ঢাকা     শুক্রবার   ১৪ জুন ২০২৪ ||  জ্যৈষ্ঠ ৩১ ১৪৩১

ভারতের দুই ব্র্যান্ডের মসলা নিষিদ্ধ করল মালয়েশিয়া

আন্তর্জাতিক ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২২:১৯, ২৮ মে ২০২৪  
ভারতের দুই ব্র্যান্ডের মসলা নিষিদ্ধ করল মালয়েশিয়া

ভারতের এমডিএইচ ব্র্যান্ডের কারি পাউডার ও এভারেস্ট ব্র্যান্ডের ফিস কারি মসলা আমদানি, বিক্রি, ব্যবহারের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে মালয়েশিয়া। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এ নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে ফ্রি মালয়েশিয়া টুডে।

এমডিএইচ ও এভারেস্টের মসলায় উচ্চ মাত্রার ইথিনাল অক্সাইডের উপস্থিতি শনাক্তের খবর সামনে আসার প্রেক্ষাপটে এই পদক্ষেপ নিল মালয়েশিয়া। এর আগে হংকং, সিঙ্গাপুর ও নেপালেও ভারতের এই দুই কোম্পানির মসলা নিষিদ্ধ করা হয়।

মঙ্গলবার (২৮ মে) মালয়েশিয়ার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে বলা হয়, কার্সিনোজেনিক প্রকৃতির কারণে সব ব্যবসায়ীদেরকে ভারত থেকে আনা দুটি ব্র্যান্ডের মসলা পণ্য বিক্রি বন্ধ করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

বিবৃতি আরও বলা হয়, অনলাইনসহ সব ব্যবসায়ীদের, যাদের কাছে এই পণ্যগুলো স্টক রয়েছে তাদের বিক্রি বন্ধ করতে হবে। ই-কমার্স প্ল্যাটফর্ম এবং সোশ্যাল মিডিয়াকেও অবিলম্বে বিজ্ঞাপন বন্ধ করার আহ্বান জানানো হয়েছে।

ইথিলিন অক্সাইড কিটপতঙ্গ মারতে ও মসলায় মাইক্রোবায়োলজিক্যাল দূষণ নিয়ন্ত্রণ করতে ব্যবহৃত হয়। এটি কার্সিনোজেনিক, তাই খাদ্য ও খাদ্য-সংযোগ সামগ্রীতে এর ব্যবহার নিষিদ্ধ।

মালয়েশিয়ার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ২০২৪ সালের এপ্রিল পর্যন্ত মালয়েশিয়ায় এভারেস্ট ব্র্যান্ডের ফিশ কারি মসলা মাত্র একবার আমদানির তথ্য পাওয়া গেছে। মালয়েশিয়ায় এমডিএইচ ব্র্যান্ডের কারি পাউডার আমদানির কোনও রেকর্ড নেই।

বর্তমানে, মন্ত্রণালয় দেশে প্রবেশের সব পয়েন্টে আফলাটক্সিন, ভারি ধাতু এবং কিটনাশকের অবশিষ্টাংশ পর্যবেক্ষণ করছে। ২০১৯ সাল থেকে ২০২৪ সালের এপ্রিল পর্যন্ত পর্যবেক্ষণে দেখা গেছে, ৪৩টি নমুনা আইনি খাদ্য সুরক্ষার প্রয়োজনীয়তা পূরণ করেছে।

গত বৃহস্পতিবার সাউথ চায়না মর্নিং পোস্ট এক প্রতিবেদনে বলেছে, ভারতীয় কর্তৃপক্ষ ক্যানসার সৃষ্টিকারী কিটনাশকযুক্ত মসলাজাতীয় পণ্যগুলোর তদন্ত করছে।

ভারতের ফুড সেফটি অ্যান্ড স্ট্যান্ডার্ড অথোরিটি হংকংয়ে রপ্তানি করা পণ্যে ইথিলান অক্সাইড পাওয়া যাওয়ার পর পরীক্ষার জন্য দেশব্যাপী মসলার নমুনা সংগ্রহ করছে।

সিঙ্গাপুর ফুড এজেন্সি গত এপ্রিল মাসে এভারেস্ট ব্র্যান্ডের ফিশ কারি মসলা বাজার থেকে প্রত্যাহার করে। ভারতীয় এই মসলায় ক্যানসার সৃষ্টিকারী কিটনাশক ব্যবহারের প্রমাণ পাওয়ার পর।

জবাবে, এভারেস্ট ফিশ কারি মসলা কর্তৃপক্ষ বলেছিল, তাদের মসলাগুলো খাওয়ার জন্য নিরাপদ এবং বোর্ডের অনুমোদন পাওয়ার পরেই রপ্তানি করা হয়। অন্যদিকে এমডিএইচ কারি পাউডার এই বিষয়ে মন্তব্য করেনি।

/ফিরোজ/

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়