RisingBD Online Bangla News Portal

ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ০৩ ডিসেম্বর ২০২০ ||  অগ্রাহায়ণ ১৯ ১৪২৭ ||  ১৫ রবিউস সানি ১৪৪২

শিক্ষার্থীর হয়ে সমাবর্তনে সনদ নিলো রোবট

শাহিদুল ইসলাম || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২১:৩৮, ১১ এপ্রিল ২০২০   আপডেট: ০৫:২২, ৩১ আগস্ট ২০২০
শিক্ষার্থীর হয়ে সমাবর্তনে সনদ নিলো রোবট

বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব বেড়ে যাওয়ায় জনজীবন থমকে গেছে। করোনা আক্রান্ত দেশগুলো এখন স্বেচ্ছা গৃহবন্দি, সামাজিক দূরত্ব মেনে চলার ওপর জোর দিচ্ছে। অনেক বড় শহরও এখন লকডাউন করে দেওয়া হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।

ফলে বাধ্য হয়ে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো অনলাইন শিক্ষার দিকে ঝুঁকছে। তাই বলে অনলাইনে সমাবর্তন। তাও আবার এই মহামারির কালে। জাপানের একটি বিশ্ববিদ্যালয় কিন্তু ঠিকই এভাবে সমাবর্তন করে বিশ্বব্যাপী আলোচনার জন্ম দিয়েছে। এটিকে বলা হচ্ছে, বিশ্বের প্রথম অনলাইন সমাবর্তন!

জাপানের রাজধানী টোকিওতে অবস্থিত বিশ্ববিদ্যালয়টির নাম ‘বিজনেস ব্রেক থ্রু ইউনিভার্সিটি’। গত ৭ এপ্রিল বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তন অনুষ্ঠিত হয়। তবে এই অনুষ্ঠান বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে হয়নি। স্থানীয় একটি হোটেলে আয়োজিত সমাবর্তনে প্রতিষ্ঠানটির সর্বশেষ স্নাতক শেষ করা শিক্ষার্থীরা অংশগ্রহণ করে। সেই সমাবর্তনের কিছু ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।

ছবিতে দেখা যাচ্ছে মঞ্চে সমাবর্তন বক্তাসহ তিনজন শিক্ষক বসে আছেন। সামনে শিক্ষার্থীর বদলে রোবট দাঁড়িয়ে আছে। রোবটগুলোর হাতে স্নাতক সনদ। মাথায় আইপ্যাড যুক্ত করা। আইপ্যাডে প্রত্যেক শিক্ষার্থীর ছবি দেখা যাচ্ছে। রোবটগুলোর গায়ে সমাবর্তন গাউন এবং মাথায় হ্যাট। ঠিক যেন একজন শিক্ষার্থী দাঁড়িয়ে আছে।

নির্দিষ্ট নাম ঘোষণার সঙ্গে সঙ্গে ওই নামের শিক্ষার্থীর আদলে সাজানো রোবট সমাবর্তন মঞ্চের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। তারপর সনদ গ্রহণ করে ফিরে আসছে। আইপ্যাডের ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা তাদের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করছে।

এমন একটি উদ্যোগের ব্যাপারে বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক সুগো ইউনাকা বলেন, ‘পৃথিবীর সমাজব্যবস্থা সবসময় একভাবে চলে না। সময়, পরিস্থিতি অনুযায়ী পরিবর্তন হতে বাধ্য। সংকট আসবে, সমস্যা তৈরি হবে। তাই বলে কোনো কিছু থেমে থাকবে না। আমরা এই ধরনের সমাবর্তনের বিষয়ে বেশ কিছুদিন ধরেই ভাবছিলাম। কারণ সমাবর্তনের মতো একটি স্মরণীয় অনুষ্ঠান থেকে শিক্ষার্থীদের বঞ্চিত করতে চাইনি।’

এদিকে শিক্ষার্থীরাও খুশি। তারা বিশ্বের অন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতেও এমন প্রশংসনীয় ও অনুকরণীয় উদ্যোগ গ্রহণের ব্যাপারে পরামর্শ দিয়েছে।


ঢাকা/মারুফ/তারা

রাইজিংবিডি.কম

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়