ঢাকা     বুধবার   ১৭ এপ্রিল ২০২৪ ||  বৈশাখ ৪ ১৪৩১

‘বায়তুল মোকাররমে মিছিল-মিটিং নিষিদ্ধের পাঁয়তারা করছে’

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২২:৪৩, ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪  
‘বায়তুল মোকাররমে মিছিল-মিটিং নিষিদ্ধের পাঁয়তারা করছে’

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ’র আমীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম বলেছেন, সরকার দেশে বাকশাল কায়েমের চক্রান্ত করছে। দেশে একদলীয় বাকশাল কায়েমের জন্যই খোঁড়া অজুহাতে বায়তুল মোকাররম এলাকায় মিছিল-মিটিং নিষিদ্ধের পাঁয়তারা করছে। 

বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) ঐতিহাসিক চরমোনাইর বার্ষিক মাহফিল স্থলে আয়োজিত ওলামা ও সুধী সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তি‌নি এসব কথা ব‌লেন।

সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম বলেন, বায়তুল মোকাররম মসজিদ গেটে যে সকল ইসলামী দল মিছিল মিটিং করেন, তারা মূলত মসজিদের সম্মান ও আদব রক্ষা করে এবং মুসল্লিদের যেন কোন সমস্যা না হওয়া সেদিকে দৃষ্টি রেখেই করে সভা সমাবেশ করে থাকেন। কাজেই নামাজে আসা মুসল্লিরা আতঙ্কিত হওয়ার অজুহাতে জাতীয় মসজিদ এলাকায় মিছিল মিটিং নিষিদ্ধের পাঁয়তারা করলে তা সরকারের জন্য সুখকর হবে না।

ওলামা সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ’র প্রেসিডিয়াম সদস্য প্রিন্সিপাল সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল মাদানী, আল্লামা নূরুল হুদা ফয়েজী, নায়েবে আমীর আল্লামা আব্দুল হক আজাদ, মহাসচিব প্রিন্সিপাল হাফেজ মাওলানা ইউনুস আহমাদ, যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা গাজী আতাউর রহমান, কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা ও বসুন্ধরা শায়খ জাকারিয়া ইসলামী রিসার্চ সেন্টারের মহাপরিচালক মুফতি মিজানুর রহমান সাঈদ, যাত্রাবাড়ী বড় মাদরাসার নাজেমে তালিমাত হাফেজ মোফাজ্জল হোসাইন, বাংলাদেশ মাদরাসা শিক্ষাবোর্ডের সাবেক সভাপতি প্রফেসর ড. একে এম ইয়াকুব হোসাইন, প্রফেসর নজরুল ইসলাম।

চরমোনাইপীর বলেন, প্রহসনের নির্বাচনি বৈতরণী পার হওয়ার পর সরকারবিরোধী দলের রাজনীতি নিয়ন্ত্রণের ব্যর্থ চেষ্টা করছে। এ সরকার জনরোষের ভয়ে আতঙ্কিত হয়ে বিরোধী দলসহ ইসলামী দলগুলোকে নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করছে।

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মহাসচিব প্রিন্সিপাল হাফেজ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ ব‌লেন, ফিলিস্তিনের গাজায় ইসরায়েলি হত্যাযজ্ঞের বিরুদ্ধে বিশ্ব মুসলিমকে ঐক্যবদ্ধভাবে রুখে দাড়াতে হবে। ফিলিস্তিনে নারী ও শিশুহত্যা বন্ধ করতে হবে। 

নঈমুদ্দীন/এনএইচ

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়