ঢাকা     রোববার   ১৪ এপ্রিল ২০২৪ ||  বৈশাখ ১ ১৪৩১

মানিকগঞ্জে মদপানে ২ জনের মৃত্যু 

মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২০:০৯, ৩ মার্চ ২০২৪   আপডেট: ২০:০৯, ৩ মার্চ ২০২৪
মানিকগঞ্জে মদপানে ২ জনের মৃত্যু 

মানিকগঞ্জের সদর উপজেলায় বিয়ের অনুষ্ঠানে মদপানে অসুস্থ হয়ে দুই যুবকের মৃত্যু হয়েছে। গতকাল শনিবার উপজেলার হাটিপাড়া ইউনিয়নের জগন্নাথপুর গ্রামে ঘটনাটি ঘটে। রোববার (৩ মার্চ) সন্ধ্যার দিকে হরিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি (তদন্ত) মজিবুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। 

মারা যাওয়াদের মধ্যে দীপু গাজীপুর জেলার ভাওয়াল কলেজ এলাকার সতীশ সরকারের ছেলে এবং প্রসেনজিৎ সরকার হরিরামপুর উপজেলার বয়ড়া ইউনিয়নের দাসকান্দি বয়ড়া গ্রামের মৃত প্রকাশ সরকারের ছেলে। 

স্থানীয়রা জানান, সদর উপজেলার হাটিপাড়া ইউনিয়নের জগন্নাথপুর গ্রামে মামাতো বোনের বিয়েতে আসেন দীপু সরকার। গত শুক্রবার মধ্যরাতে গায়ে হলুদের অনুষ্ঠানে দেশি মদপান করেন কয়েকজন যুবক। গতকাল শনিবার সকালের দিকে অসুস্থ হন দীপু ও প্রসেনজিৎ। সন্ধ্যায় প্রসেনজিৎকে হরিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়। অবস্থা গুরুতর থাকায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মানিকগঞ্জ সদর হাসপাতালে রেফার্ড করেন। স্থানীয়রা মানিকগঞ্জ কর্ণেল মালেক মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে প্রসেনজিৎতের মৃত্যু হয়। দীপু সরকারকে মানিকগঞ্জ মুন্নু মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে সেখানকার চিকিৎসক তাকেও মৃত ঘোষণা করেন।

দীপুর মামাতো ভাই সঞ্জয় বৈরাগী জানান, তার বোনের বিয়ে উপলক্ষ্যে বাড়িতে গত শুক্রবার রাতে গায়ে হলুদের অনুষ্ঠান ছিল। মধ্যরাতে কয়েকজন মিলে দেশি তরল কিছু পান করেন। এতে ৬-৭ জন অসুস্থ হয়ে পড়েন।। দীপু ও প্রসেনজিৎ গতকাল শনিবার সকালে অসুস্থ হন। গতকাল সন্ধ্যায় প্রসেনজিৎকে হরিরামপুর উপজেলা হাসপাতালে নেওয়া হয়। অবস্থা গুরুতর হলে মানিকগঞ্জ কর্ণেল মালেক মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে প্রসেনজিৎতের মৃত্যু হয়। আর দীপুকে মুন্নু মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করে। দীপুুকে গতকাল রাতে হরিরামপুর বলড়া শ্বশানে দাহ করা হয়েছে। প্রসেনজিৎতের মরদেহ এখনো মানিকগঞ্জ মর্গে রয়েছে।

হরিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিক্যাল অফিসার রাশেদা নাজনীন বলেন, শনিবার প্রসেনজিৎকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনা হয়। আমরা চেক করে তার পালস পাচ্ছিলাম না। পরে তাকে মানিকগঞ্জ সদর হাসপাতালে রেফার্ড করে দেই। দেশিয় মদ পানে মৃত্যু কিনা এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, সে সম্পর্কে আমি কিছু বলতে পারছি না। 

মানিকগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাবিল হোসেন জানান, প্রসেনজিৎ-এর সুরতহাল করা হয়েছে। এ বিষয়ে আইনী প্রক্রিয়া হরিরামপুর থানা দেখবে।

হরিরামপুর থানা ওসি (তদন্ত)  মুজিবুর রহমান বলেন, মানিকগঞ্জ সদর থানা এরিয়ার হাটিপাড়া ইউনিয়নের জগন্নাথপুরে মদপানে দুজন মারা গেছে। এরমধ্যে একজন হরিরামপুরের। আরেকজন গাজীপুরের। এ বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। 

চন্দন/মাসুদ

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়