ঢাকা     শুক্রবার   ০২ ডিসেম্বর ২০২২ ||  অগ্রহায়ণ ১৮ ১৪২৯ ||  ০৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪১৪

‘স্থানীয় ক্রিকেটেও এমন উইকেট দেখিনি’, বিস্ফোরক বাংলাদেশ কোচ

ক্রীড়া প্রতিবেদক, সিলেট থেকে || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৬:৩৬, ৪ অক্টোবর ২০২২   আপডেট: ১৬:৪৯, ৪ অক্টোবর ২০২২
‘স্থানীয় ক্রিকেটেও এমন উইকেট দেখিনি’, বিস্ফোরক বাংলাদেশ কোচ

বাংলাদেশ-পাকিস্তান ম্যাচের উইকেট নিয়ে এবার ক্ষোভ উগড়ে দিলেন নারী দলের কোচ মাহমুদুল ইমন। এর আগে পাকিস্তান ওপেনার সিদরা আমিন বলেছিলেন, এটি আদর্শ উইকেট নয়। আর বাংলাদেশের অভিজ্ঞ অলরাউন্ডার সালমা খাতুন বলছিলেন এমন উইকেটের ধারাণা ছিল না তাদের।

ম্যাচের পর দিন মঙ্গলবার (৪ অক্টোবর) উইকেট নিয়ে প্রশ্নে সাংবাদিকদের ইমন বলেন, ‘এটা (সিলেট) যেহেতু আমার হোম ডিস্ট্রিক্ট। আমি স্থানীয় ক্রিকেটেও এরকম উইকেট দেখিনি। এটা মেয়েদের ক্রিকেটের জন্য, আমাদের যে এফটিপি ট্যুর আছে, যে কাজগুলো আছে, আমাদের বিশ্বকাপ আছে দক্ষিণ আফ্রিকায়। সব মিলিয়ে আমাদের মনোবল ও প্রস্তুতির জন্য এটা পিছিয়ে দেওয়ার জন্য যথেষ্ট।’

বাংলাদেশ নারী দলের কোচিংয়ে আসার আগে সিলেট বিভাগের বিসিবির নিয়োগপ্রাপ্ত কোচ হিসেবে কাজ করেছেন দীর্ঘদিন। সেই ধারণা থেকেই দুপুরে সিলেট স্টেডিয়ামে দাঁড়িয়ে এভাবকে ক্ষোভ উগড়ে দেন। বাংলাদেশ এই ম্যাচে আগে ব্যাটিং করে মাত্র ৭০ রান করে। পাকিস্তান রান তাড়ায় নেমে ৯ উইকেটে জিতে মাঠ ছাড়ে।

উইকেটের সঙ্গে মেয়েদের খারাপ পারফরম্যান্সের কথাও অবশ্য মেনে নিয়েছেন কোচ। ব্যাটারদের অ্যাপ্রোচ ছিল বাজে। বোলিং-ফিল্ডিংয়েও ছিল দিশাহীন। কোচ বলেন, ‘আমি পরিস্কারভাবে বলতে চাই উইকেটের যে আচরণ ছিল এটা ডিসাইডেড ম্যাচ ছিল। আপনারা দেখতে পারবেন উইকেটের আচরণটা। তারপরও আমরা তিন বিভাগেই খারাপ খেলেছি।’

বাংলাদেশ কোচের আকুতি স্পোর্টিং উইকেটের, ‘আমি সত্যি কথা যদি বলি আমি ঘরের দল হিসেবে সুবিধা চাই না। কিন্তু একটা স্পোর্টিং উইকেটের প্রয়োজন। আমি সব জায়গায় দেখেছি, যত জায়গায় মেয়েদের ক্রিকেটের খেলা হয়েছে। চেষ্টা করে স্পোর্টিং উইকেট দেওয়ার।’

পাকিস্তানের বিপক্ষে হারের পর বাংলাদেশ আজ পূর্ব নির্ধারিত অনুশীলনে আসেনি। হোটেলে রিকভারি সেশন করে সময় কাটিয়েছেন জ্যোতি-সালমারা। পরবর্তী ম্যাচ মালয়েশিয়ার বিপক্ষে ৬ অক্টোবর। প্রথম দুই ম্যাচ সকালে খেললেও এবার বাংলাদেশ নামবে দুপুরের ম্যাচে। খেলাটি হবে সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়াম।

সিলেট/রিয়াদ/আমিনুল

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়