ঢাকা, শুক্রবার, ২২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০৫ জুন ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

চুরি যাওয়া মোবাইল ফোন চাওয়ায় গায়ে আগুন

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০৩-২৮ ১০:১৩:০৯ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০৩-২৮ ১০:৩৪:১০ পিএম

নরসিংদীর মনোরহরদী এলাকায় চুরি যাওয়া মোবাইল ফোন ফেরত চাওয়ায় এক গৃহবধূকে আগুনে ঝলসে দিয়েছে তার চাচাতো ভাই।  তাকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে।

শুক্রবার দিবাগত রাতে এ ঘটনা ঘটে।  ওই গৃহবধূর নাম লাইলি বেগম। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক।  এ ঘটনায় একজনকে আটক করেছে পুলিশ।

শনিবার (২৮ মার্চ) বার্ন ইউনিটের চিকিৎসক রুহুল আমিন রাইজিংবিডিকে বলেন, লাইলির শরীরের ৬৬ ভাগ পুড়ে গেছে।  তার অবস্থা আশঙ্কাজনক। 

দগ্ধ লাইলীর ছেলে সুমন বলেন,  শুক্রবার দিবগত রাত দুইটার দিকে ঘরের সিঁধ কেটে জামাল, জজ মিয়া মনির হোসেন, আমির হোসেন, কাউছার মিয়া ও জরিনা বেগম ঘরে ঢুকে তার মায়ের শরীরে আগুন ধরিয়ে দিয়ে পালিয়ে যায়।  পরে চিৎকার চেঁচামেচি করলে আশে-পাশের লোকজন এসে লাইলিকে উদ্ধার করে। পরে প্রথমে মনোরহরী উপজেলা কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে শনিবার ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

সুমন অভিযোগ করেন, প্রায় ১০ দিন আগে লাইলির চাচাতো ভাই  জামাল তার মায়ের ২০ হাজার টাকা দামের একটি স্যামসাং মোবাইল ফোন চুরি করে।  এ ঘটনায় তারা মনোহরদী থানায় একটি সাধারণ ডায়েরিও করেছিল। পরে এলাকার চেয়ারম্যানসহ গণমান্য ব্যক্তিরা তাদের আশ্বাস দেয়। 

আমাদের ঢামেক প্রতিনিধি জানান, লাইলি বেগম নরসিংদীর মনোহরদী থানার ঘুসগাঁও গ্রামের সৌদি আরব প্রবাসী জামাল মিয়ার স্ত্রী।  তার স্বামী জামাল মিয়া প্রায় এক বছর ধরে সৌদি আরবে আছেন। 

মনোহরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্তকর্ত (ওসি) মনিরুজ্জামান  জানান, বলেন,  লাইলির ভাই বাদী হয়ে আটজনের নামের একটি মামলা করেছেন। একজনকে আটক করা হয়েছে।  বাকিদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।


মাকসুদ/সাইফ