ঢাকা, শুক্রবার, ১৩ বৈশাখ ১৪২৬, ২৬ এপ্রিল ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

লুটের জন্য মাহফুজা চৌধুরীকে হত্যা

মাকসুদুর রহমান : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০২-১১ ৭:৪৫:০৭ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০২-১২ ১০:৫০:০৭ এএম

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাসার মালামাল ও টাকা-পয়সা লুট করার জন্য ইডেন মহিলা কলেজের প্রাক্তন অধ্যক্ষ মাহফুজা চৌধুরী পারভীনকে হত্যা করা হয়েছে।

গৃহকর্মীর সঙ্গে এ ঘটনায় আরো একাধিক ব্যক্তি জড়িত বলে পুলিশ জানতে পেরেছে। ময়নাতদন্ত শেষে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, মাহফুজাকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে।

সোমবার বিকেলে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) রমনা জোনের উপ-কমিশনার (ডিসি) মারুফ হোসেন সরদার রাইজিংবিডিকে বলেন, ‘গৃহকর্মী রেশমা ও স্বপ্না হত্যার পর বাসা থেকে স্বর্ণালঙ্কার ও টাকা-পয়সা লুট করে নিয়ে গেছে।

ঘটনার দিনে তারা বিকেল ৫টা ৬ মিনিটে লিফট থেকে নেমে বেরিয়ে যায়। গত মাসে তারা বাসায় কাজে যোগ দেয়। এরপর থেকেই লুটপাটের পরিকল্পনা করছিল। তারা আত্মগোপনে থাকায় সোমবার সন্ধ্যা পর্যন্ত গ্রেপ্তার করা যায়নি।’

এদিকে, মাহফুজা চৌধুরী হত্যার ঘটনায় নিউমার্কেট থানায় করা মামলায় কয়েকজনকে আসামি করা হয়েছে।

পুলিশ জানায়, রোববার সকালে মাহফুজা চৌধুরীর স্বামী ইসমত কাদির গামা ব্যক্তিগত কাজে বাইরে যান। বাসায় মাহফুজা চৌধুরী এবং রেশমা ও স্বপ্নাসহ তিন গৃহকর্মী ছিল।

সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে তিনি বাসায় ফিরে ১৬ তলার কলিং বেল চাপলেও কেউ দরজা খুলছিল না। পরে ১৫ তলার কলিং বেল চাপলে বৃদ্ধা গৃহকর্মী দরজা খোলেন। তখন তিনি ১৬ তলায় গিয়ে দেখেন খাটের ওপর মাহফুজার নিথর দেহ পড়ে আছে। লাশ কম্বল দিয়ে ঢাকা। পাশেই পড়ে ছিল বালিশ।

মাহফুজা চৌধুরীর স্বামী জানান, এলিফ্যান্ট রোডের সুকন্যা টাওয়ারের ১৫ ও ১৬ তলার ডুপ্লেক্স ফ্ল্যাটে স্ত্রীকে নিয়ে তিনি থাকতেন। তাদের দুই ছেলে দেশের বাইরে থাকেন।

ময়নাতদন্ত শেষে সোমবার দুপুরে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. সোহেল মাহমুদ বলেন, ‘শ্বাসরোধে মাহফুজাকে হত্যা করা হয়েছে। হত্যাকাণ্ডে দুই বা ততোধিক ব্যক্তি অংশ নেয়। নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে।’



রাইজিংবিডি/ঢাকা/১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯/মাকসুদ/রফিক

Walton Laptop
     
Walton AC
Marcel Fridge