ঢাকা     শনিবার   ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ||  ফাল্গুন ১২ ১৪৩০

হাত দিয়ে বল ঠেলে আউট মুশফিক

ক্রীড়া প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৩:১২, ৬ ডিসেম্বর ২০২৩   আপডেট: ১৩:৪১, ৬ ডিসেম্বর ২০২৩
হাত দিয়ে বল ঠেলে আউট মুশফিক

কাইল জেমিনসনের বল হাত দিয়ে ঠেলে আউট হলেন মুশফিকুর রহিম। ক্রিকেটের অভিধানে এই আউটকে বলা হয়েছে ‘হ্যান্ডলড দ্য বল।’ যদিও ২০১৭ সালে এটিকে 'অবস্ট্রাক্টিং দা ফিল্ড' এর অন্তর্ভুক্ত করে এমসিসি। বাংলাদেশের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে এই আউট হলেন মুশফিক। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ১১তম এবং টেস্টে অষ্টম ব্যাটসম্যান হিসেবে ‘হ্যান্ডলড দ্য বল’ আউট হলেন এই ক্রিকেটার।

কিউই পেসার জেমিনসনের বল ব্যাকফুটে খেলেছিলেন মুশফিক। কোনো বিপদ সেখানে হয়নি। বল পয়েন্টের দিকে যেতে থাকে। কিন্তু মুশফিক ইচ্ছাকৃতভাবে বল ডান হাত দিয়ে ধরে সরিয়ে দেন। যা ক্রিকেটের আইনের বাইরে। মুশফিক ব্যাট দিয়ে বল সরালে কোনো ঝামেলা হতো না। কিন্তু ইচ্ছাকৃতভাবে বল হাত দিয়ে সরানোর সুযোগ নেই। নিউ জিল্যান্ডের খেলোয়াড়রা এতে ‘হ্যান্ডলড দ্য বল’ আউটের আবেদন করেন। তৃতীয় আম্পায়ার ভিডিও রিপ্লে দেখে সন্তুষ্ট হয়ে যান, মুশফিক আউট।

বাংলাদেশের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে 'অবস্ট্রাক্টিং দা ফিল্ড' আউট হলেন মুশফিক। এর আগেও একই কাজ করতে গিয়ে বেঁচে গিয়েছিলেন মুশফিক। মধ্যাহ্ন বিরতির পর টিম সাউদির করা দ্বিতীয় বল তার ব্যাটের নিচের অংশে লেগে উইকেটের পেছনে যায়। মুশফিক হাত দিয়ে বল সরাতে চেয়েছিলেন। কিন্তু বল তার নাগালের বাইরে যাওয়ায় পারেননি। নয়তো প্রথমবারই আউট হয়ে যেতেন।

মুশফিকের এমন আউট কোনোভাবেই মানতে পারছেন না তার সতীর্থ তামিম ইকবাল। তামিমের আজ ধারাভাষ্যকার হিসেবে অভিষেক হয়েছে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে। ওই সময়ে তামিমের হাতেই ছিল মাইক। সতীর্থর আউট নিয়ে তামিম বলেছেন,‘এটা কোনোভাবেই মানতে পারছি না। লম্বা সময় মুশফিক আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে কাটিয়ে দিয়েছে। এরকম ভুল কিভাবে করে।’

তামিম আরেকটি বিষয়ও সামনে এনেছেন,‘অনেক সময় দেখা যায় আমরা নেটে লম্বা সময় ব্যাটিং করার সময় বল ডিফেন্স করে নাগালেই থাকে। ওই সময়ে বল ধরে আমরা বোলারকে ফিরিয়ে দেই। ওই অভ্যাসটা থাকে আমাদের থাকে। যদিও এই আউটের কোনো অজুহাত হতে পারে না। স্কোরবোর্ড হুট করেই পরিবর্তন হয়ে গেল।’

সাথে থাকা ধারাভাষ্যকার আতাহার আলী খানও একই কথা বলেছেন, ‘এটা বোকামি। এর আগেও একবার এরকম হতে চলছিল। তখনও একই কথা বলা হচ্ছিল। মুশফিকুর রহিম কিভাবে এটা করতে পারেন। লম্বা ইনিংসের সুযোগ হাতছাড়া করল।’ ৮৩ বলে ৩৫ রান করে মুশফিক আউট হলেন। শাহাদাত হোসেন দিপুর সঙ্গে ১৫৪ বলে ৫৭ রানের জুটি গড়েছিলেন তিনি। 

ঢাকা/ইয়াসিন/বিজয়

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়