ঢাকা     শনিবার   ২০ জুলাই ২০২৪ ||  শ্রাবণ ৫ ১৪৩১

কমলাপুর হাটে সকালেই বিক্রি হয়ে গেছে একাংশের সব পশু

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৩:১০, ১৬ জুন ২০২৪   আপডেট: ১৫:৩৯, ১৬ জুন ২০২৪
কমলাপুর হাটে সকালেই বিক্রি হয়ে গেছে একাংশের সব পশু

ছবি: মনজুরুল আলম মুকুল

পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে জমে উঠেছে রাজধানীর দুই সিটি কর্পোরেশনে স্থায়ী ২টিসহ মোট ২০টি পশুর হাটে শেষ মুহূর্তে বেচাকেনা। এর মধ্যে ঈদের আগেরদিন সকালেই কমলাপুর বসা পশুর হাটের একাংশে সব পশু বিক্রি হয়ে গেছে।

গোপীবাগের লিটল ফ্রেন্ডস ক্লাব, কমলাপুর স্টেডিয়ামের পাশের খালি জায়গা এবং বাংলাদেশ ব্যাংকের পাশ থেকে শুরু করে দেওয়ানবাগ শরীফ হয়ে গোপীবাগের কিছু এলাকাজুড়ে এই হাটের অবস্থান। হাটে প্রবেশের প্রধান ফটক রাখা হয়েছে কমলাপুর ও মুগদার সংযোগ সড়কে। এটি কমলাপুর পশুর হাট নামেই পরিচিত। এটি ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের আওতায় বসা ১১টি হাটের একটি। এর মধ্যে বাংলাদেশ ব্যাংকের পেছনের অংশের সব পশু আজ রোববার সকালেই বিক্রি হয়ে গেছে। বিক্রেতারা বলছেন, রাতেই প্রায় সব পশু বিক্রি হয়ে যায়। যে কয়েকটা বাকি ছিল সকালেই বিক্রি হয়ে গেছে।

ঝিনাইদহ, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, যশোর, চুয়াডাঙ্গা, সিরাজগঞ্জসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে পশু বিক্রেতারা এ হাটে গরু নিয়ে এসেছিলেন বিক্রির আশায়। সব পশু বিক্রি হয়ে যাওয়ায় তারা খুশি। এমনকি আজ বাড়ির উদ্দেশ্যে রওয়ানা দিলে কাল পরিবারের সাথে ঈদ করতে পারবেন বলেও আশা করছেন। এবার পশুর দাম নিয়ে বিক্রেতা সন্তুষ্ট বলেও জানিয়েছেন।

এ বছর কমলাপুর গরুর হাটের ইজারাদার ও সমন্বয়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন গিয়াসউদ্দিন পলাশ। হাটের আয়োজকরা জানিয়েছেন, হাটের পরিবেশ সুন্দর রাখার জন্য সর্বোচ্চ সচেষ্ট রয়েছেন তারা। পশু বিক্রিও হচ্ছে ভালোই।

আয়োজকরা আরও জানান, এ বছর ডিজিটাল ব্যাংকিং ব্যবস্থা রয়েছে হাটে। গরু-ছাগলের জন্য চিকিৎসার ব্যবস্থাও রয়েছে। এছাড়া পাইকারদের জন্য থাকা খাওয়ার ব্যবস্থা থাকছে। হাটের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে সিসি ক্যামেরা দিয়ে সার্বক্ষণিক মনিটরিং করা হচ্ছে। ক্রেতা-বিক্রেতাদের বিভিন্ন প্রয়োজনে হাট কর্তৃপক্ষের টিম জরুরি ভিত্তিতে সহায়তা করছে।

এদিকে, কমলাপুর হাটের অন্য অংশে পর্যাপ্ত গরু, ছাগল, ভেড়া রয়েছে। শেষ মুহূর্তে বেচাকেনা বেশ জমে উঠেছে। এই বাজারে মাঝারি আকারের গরুর চাহিদা বেশি বলে জানা গেছে। ক্রেতা-বিক্রেতা উভয়ের মতে এই বাজারে দাম এখনো সহনীয় পর্যায়ে রয়েছে

সরেজমিন ঘুরে দেখা গেছে, হাট ভর্তি বিভিন্ন জাতের দেশি ছোট, মাঝারি ও বড় জাতের অসংখ্য গরু উঠেছে, হাটে ক্রেতাদের প্রচণ্ড ভিড় লক্ষ্য করা গেছে। তবে,পশুর হাটে আসা অধিকাংশ ক্রেতাই স্থানীয়ভাবে খামারে লালন-পালন করা দেশি গরুই পছন্দ করছেন।  অনেক ক্রেতা মনে করছেন আজ শেষ দিন বিকেলে বা রাতে দাম কমে যাবে। তখন কোরবানির পশু তারা সস্তায় কিনবেন। গরুর পাশাপাশি হাটে প্রচুর ছাগল, ভেড়াও উঠেছে। ১০ থেকে ২০ হাজার টাকার মধ্যে কোরবানির একটি ছাগল ক্রয় করা সম্ভব।

পবিত্র ঈদুল আজহায় সার্বিক নিরাপত্তা সম্পর্কে সম্প্রতি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছিলেন, সারা দেশের সড়ক-মহাসড়কে হাট বসা নিষিদ্ধ থাকবে। পশুহাটে পশু চিকিৎসক থাকবেন। পশু কোনো নির্ধারিত হাটে নেওয়ার জন্য জোর করলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। হাসিলের পরিমাণ সাইন বোর্ডে লেখা থাকতে হবে। সুনির্দিষ্ট তথ্য ছাড়া কোরবানির পশুবাহী যানবাহন থামানো যাবে না। পশুর হাটে অস্থায়ী পুলিশ ক্যাম্প রাখা হবে, জাল নোট শনাক্ত করার মেশিন ও এটিএম বুথও থাকবে।

মন্ত্রী বলেছিলেন, সিসি ক্যামেরার আওতায় থাকবে পশুর হাট। এ বছর সারা দেশে কমবেশি চার হাজার ৩৯৯টি পশুর হাট বসবে বলে আমাদের কাছে খবর এসেছে। এছাড়া সাদা পোশাকে আমাদের গোয়েন্দারা সার্বিক বিষয় মনিটরিং করবেন।

ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের কর্মকর্তারা জানান, ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন (ডিএনসিসি) এলাকায় গাবতলীর স্থায়ী হাটসহ ৯টি হাট এবং ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) এলাকায় সারুলিয়া স্থায়ী পশুর হাটসহ ১১টি হাট বসেছে। তবে এ বছর আদালতের নির্দেশনার কারণে আফতাবনগরে হাট বসেনি।

ঢাকা উত্তরে অস্থায়ী ৮টি হাটের মধ্যে রয়েছে- উত্তরা দিয়াবাড়ীর ১৬ ও ১৮ নম্বর সেক্টরের পাশের খালি জায়গা, ঢাকা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের পাশের খালি জায়গা, মস্তুল চেকপোস্ট এলাকা, মিরপুর ৬ নম্বর সেকশনের ইস্টার্ন হাউজিংয়ের খালি জায়গা, ভাটারার সুতিভোলা খালের কাছের খোলা জায়গা, মোহাম্মদপুরের বছিলায় ৪০ ফুট সড়কের পাশের খালি জায়গা, ভাটুলিয়া সাহেব আলী মাদ্রাসা থেকে রানাভোলা স্লুইচগেট পর্যন্ত খালি জায়গা ও দক্ষিণখানের জামুন এলাকার খালি জায়গা।

ঢাকা দক্ষিণে অস্থায়ী ১০টি হাটের মধ্যে রয়েছে- খিলগাঁও রেলগেট মৈত্রী সংঘ ক্লাবসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গা, হাজারীবাগের ইনস্টিটিউট অব লেদার টেকনোলজি কলেজ সংলগ্ন উন্মুক্ত এলাকা, পোস্তগোলা শ্মশানঘাট সংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গা, বনশ্রীর মেরাদিয়া বাজারসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গা, লিটল ফ্রেন্ডস ক্লাবসংলগ্ন খালি জায়গা, কমলাপুর স্টেডিয়ামসংলগ্ন বিশ্বরোডের আশপাশের খালি জায়গা, দনিয়া কলেজসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গা, ধোলাইখাল ট্রাক টার্মিনালসংলগ্ন উন্মুক্ত এলাকা, আমুলিয়া মডেল টাউনের আশপাশের খালি জায়গা, লালবাগে রহমতগঞ্জ ক্লাবসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গা।

/হাসান/সাইফ/

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়