ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ১৮ জুলাই ২০২৪ ||  শ্রাবণ ৩ ১৪৩১

ইংল্যান্ডকে আটকে পয়েন্ট ভাগাভাগি ডেনমার্কের

ক্রীড়া ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০০:৪৪, ২১ জুন ২০২৪   আপডেট: ০১:২৩, ২১ জুন ২০২৪
ইংল্যান্ডকে আটকে পয়েন্ট ভাগাভাগি ডেনমার্কের

ইউরো কাপের দ্বিতীয় ম্যাচেই আটকে গেল ইংল্যান্ড। ডেনমার্কের বিরুদ্ধে এগিয়ে থেকেও শেষ পর্যন্ত জিততে পারেনি তারা। অবশ্য হারের তিক্ত স্বাদ পেতে হয়নি তাদেরকে। 

ফ্র্যাঙ্কফার্ট স্টেডিয়ামে দুই দলের ম্যাচটি ১-১ গোলে ড্র হয়। ফলে এখনও পরের রাউন্ড পাকা হল না গ্যারেথ সাউথগেটের শিষ্যদের। অন্যদিকে পর পর দু’ম্যাচ ড্র করে লড়াইয়ে টিকে থাকল ডেনমার্কও।

শক্তি আর ঐতিহ্যে দুই দলের পার্থক্য অনেক। ইংল্যান্ড ১৯৬৬ সালে জিতেছে বিশ্বকাপ। ইউরোর সবশেষ আসরে খেলেছিল ফাইনাল। বর্তমান ফিফা র‌্যাংকিংয়ে আছে পাঁচ নম্বরে। শুধু তাই নয়, ইংলিশ লিগ মাতানো সব তারকা খেলোয়াড় সাউথগেটের দলে। রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে খেলা জুড বেলিংহ্যামও আছে থ্রি লায়ন্স শিবিরে। অথচ দলটা ফিফা র‌্যাংকিংয়ে ২১ নম্বরে থাকা ডেনমার্কের কাছে পয়েন্ট খোয়াল। 

এজন্য ডেনমার্ককেই কৃতিত্ব দিতে হবে। ম্যাচের পুরোটা সময় তারা এক মুুহূর্তের জন্য ছাড় দেয়নি। আক্রমণাত্মক ফুটবলের সঙ্গে রক্ষণে প্রাচীর গড়ে তুলেছিল। গোলমুখে ১৬টি শট তারা নিয়েছিল। যার ৭টি ছিল অন টার্গেটে। বল দখলে ৫১ শতাংশ নিয়ে এগিয়ে ছিল তারাই। ওদিকে ইংল্যান্ডের ১২ শটের ৪টি ছিল অন টার্গেটে। 

পরিকল্পনা অনুযায়ী মাঠে প্রয়োগ করতে না পারায় সাউথগেটকে পুরোটা সময় রাগান্বিত দেখা যায়। নিশ্চিত ৩ পয়েন্টের আশায় ছিলেন তিনি। কিন্তু ১ পয়েন্ট নিয়ে সন্তুষ্ট থাকতে হয়। 

ম্যাচের ১৮ মিনিটে ইংল্যান্ডকে এগিয়ে দেন হ্যারি কেইন। ডানপ্রান্ত থেকে কাইল ওয়াকারের পাস ডি বক্সের ভেতরে জটলার মধ্যে পান কেইন। সেখানে বলে পা ছুঁইয়ে গোল করেন।  

ডেনমার্ক সমতা ফেরাতে ৩৪ মিনিট পর্যন্ত সময় নেয়। ডি বক্সের বাইরে থেকে দূর পাল্লার শটে মর্টেন হিমমান্ড গোল করে ডেনমার্ককে সমতায় ফেরান। এবারের ইউরোর এখন পর্যন্ত এটাই সেরা গোল হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে। ২০১৬ সালের পরে ইউরোয় গ্রুপ পর্বে এই প্রথম কোনও গোল খেল ইংল্যান্ড। 

সমতা ফেরালে ইংল্যান্ড গোলের জন্য আরো মুখিয়ে থাকে। বিরতির আগে পরে একাধিক সুযোগ তৈরি করে। কিন্তু লক্ষ্যভেদ করতে পারেনি। ফোডেনের শট ৫৬ মিনিটে বারপোস্টে লেগে ফিরে আসে। ৭১ মিনিটে ওয়াটকিনসন সহজ সুযোগ নষ্ট করে। 

উল্টো ৮০ মিনিটের পর অন্তত দু’বার গোল করার মতো পরিস্থিতি তৈরি করে ফেলেছিল ডেনমার্ক। কিন্তু ফিনিশিংয়ে ঘাটতি থাকায় গোল আদায় করতে পারেনি তারা। 

শেষ পর্যন্ত ড্র নিয়ে সন্তুষ্ট থাকতে হয় দুই দলকে। দুই ম্যাচে ১ জয় ও ১ ড্রয়ে ৪ পয়েন্ট নিয়ে ইংল্যান্ড আছে শীর্ষে। ডেনমার্কের ২ ম্যাচে ২ ড্রয়ে ২ পয়েন্ট নিয়ে আছে দুই নম্বরে।
 

 

ঢাকা/ইয়াসিন

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ