ঢাকা     সোমবার   ০৪ মার্চ ২০২৪ ||  ফাল্গুন ২০ ১৪৩০

শাকিব প্রসঙ্গে অপু বললেন, যুগে যুগে এমন হার্টথ্রব তৈরি হয়

প্রকাশিত: ১৫:২৫, ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪   আপডেট: ১৬:১৩, ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
শাকিব প্রসঙ্গে অপু বললেন, যুগে যুগে এমন হার্টথ্রব তৈরি হয়

পয়লা ফাল্গুন ও ভালোবাসা দিবস উপলক্ষে জোড়া সিনেমা নিয়ে প্রেক্ষাগৃহে ঢালিউড কুইন অপু বিশ্বাস। শুক্রবার (৯ ফেব্রুয়ারি) দেশের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে তার অভিনীত ‘ট্র্যাপ: দ্য আনটোল্ড স্টোরি’ সিনেমাটি। আগামী ১৬ ফেব্রুয়ারি, মুক্তি পাবে তার অভিনীত সরকারি অনুদানে নির্মিত সিনেমা ‘ছায়াবৃক্ষ’।

একটা সময় মাসজুড়ে মুক্তি পেত অপু বিশ্বাসের সিনেমা। এক ঈদে তার পাঁচটি সিনেমাও প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে। তবে হঠাৎ করেই সেই তালিকায় ছেদ পড়ে। দীর্ঘ সময় সিনেমা থেকে দূরে ছিলেন। সেই বিরতি কাটিয়ে কাজে ফিরে একের পর এক কাজ করছেন অপু বিশ্বাস। দীর্ঘ সময় পর এক মাসে দুটি সিনেমা মুক্তিতে উচ্ছ্বসিত এই নায়িকা।

অতীতের কথা স্মরণ করে অপু বিশ্বাস বলেন, একটা সময় এক ঈদে আমার পাঁচটি সিনেমাও মুক্তি পেয়েছে। কাজ শুরুর পর থেকে মাসে দু-তিনটা সিনেমা মুক্তি পেত। মাঝে কাজে একটু অনিয়মিত ছিলাম। যার কারণে ধারাবাহিকতা রক্ষা হয়নি। সেই বিরতি কাটিয়ে কাজে নিয়মিত হয়েছি, এখন দম ফেলার সময় পাচ্ছি না।

কথা প্রসঙ্গে অপুর কথায় উঠে আসে বর্তমান সিনেমার হালচাল। তিনি বলেন, আমাদের চলচ্চিত্র কিন্তু আস্তে আস্তে সেই আগের সোনালি দিনটা ফিরে পাচ্ছে। সবকিছু সুন্দর হচ্ছে। আমার সেই চিরচেনা জায়গা ফিরে আসছে। অনেক বছর পর একই মাসে দুটি সিনেমা মুক্তি পাওয়া আমার জন্য ভাগ্যের, সেই সঙ্গে আনন্দের। খুবই ভালো লাগছে। এটি সত্যিই আমার জন্য আশীর্বাদ।

রাতারাতি কিছু হয় না, তার জন্য অপেক্ষা করতে হয় উল্লেখ করে অপু বলেন, ভালো কাজের জন্য নিজেকে তৈরি করতে হয়। আজ থেকে তিন-চার বছর আগে এমনও শুনতে হয়েছে যে, আমি আর সিনেমায় ফিরতে পারব না। আলহামদুলিল্লাহ, আপনাদের দোয়ায় কাজে ফিরেছি। ব্যক্তি কাজের জায়গাও অনেক বেড়েছে। প্রোডাকশন হাউজ চলমান। একটা ব্যবসা শুরু করেছি। অভিনেত্রী হিসেবেও কাজ করছি। সব মিলিয়ে আমার ব্যস্ততা আছেই। কাজের জন্য দম ফেলার সুযোগ পাই না।

দুটি সিনেমাতে দুটি ভিন্ন চরিত্রে দেখা যাবে এই অভিনেত্রীকে। তার ভাষায়, দুটি ভিন্ন চরিত্রে দর্শকেরা আমাকে দেখতে পাবেন। একটিতে গ্ল্যামারাস লুক অন্যটিতে গ্ল্যামারাসহীন। ‘ট্র্যাপ’ সিনেমায় বর্তমান তথ্যপ্রযুক্তির ইতিবাচক ও নেতিবাচক দিক তুলে ধরা হয়েছে। আর ‘ছায়াবৃক্ষ’ সিনেমায় চা শ্রমিকের চরিত্রে দেখা যাবে। তাদের ভয়াবহতা নিয়েই সিনেমাটি নির্মিত হয়েছে।

ক্রমেই নিজেকে ছাপিয়ে যাচ্ছেন চিত্রতারকা শাকিব খান। প্রতিনিয়ত এই নায়ক নিজেকে ভাঙছেন। দর্শক থেকে শুরু করে নায়কের প্রশংসায় পঞ্চমুখ অপু বিশ্বাসও। শাকিব প্রসঙ্গে তিনি বলেন, যুগে যুগে এমন একজন হার্টথ্রব তৈরি হয়। হার্টথ্রবের জন্য সত্যিই যুগ লাগে। সেই সময়টা আর আসবে না সেটা বলব না। তবে, শাকিব খান তো কাউকে আটকে রাখেনি।

সে অন্য শিল্পীদের যেভাবে সুযোগ দেয় অন্যরা যদি তার অবস্থানে থাকত কখনোই তাকে সেই সুযোগ দিতেন না এবং মেপে কথা বলতেন না। শাকিব খান বুঝেশুনে কথা বলেন। প্রতিটি মানুষ তার যোগ্যতা দিয়ে আসবে। সে (শাকিব) তার যোগ্যতা দিয়ে আজকের অবস্থানে এসেছেন এবং নিজেকে প্রমাণ করেছে। সে প্রতিনিয়ত প্রশংসিত কাজ উপহার দিচ্ছে। এটা বাংলাদেশের নাগরিক হিসেবে গর্বের বলে জানান অপু।

এসময় অপু বিশ্বাস তার সমালোচনাকারীদের বিষয়েও কথা বলেন। তার মতে— যাদের কাজ নেই তারাই আমাকে নিয়ে সমালোচনা করেন। এটা তাদের মধ্যেই সীমাবদ্ধ। আমি আমার কাজটি করে যাচ্ছি।

ঢাকা/রাহাত/শান্ত

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়