ঢাকা     বুধবার   ৩০ নভেম্বর ২০২২ ||  অগ্রহায়ণ ১৬ ১৪২৯ ||  ০৫ জমাদিউল আউয়াল ১৪১৪

যৌতুক না পেয়ে নববধূকে হত্যার অভিযোগ

কুমিল্লা প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৮:৪৮, ১ অক্টোবর ২০২২  
যৌতুক না পেয়ে নববধূকে হত্যার অভিযোগ

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে যৌতুক না দেওয়ায় বিয়ের তিন মাসের মধ্যে লাশ হলেন ফাতেমাতুজ জোহরা (রোকসানা) নামে এক নববধূ। যৌতুকের জন্য শ্বশুরবাড়ির লোকজন হত্যা করেছে বলে অভিযোগ নিহতের স্বজনদের।

শুক্রবার (৩০ সেপ্টেম্বর) রাতে চৌদ্দগ্রামের পৌর এলাকার শ্রীপুর খাঁ বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। ওই গৃহবধূর বাবা বাদী হয়ে স্বামী সাইফুল ইসলামকে প্রধান আসমি করে সাতজনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন। পুলিশ রাতেই স্বামী সাইফুল ইসলামকে গ্রেফতার করেছে।

নিহতের বড় বোন রাশেদা বেগম জানান, উপজেলার আলকরা ইউনিয়নের উত্তর কাইছুটি গ্রামের মো. আবুল বশরের মেয়ের সঙ্গে চৌদ্দগ্রাম পৌর এলাকার শ্রীপুর খাঁ বাড়ির মৃত সৈয়দ আহমেদের ছেলে মো. সাইফুলের গত ১০ জুন বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে সাইফুল ও তার পরিবার যৌতুকের দাবিতে নববধূ রোকসানার ওপর বিভিন্ন সময় নির্যাতন চালিয়ে আসছেন।

নিহত রোকসানার মা হোসনে আরা বেগম অভিযোগ করে বলেন, ‘বিয়ের পর দিন থেকে যৌতুকের জন্য আমার মেয়ের উপরে নির্যাতন শুরু হয়। এরই জের ধরে মেয়ের হাতের মেহেদীর দাগ মুছে যাওয়ার আগেই শশুর বাড়ির লোকজন পরিকল্পিতভাবে আমার মেয়েকে হত্যা করা হয়েছে।’ 

তিনি আরও বলেন, ‘শুক্রবার সন্ধ্যায় সাইফুল আমার বাবা মো. আবুল বশরের মোবাইল ফোনে কল দিয়ে বলেন— রোকসানার অবস্থা খারাপ। তাকে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। আমরা খবর পেয়ে দ্রুত চৌদ্দগ্রাম সরকারি হাসপাতালের জরুরি বিভাগে এসে দেখি রোকসানার মরদেহ পড়ে আছে।’ 

চৌদ্দগ্রাম থানার ওসি শুভ রঞ্জন চাকমা বলেন, গৃহবধূর মরদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য লাশ কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। পুলিশ রাতেই স্বামী সাইফুল ইসলামকে গ্রেফতার করে। অন্য আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

রুবেল/বকুল

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়