ঢাকা     মঙ্গলবার   ১৬ জুলাই ২০২৪ ||  শ্রাবণ ১ ১৪৩১

বিনোদনকেন্দ্রে উৎসবপ্রেমী মানুষের ভিড় 

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৭:৫৬, ১৮ জুন ২০২৪   আপডেট: ১৮:০৪, ১৮ জুন ২০২৪
বিনোদনকেন্দ্রে উৎসবপ্রেমী মানুষের ভিড় 

বিনোদনপ্রেমী মানুষের বিপুল উপস্থিতি দেখা গেছে রাজধানীর অন্যতম বিনোদনকেন্দ্র হাতিরঝিলে

রাজধানীসহ সারা দেশে গতকাল সোমবার (১৭ জুন) উদযাপন করা হয়েছে ঈদুল আজহা। ঈদের দিনে নামাজ আদায় এবং পশু কোরবানি ও মাংস বণ্টন নিয়ে ব্যস্ততার কারণে অনেকে বাইরে বের হতে পারেননি। তারা ঈদের পরদিন মঙ্গলবার (১৮ জুন) পরিবারের সদস্য বা বন্ধুদের সঙ্গে বিনোদনকেন্দ্রগুলোতে যাচ্ছেন আনন্দ উদযাপনের জন্য। আজ রাজধানীর বিনোদনকেন্দ্রগুলোতে মানুষের ঢল নেমেছে। সব বয়সী মানুষ মেতেছেন আনন্দে।

বরাবরের মতো এবারের ঈদেও বিনোদনপ্রেমী মানুষের বিপুল উপস্থিতি দেখা গেছে রাজধানীর অন্যতম বিনোদনকেন্দ্র হাতিরঝিলে। দৃষ্টিনন্দন ও সবুজে ঘেরা হাতিরঝিল লেকের দুই পাড়েই মানুষের ঢল। তারা দাঁড়িয়ে কিংবা বসে আড্ডা দিচ্ছেন এবং ছবি ও সেলফি তুলছেন। অনেকে লেকের পানিতে ওয়াটার ট্যাক্সিতে ঘুরছেন।

রামপুরা থেকে পরিবার নিয়ে হাতিরঝিলে ঘুরতে এসেছেন জাহিদুল ইসলাম। তিনি বলেন, চাকরি করি, তাই পরিবারকে বেশি সময় দিতে পারি না। ঈদের ছুটিতে পরিবার নিয়ে আমি প্রতিবারই এখানে ঘুরতে আসি। তবে, আকাশের যে অবস্থা! বৃষ্টি আসলে আনন্দে ভাটা পড়বে।

মানুষের সরব উপস্থিতি দেখা গেছে, জাতীয় সংসদ ভবন এলাকা ও তৎসংলগ্ন চন্দ্রিমা উদ্যানেও। এসব এলাকায় বিনোদনপ্রেমীরা এসেছেন দলে দলে।

ছোট্ট মাইশা এ প্রতিবেদককে বলে, আঙ্কেল, আমার এখানে না আসলে ঈদই হয় না। এজন্য আব্বু-আম্মুকে নিয়ে আমি প্রতিবারই এখানে আসি। আমার খুব ভালো লাগছে।

তার মা জেসমিন আক্তার বলেন, আমাদের ঈদের সবকিছুই ছোট্ট বাবুর হাসি-আনন্দকে কেন্দ্র করে। তাকে উপলক্ষ করে এখানে আসলে আমাদের ঈদ পূর্ণতা পায়। ঈদ মোবারক।

সরেজমিন ঘুরে দেখা যায়, ঈদের দ্বিতীয় দিন সব বিনোদনকেন্দ্রে ভিড় করেছেন নানা শ্রেণি-পেশার মানুষ। তাদের মধ্যে শিশু-কিশোর-তরুণসহ সব বয়সী নারী- পুরুষ রয়েছেন।  

হাতিরঝিল ও চন্দ্রিমা উদ্যান ছাড়াও রাজধানীর রমনা পার্ক, ধানমন্ডি লেক, চিড়িয়াখানা, সোহরাওয়ার্দী উদ্যান, বঙ্গবন্ধু নভোথিয়েটারসহ অন্যান্য বিনোদনকেন্দ্রেও মানুষের কমতি নেই। 

রাজধানীর কয়েকটি বিনোদনকেন্দ্র ঘুরে দেখা গেছে, ঈদের পরদিন দর্শনার্থীদের ভিড় সামাল দিতে বিশেষ প্রস্তুতি ও নিরাপত্তার ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। 

চিড়িয়াখানার পাশাপাশি মিরপুরের বোটানিক্যাল গার্ডেন, আগারগাঁওয়ের বিমান জাদুঘর, শ্যামলী শিশুমেলা, ধানমন্ডির রবীন্দ্র সরোবর, রাসেল পার্কসহ অন্য বিনোদনকেন্দ্রও খোলা রয়েছে। ঈদের ছুটিতে প্রতিবারের মতো এবারও এসব বিনোদনকেন্দ্রে প্রচুর দর্শনার্থীর সমাগম হচ্ছে। পুরান ঢাকার ওয়ারিতে অবস্থিত বলধা গার্ডেন, কোতোয়ালি এলাকার আহসান মঞ্জিলও খোলা রয়েছে। এসব বিনোদনকেন্দ্রে অবশ্য ঢুকতে হবে টিকিট কেটে।

ঈদে মিরপুর চিড়িয়াখানা সব বয়সী মানুষের অন্যতম বিনোদনকেন্দ্র। ঈদের দিনেরর মতো আজও সকাল থেকেই দর্শনার্থীদের জন্য খোলা রয়েছে চিড়িয়াখানা। দর্শনার্থীদের নিরাপত্তা ও ভোগান্তি কমাতে বেশকিছু উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। মেরামত করা হয়েছে খাঁচা, দেওয়াল ও রাস্তা। প্রাণীদের সুরক্ষায় নেওয়া হয়েছে বিশেষ ব্যবস্থা। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, ঈদের দিন থেকে পরবর্তী পাঁচ-ছয় দিনে চিড়িয়াখানায় কম পপক্ষে পাঁচ লাখ দর্শনার্থীর সমাগম ঘটে। 

এ বিষয়ে চিড়িয়াখানার পরিচালক ড. মোহাম্মাদ রফিকুল ইসলাম তালুকদার বলেন, প্রতি বছরের মতো এবারও ঈদের দদিন সকাল থেকেই শুরু হয়েছে দর্শনার্থীদের আগমন। তবে গতকাল ঈদের নামাজের পরই পুরো মাত্রায় ভিড় শুরু হয়েছিল। ঈদে নতুন কোনো প্রাণী প্রদর্শন করছি না। সদ্য জন্ম নেওয়া বাঘ শাবক ও অন্য প্রাণী দর্শনার্থীদের বিনোদন দেবে। প্রাণীদের সুরক্ষায় নেওয়া নানান পদক্ষেপের কথা জানিয়ে তিনি বলেন, প্রাণীগুলো যাতে অসুস্থ না হয় সে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। প্রাণীদের রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর জন্য টিকা ও বুস্টার দেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, চিড়িয়াখানার সাজসজ্জা করছি। কিছু খাঁচা মেরামত করেছি। নতুন দুটি ক্যান্টিন ঈদের আগেই উদ্বোধন করেছি। এছাড়া দর্শনার্থীদের নিরাপত্তার প্রতি আমরা মনোযোগী। তারা যেন সহজে চিড়িয়াখানায় প্রবেশ করতে পারেন সেজন্য টিকিট কাউন্টার ও প্রবেশ গেট বাড়ানোর কাজ করছি। আইনশৃঙ্খলার জন্য ট্রাফিক পুলিশ, সিটি করপোরেশন সব জায়গায় কথা বলেছি।

শাহবাগ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোস্তাজিরুর রহমান রাইজিংবিডিকে বলেন, সোহরাওয়ার্দী উদ্যান, রমনা পার্ক, ঢাকা গেট, তিন নেতার মাজার, টিএসসিসহ আশপাশের এলাকায় অনেকে ঈদের আনন্দ উদযাপন করতে আসেন। কোথাও যেন কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে, সেজন্য পুলিশ সদা প্রস্তুত রয়েছে। বাড়ানো হয়েছে গোয়েন্দা নজরদারি।

অন্যদিকে, ঈদকে কেন্দ্র করে বিনোদনকেন্দ্রের পাশাপাশি ও বিভিন্ন স্থানে জমজমাট ঈদমেলা বসেছে। পুরান ঢাকার বংশালে সিটি কর্পোরেশনের ঈদমেলায় ভিড় করছেন শিশুসহ নানা বয়সীরা। শিশুদের জন্য বিভিন্ন ধরনের খেলনা ও রাইডের পাশাপাশি নানা আয়োজন রয়েছে।

মাকসুদ/এমএ/রফিক 

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়