ঢাকা, বুধবার, ৩০ কার্তিক ১৪২৫, ১৪ নভেম্বর ২০১৮
Risingbd
সর্বশেষ:

তিন ঘণ্টা আগেই অনশন শেষ করল বিএনপি

রেজা পারভেজ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৮-০২-১৪ ২:৪২:৩৬ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-০২-১৪ ৩:০৬:৫২ পিএম

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক : দুর্নীতির মামলায় দণ্ডপ্রাপ্ত বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে দিনব্যাপী অনশন কর্মসূচি শুরু করে নির্দিষ্ট সময়ের তিন ঘণ্টা আগে শেষ করেছে দলের নেতা-কর্মীরা।

বুধবার সকাল ১০টার দিকে জাতীয় প্রেসক্লাবের সমানে কর্মসূচিতে বসেন নেতা-কর্মীরা। অনুষ্ঠানটি শেষ হওয়ার কথা ছিলো বিকেল ৪টায়। কিন্তু প্রেসক্লাব এলাকায় অনশন ঘিরে 'তীব্র যানজট' ও 'অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা'র আশঙ্কায় কর্মসূচি শেষ করতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর পক্ষ থেকে বলা হয়। এ কারণে নির্দিষ্ট সময়ের তিন ঘণ্টা আগে দুপুর ১টার দিকে কর্মসূচি শেষ করে বিএনপি।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, 'পুলিশের অনুরোধে দুপুর ১টার মধ্যে আমরা আমাদের কর্মসূচি শেষ করতে বাধ্য হচ্ছি।'

বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতারাসহ ২০ দলীয় জোটের শরিক দল এবং বিএনপির অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীরা অংশ নেন।

গত ৮ ফেব্রুয়ারি খালেদা জিয়া কারান্তরীন হওয়ার পর দুদিনের বিক্ষোভের পর মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচি শেষে বুধবার অনশনে বসে বিএনপি।

অনশন কর্মসূচিতে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মওদুদ আহমদ, নজরুল ইসলাম খান, আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ, নিতাই রায় চৌধুরী, এ জেড এম জাহিদ হোসেন, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা জয়নুল আবদীন ফারুক, যুগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, খায়রুল কবির খোকন, সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন, সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্সসহ বিএনপি ও তার অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

অনশনের শুরুতে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরকে দেখা যায়নি। তিনি মামলায় আদালতে হাজিরা দিয়ে দুপুরের দিকে অনশনে যোগ দেন।

২০ দলীয় জোটের নেতাদের মধ্যে ছিলেন এলডিপির সাহাদাত হোসেন সেলিম, লেবার পার্টির একাংশের হামদুল্লাহ আল মেহেদী, ন্যাপের গোলাম মোস্তফা ভুঁইয়া প্রমুখ।

বিএনপি সমর্থক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, চিকিৎসক, প্রকৌশলী, আইনজীবীও অনশনের কর্মসূচির প্রতি একাত্মতা প্রকাশ করে কর্মসূচিতে অংশ নেন।

 

 

রাইজিংবিডি/ঢাকা/১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৮/রেজা/ইভা

Walton Laptop
 
     
Marcel