দেশি ও বিদেশি বিনিয়োগকারীদের সক্রিয় অংশগ্রহণ আরও সম্প্রসারিত হবে।

এনএফ/রফিক

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়