ঢাকা     রোববার   ১৪ জুলাই ২০২৪ ||  আষাঢ় ৩০ ১৪৩১

 নিরাপত্তার জন্য হুমকি হলে সশস্ত্র বাহিনী তা মোকাবিলা করবে: হানিফ

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি  || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৭:৩৪, ১৬ জুন ২০২৪  
 নিরাপত্তার জন্য হুমকি হলে সশস্ত্র বাহিনী তা মোকাবিলা করবে: হানিফ

নিজ বাসভবনের সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলছেন মাহবুব-উল আলম হানিফ

দেশের নিরাপত্তার জন্য হুমকি মনে করলে সশস্ত্র বাহিনী তা মোকাবিলা করবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ এমপি। তিনি বলেন, ‘নিরাপত্তার জন্য সশস্ত্র বাহিনী প্রস্তত আছে, কখনও হুমকি মনে করে তাহলে মোকাবিলা করবে। এক্ষেত্রে দেশের সেনাবাহিনীর প্রতি সকলের আস্থা রাখা উচিত।’

রোববার (১৬ জুন) দুপুরে কুষ্টিয়ায় নিজ বাসভবনে ঈদুল আজহা উপলক্ষে দলীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন আওয়ামী লীগের এই সিনিয়র নেতা। টেকনাফ থেকে সেন্ট মার্টিন নৌরুটে আসা-যাওয়ার সময় নৌযান লক্ষ্য করে মিয়ানমার সীমান্ত থেকে কয়েক দফায় গুলি করা হয়। যদিও এতে কেউ হতাহত হয়নি। তবে এ নৌরুটে কয়েক দিন যান চলাচল বন্ধ থাকে। এ প্রসঙ্গে প্রশ্ন করা হলে হানিফ এমন মন্তব্য করেন।

মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেন, ‘মিয়ানমারের কয়েকটি জাহাজ তাদের সীমানার মধ্যে আছে। সেক্ষেত্রে বাংলাদেশের কিছু বলার নেই।’

মিয়ানমার সীমান্তের একাধিক সূত্র জানায়, টানা সাড়ে তিন মাস ধরে মিয়ানমারের সরকারি বাহিনীর সঙ্গে দেশটির স্বাধীনতাকামী সশস্ত্র গোষ্ঠী আরাকান আর্মির লড়াই চলছে। সম্প্রতি মংডু টাউনশিপের উত্তর ও দক্ষিণ-পশ্চিম দিকে দুটি শহরসহ, সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড পুলিশের (বিজিপি) ১৪টি সীমান্তচৌকি, রাচিডং-বুচিডং টাউনশিপের বেশ কয়েকটি থানা ও পুলিশ ফাঁড়ি দখলে নিয়েছে আরাকান আর্মি। এখন মংডু দখলের জন্য লড়ছে তারা।

সীমান্ত এলাকার বাসিন্দাদের দাবি, টেকনাফ-সেন্ট মার্টিন নৌপথের শাহপরীর দ্বীপ বদরমোকাম এলাকায় মিয়ানমারের নৌবাহিনীর একটি জাহাজকে অবস্থান করতে দেখা যায়। তবে জাহাজটি মিয়ানমারের নাইক্ষ্যংদিয়া অংশে অবস্থান করছিল বলে নিশ্চিত করে টেকনাফ উপজেলা প্রশাসন। তিন দিন অবস্থানের পর শনিবার (১৫ জুন) সকাল থেকে জাহাজটি আর বাংলাদেশ সীমান্ত এলাকা থেকে দেখা যায়নি।

সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা জিএম কাদেরের ‘নিরাপত্তাহীনতায়’ অভিযোগের বিষয়ে হানিফ বলেন, ‘কী ধরনের নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে জিএম কাদের, তিনিই ভালো বলতে পারবেন।’

তিনি আরও বলেন, জাতীয় পার্টির প্রধান হুসেইন মুহম্মাদ এরশাদ, বিএনপির প্রধান জিয়াউর রহমান দেশের জন্য কিছু করে যেতে পারেননি বরং দেশের ক্ষতি ও ধ্বংস করে দিয়েছেন। সেই দেশকে আজ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উন্নয়নশীল রাষ্ট্রে পরিণত করেছেন। যারা সরকারের বিরুদ্ধে নেতিবাচক কথাবার্তা বলে তাদের অবশ্য নিজের চেহারা আয়নায় দেখে এসব কথাবার্তা বলতে বলেন হানিফ।

এ সময় জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান হাজী রবিউল ইসলাম ও সাংগঠনিক সম্পাদক শেখ হাসান মেহেদীসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।
 

কাঞ্চন/বকুল

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়