ঢাকা     সোমবার   ২২ জুলাই ২০২৪ ||  শ্রাবণ ৭ ১৪৩১

সাবিনা স্যাবির পাঁচ লুক

রাশিদা খাতুন || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৩:৩৯, ১২ জুন ২০২৪   আপডেট: ১৪:৩৯, ১৪ জুন ২০২৪
সাবিনা স্যাবির পাঁচ লুক

সাবিনা স্যাবি

সংবাদ পাঠিকাদের সাজ পোশাক সহজেই আমাদের আকৃষ্ট করে। এর কারণ হিসেবে সংবাদ পাঠিকা সাবিনা স্যাবি বলেন, কোন ধরনের পোশাক মানুষের চোখে আরাম দেবে— এই বিষয়টি আমরা যারা প্রেজেন্টেশনে কাজ করি তারা বুঝে যাই এবং শিখে যাই।

সাবিনা স্যাবি রাইজিংবিডিকে বলেন, ছোট বেলা থেকেই পোশাক বাছাইয়ের ক্ষেত্রে আমি অনেকটা সচেতন। পোশাক পেলেই পরে ফেলবো— এমনটা আমার ক্ষেত্রে হয় না।

রাইজিংবিডির এই আয়োজনে আমরা সাবিনা স্যাবির ৫টি লুক নিয়ে কথা বলেছি। 

এই ছবিতে দেখা যাচ্ছে সবুজ ব্লাউজ আর যশোর স্টিচের অরেঞ্জ শাড়িতে সেজেছেন সাবিনা স্যাবি। দেশীয় শাড়িতে সুন্দর লাগছে তাকে।

স্যাবি বলেন, আমরা যেহেতু মিডিয়ায় কাজ করি আমাদের সাজ পোশাক অনেকেই ফলো করেন। সেক্ষেত্রে দেশীয় পোশাককে যদি আমরা সুন্দরভাবে উপস্থাপন করি তাহলে আরও অনেকেই  এই পোশাকের প্রতি আগ্রহী হতে পারেন। 

শাড়ির সঙ্গে হাইনেক ব্লাউজ পরেছেন এর কারণ কী?— স্যাবি বলেন, আমার গলায় ২০১৩ সালে একটি অপারেশন করার মাধ্যমে বোন রিপ্লেস করা হয়েছে। সেই থেকে গলায় একটা বড় দাগ হয়েছে। অপারেশনের পরে এই দাগের জন্য মনে হতো যে আমার আত্মবিশ্বাস কমে গেছে। এরপরে আমি আলাদা ধরনের মেকওভারে মনোযোগ দেই। যে ধরনের সাজ পোশাকে গলা প্রমিনেন্ট হবে না, সেই ধরনের সাজ পোশাক বেছে নিতে শুরু করি। প্রয়োজন এবং ফ্যাশনকে এক সুতায় বেঁধে ফেলা যাকে বলে। 

এই পোশাকের সঙ্গে কোনো গয়না না পরার বিষয়ে স্যাবি বলেন,  আমার কাছে মনে হয় যে যত সিম্পল থাকা যায় তত ভালো। 

সাবিনা স্যাবির এই ছবিটি কানাডার মন্ট্রিয়ালে তোলা। বরাবরের মতো চোখে আরাম দেয় এমন রঙের ওয়েস্টার্ন পোশাক বেছে নিয়েছেন তিনি।

স্যাবি বলেন, এটা একটা মলের ভেতরের ছবি। আমার কাছে মনে হয় যে আমরা যখন দেশের বাইরে যাই তখন সেখানকার পরিবেশের সঙ্গে মিলিয়ে পোশাক বেছে নেই। যেহেতু ওখানে ঠান্ডা ছিল সেজন্য সোয়েটার পরেছি। কানাডাতে এক জায়গা থেকে অন্য জায়গায় যাওয়ার জন্য প্রচুর হাঁটতে হয়। সেজন্য কেডস পরেছি। ট্রাভেলিংয়ে গেলে এই ধরনের পোশাক কমফোর্ট দেয়। 

এটা একটু ভিন্ন ধরনের সাজ। বেশ গয়নাও পরতে দেখা যাচ্ছে। এর কারণ জানালেন স্যাবি। তিনি বলেন, প্রকৃতি যেখানে সুন্দর, সেখানে নিজেকে প্রকৃতির সঙ্গে মেশানো অন্যরকম একটি প্রেজেন্টেশন। আমার চুলগুলো ছোট। তার টেনে খোঁপ বেঁধেছি। চশমা পরেছি। আমার কাছে মনে হয়েছে চশমা পরলে একটু ভালো লাগবে। এখনতো চশমাটাও ফ্যাশন। এখানে গয়না পরেছি। সব থেকে বড় কথা যেহেতু হাইনেক গলার ব্লাউজ পরিনি। সেজন্য বড় কানের দুল পরেছি। হাতে চুড়ি আর আংটি পরেছি। যাতে বড় গয়না প্রমিনেন্ট হয় আর গলার দিকে কারও চোখ না যায়। 

লং শার্ট পরেছেন। হাতে দিয়েছেন একটি ঘড়ি আর অন্য হাতে চুড়ি। ঠোঁটে শোভা পাচ্ছে লাল গাঢ় লিপস্টিক। দারুণ আত্মবিশ্বাসী লাগছে স্যাবিকে।

ওয়েরস্টার্ন লুকের সঙ্গে ফিউশন করেছেন স্যাবি। পায়ে পরিছেন সিকুনইন্সের জুতা। নখ সাজিয়েছেন নেইল পলিশে। সাবিনা স্যাবি জানান, ওয়েন্টার্নের সঙ্গে একটি মালা পরেছেন যাতে ফিউশন লুক তৈরি হয়। যেহেতু মলে গিয়েছেন তাই খুব একটা সাজেননি।
স্যাবি মনে করেন, মলে বা শপিংয়ে যাওয়ার সময় একটা চশমা পরে আর একটু লিপস্টিক নিয়ে চলে যাওয়া যায়। কারণ চশমা পরলে মুখের অনেকখানি ঢেকে যায়। 

/লিপি

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়