ঢাকা     বুধবার   ২৪ এপ্রিল ২০২৪ ||  বৈশাখ ১১ ১৪৩১

কালকিনিতে স্বতন্ত্র প্রার্থীর বিজয় মিছিলে বোমা হামলার পর নৌকা সমর্থকদের বাড়ি লুট

মাদারীপুর প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৭:১৭, ৮ জানুয়ারি ২০২৪   আপডেট: ১৭:২২, ৮ জানুয়ারি ২০২৪
কালকিনিতে স্বতন্ত্র প্রার্থীর বিজয় মিছিলে বোমা হামলার পর নৌকা সমর্থকদের বাড়ি লুট

মাদারীপুরের কালকিনিতে স্বতন্ত্র প্রার্থীর বিজয় মিছিলে বোমা হামলা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে ১০ জন হয়েছেন। এদের মধ্যে দুই জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। সোমবার (৮ জানুয়ারি) সকাল ১১টার দিকে উপজেলার আলিনগর ইউনিয়নের ফাসিয়াতলা বাজারে হামলাটি হয়। এদিকে, একই সময়ে কালকিনি পৌরসভার চরঠেঙ্গামারা এলাকায় নৌকার সমর্থন করায় ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের বাড়িসহ বেদে পল্লীর অন্তত ১৫টি বাড়ি ঘরে ভাঙচুর ও লুটপাটের অভিযোগ উঠেছে স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের বিরুদ্ধে।

স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মাদারীপুর-৩ আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত ‘নৌক’ প্রতীকের প্রার্থী ড. আবদুস সোবহান মিয়া গোলাপকে পরাজিত করে জয়ী হন ‘ঈগল’ প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী তাহমিনা বেগম। সোমবার সকালে তাহমিনার সমর্থক আলিনগর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান মিলন সরদারের নেতৃত্বে একটি বিজয় মিছিল বের হয়। মিছিলটি কালিগঞ্জ থেকে ফাসিয়াতলা বাজারের দিকে যাওয়ার সময় বোমা হামলার ঘটনা ঘটে। এতে অন্তত ১০জন আহত হন। পরে আহতদের উদ্ধার করে কালকিনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

‘ঈগলের’ সমর্থক ও আলীনগর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান মিলন সরদার বলেন, আলীনগর ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান শাহিদ পারভেজের নেতৃত্বে আমাদের বিজয় মিছিলে বোমা হামলা চালানো হয়েছে। এতে আমাদের অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন। 

এদিকে, হামলা বিষয়টি অস্বীকার করেছেন চেয়ারম্যান শাহিদ পারভেজ।

অন্যদিকে কালকিনি পৌরসভার চর ঠেঙ্গামারা এলাকায় নৌকার প্রার্থী আব্দুস সোবহান মিয়া গোলাপের সমর্থন করায় বেদে সম্প্রদায়ের অন্তত ১৫টি বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাটের অভিযোগ স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের বিরুদ্ধে। কালকিনি পৌরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বাবুল বেপারী দাবি করেন, নৌকায় ভোট দেওয়ার কারণে স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থক উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সোহেল রানা মিঠু ও ছাত্রলীগ সভাপতি বাকামিনের নেতৃত্বে হামলা ও লুটপাট চালানো হয়েছে।

এবিষয়ে কালকিনি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সরকার আল মামুন বলেন, দুটি ঘটনার সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলগুলোতে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে। এ বিষয় এখনো কোনো অভিযোগ পাইনি। পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

মাদারীপুর সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. নুরুল ইসলাম বলেন, আহত কয়েকজন ভর্তি হয়েছেন। এদের মধ্যে অবস্থা গুরুতর হওয়ায় দুইজনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য শেখ হাসিনা বার্ণ ইউনিটে পাঠানো হয়েছে।

বেলাল/মাসুদ

ঘটনাপ্রবাহ

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়