ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০৪ জুন ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

অসুস্থদের হাসপাতালে নিতে গাড়ি নিয়ে ছোটেন তারা!

আব্দুল্লাহ আল নোমান : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০৪-০৯ ১:০৩:৩৬ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০৪-০৯ ১:০৩:৩৬ পিএম

মহামারি নভেল করোনাভাইরাসে বিপর্যস্ত পুরো দেশ। সংক্রমণ এড়াতে সাধারণ ছুটির পাশাপাশি জনগণের চলাচলে আরোপ হয়েছে বিধি নিষেধ।

বন্ধ রয়েছে গণপরিবহন চলাচল। এ অবস্থায় যানবাহন সংকটের কারণে হাসপাতাল যেতে অসুস্থ রোগীদের বিপাকে পড়তে হচ্ছে। আতঙ্কের কারণে সাধারণ রোগেও অসুস্থ ব্যক্তিদের বহনে অস্বীকৃতি জানাচ্ছেন চালকরা। ফলে বেশ ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে রোগীদের।

এমন পরিস্থিতিতে নিজের প্রাইভেটকার দিয়ে অসুস্থ ব্যক্তিদের হাসপাতালে পৌঁছে দেয়ার কাজ করছেন সিলেটের এক সংবাদকর্মী। তার নাম মো. আহসান হাবীব। তিনি দৈনিক ইত্তেফাক পত্রিকায় কাজ করেন। গত মঙ্গলবার থেকে সম্পূর্ণ বিনা খরচে সিলেট শহর ও আশপাশের এলাকার অসুস্থ রোগীদের হাসপাতালে পৌঁছে দিচ্ছেন তিনি।

মো. আহসান হাবীব জানান, গত সোমবার তিনি এ নিয়ে ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দেন। এরপর থেকে এখন পর্যন্ত তার নম্বারে কল এসেছে প্রায় ৭০-৮০টি। তার মধ্যে পঞ্চাশের অধিক অসুস্থ ব্যক্তিকে বাসা থেকে হাসপাতাল এবং চিকিৎসকের কাছে পৌঁছে দিয়েছিন তিনি।

এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে সারাদেশের মতো সিলেটও কার্যত লকডাউন রয়েছে। তাই আমি মানবিক মূল্যবোধ থেকেই সাধারণ মানুষের চিকিৎসার প্রয়োজনে নিজের গাড়ি দিয়ে হাসপাতালে পৌঁছানোর উদ্যোগ নেই। এজন্য ফেসবুকে একটি পোস্ট দিয়েছিলাম। এরপর থেকে বেশ সাড়া পাচ্ছি।’

নিজের সুরক্ষার বিষয়ে তিনি জানান, সম্পূর্ণ সুরক্ষা মেনে তিনি সাধারণ অসুস্থ যাত্রীদের এই সেবা দিচ্ছেন। এজন্য প্রতিবারই যাতায়তের পর জীবাণুনাশক দিয়ে গাড়ি ধৌত করেন তিনি। এছাড়া গাড়িতে ওঠানোর আগে যাত্রীদেরও হ্যান্ড স্যানিটাইজার এবং মাস্ক দিয়ে সুরক্ষিত করে নিয়ে যান।

এই সংবাদকর্মী আরো জানান, পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত দিনের ২৪ ঘণ্টা তার ফোন নাম্বারে (০১৭১১-৩৭০৮৬৫) কল করে কেউ সাহায্য চাইলে তিনি গাড়ী নিয়ে হাজির হবেন, পৌঁছে দেবেন হাসপাতাল কিংবা চিকিৎসকের কাছে।

শুধু আহসান হাবীবই নয়; মুশফিকুর রহমান ইমন নামে এক প্রকৌশলীও নিজের প্রাইভেট কার দিয়ে অসহায় গরীব রোগীদের হাসপাতালে পৌঁছে দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন। তিনিও সম্পূর্ণ বিনামূল্যে এ সেবা দিয়ে যাচ্ছেন।

এ বিষয়ে প্রকৌশলী ইমন জানান, সিলেট শহর অথবা আশপাশের এলাকার অসহায় রোগীদের হাসপাতালে যাওয়ার জন্য গাড়ির প্রয়োজন হলে তিনি তাদের পৌঁছে দেবেন। এজন্য কোন ভাড়া প্রদান করতে হবেনা। করোনাভাইরাসের কারণে সংকটময় মূহুর্তে মানবিক কারণেই তিনি এ সেবা প্রদান করছেন বলেও জানান।

এ সংকটময় সময়ে তাদের এমন উদ্যোগ প্রশংসনীয় বলে মন্তব্য করছেন নেটিজেনরা। তবে এক্ষেত্রে সম্পূর্ণ সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে সম্পূর্ণ সুরক্ষা ব্যবস্থার মাধ্যমেই সাধারণ অসুস্থদের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার কাজ করার তাগিদ দেন তারা। না হলে হিতে বিপরীতও হওয়ার সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া যায়না বলেও মন্তব্য তাদের।

একই সঙ্গে এ দুই তরুণের মতো যাদের নিজস্ব গাড়ি রয়েছে তাদেরকেও এভাবে মানবতার সেবায় এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন তারা।

 

সিলেট/বুলাকী

       
 

আরো খবর জানতে ক্লিক করুন : সিলেট, সিলেট বিভাগ
ট্যাগ :