ঢাকা     শনিবার   ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ ||  আশ্বিন ১১ ১৪২৭ ||  ০৮ সফর ১৪৪২

১২ আগস্ট লেবানন থেকে কিছু বাংলাদেশিকে ফিরিয়ে আনবে বিমান বাহিনী

কূটনৈতিক প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৪:২৪, ১০ আগস্ট ২০২০   আপডেট: ১৬:০৯, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০
১২ আগস্ট লেবানন থেকে কিছু বাংলাদেশিকে ফিরিয়ে আনবে বিমান বাহিনী

বৈরুতে বিস্ফোরণস্থল (ফাইল ছবি)

অর্থনৈতিক মন্দার কারণে গত কয়েক মাস ধরেই লেবানন থেকে দেশে ফিরতে চেয়েছেন ৮ হাজারের মতো বাংলাদেশি।  সম্প্রতি বৈরুতে সংঘটিত ভয়াবহ বিস্ফোরণের পর দেশে ফিরতে আগ্রহীদের সংখ্যা আরও বেড়েছে। 

এর মধ্য থেকে কিছু সংখ্যক বাংলাদেশিকে আগামী ১২ আগস্ট (বুধবার) ফিরিয়ে আনবে বিমান বাহিনীর একটি পরিবহন বিমান।

আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তরের (আইএসপিআর) সহকারী পরিচালক মো. নূর ইসলাম জানান, বৈরুতে ভয়াবহ বিস্ফোরণে ক্ষতিগ্রস্তদের সাহায্যে বাংলাদেশ সরকারের দ্রুত মানবিক ও ত্রাণ সহায়তা পাঠানোর সিদ্ধান্তের পরিপ্রেক্ষিতে, বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর একটি সি-১৩০জে পরিবহন বিমান লেবানন গেছে। আগামী ১২ আগস্ট বিমানটি দেশে ফেরার কথা। ফিরতি পথে বিমানটি কিছু প্রবাসী বাংলাদেশিকে দেশে ফিরিয়ে আনবে।

বৈরুত দূতাবাসের প্রথম সচিব (শ্রম) দূতাবাস প্রধান আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, দেশে ফিরতে দূতাবাসের আহ্বানের পর প্রবাসীদের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে প্রাথমিকভাবে পাঁচ থেকে সাড়ে পাঁচশ' প্রবাসীকে দেশে ফেরত পাঠানোর প্রস্ততি নিচ্ছিলো দূতাবাস। যাদের করোনাভাইরাস পরীক্ষা করে ফলাফল নেগেটিভ হবে তারা দেশে ফিরতে পারবেন। এছাড়া লেবানন সরকারের সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমে দেশটির ডিটেনশন সেন্টারে আটক প্রবাসী বাংলাদেশিদেরও দেশে পাঠানো হচ্ছে।  গত শুক্রবার ৮৪ জন দেশে ফিরেছেন।  এই প্রক্রিয়াও চলমান।

তিনি বলেন, আগামী ১২ আগস্ট কতজন দেশে ফেরত যেতে পারবে, তা এখনো চূড়ান্ত নয়।

বাংলাদেশ সরকারের ঘোষণা অনুযায়ী ভয়াবহ বিস্ফোরণে আহতদের সাহায্যে চিকিৎসা সামগ্রী, জরুরি খাদ্য সামগ্রী, খুচরা যন্ত্রাংশ এবং মেডিক্যাল টিম পাঠিয়েছে সরকার। এসব সরঞ্জাম লেবাননে নিয়ে গেছে বিমান বাহিনীর একটি পরিবহন বিমান।

ঢাকা/হাসান/জেডআর

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়