ঢাকা     শনিবার   ১৩ এপ্রিল ২০২৪ ||  চৈত্র ৩০ ১৪৩০

নড়াইলের ২টি আসনের ১৩ প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত

নড়াইল প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২০:১২, ১০ জানুয়ারি ২০২৪   আপডেট: ২০:১২, ১০ জানুয়ারি ২০২৪
নড়াইলের ২টি আসনের ১৩ প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত

নড়াইলের দুটি সংসদীয় আসনে নির্দিষ্ট পরিমাণ ভোট না পাওয়ায় ১৩ প্রার্থী জামানত বাজেয়াপ্ত হয়েছে। এই দুই আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত ‘নৌকা’ প্রতীকের প্রার্থীরা জয়ী হয়েছেন। জামানত বাজেয়াপ্ত প্রার্থীদের মধ্যে ৯ জন বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের এবং চার জন স্বতন্ত্র।

নড়াইল-২ আসনে নৌকার মাশরাফি বিন মুর্তজার বিপক্ষে প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন ৭ জন। নড়াইল-১ আসনে নৌকার কবিরুল হক মুক্তির প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন ছয় প্রার্থী।

নড়াইলের জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. আশফাকুল হক চৌধুরী বলেন,‌ ‘নড়াইলের দুটি আসনে ১৩ প্রার্থী জামানত হারিয়েছেন। নির্বাচন কমিশনের বিধি অনুযায়ী, মোট প্রদত্ত ভোটের আট ভাগের এক ভাগের না পাওয়ায় প্রার্থীদের জামানত বাজেয়াপ্ত করে সরকারি কোষাগারে জমা দেওয়া হয়েছে।’

জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তার ঘোষিত ফলে দেখা যায়, নড়াইল-১আসনে মোট ভোটার ২ লাখ ৭৫ হাজার ৪০৩ জন। এর মধ্যে ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন ১ লাখ ৪৬ হাজার ৩২৬ জন। বৈধ ভোটের ১ লাখ ৪৩ হাজার ১৬৫টি। আওয়ামী লীগের প্রার্থী বিএম কবিরুল হক মুক্তি পেয়েছেন ১ লাখ ৩৪ হাজার ২০৫ ভোট। বাকি ছয় প্রার্থীর মধ্যে স্বতন্ত্র প্রার্থী চন্দনা হক পেয়েছেন ৮৮১ ভোট, বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির প্রার্থী নজরুল ইসলাম ২১৯৭টি, জাতীয় পার্টির মিল্টন মোল্যা ৩৭৫৪টি, জেপির শামীম আরা পারভীন ৫১৩টি, তৃণমূল বিএনপির শ্যামল চৌধুরী ৫৬৩টি এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী সিকদার শাহাদাত হোসেন ১০৩১টি ভোট পেয়েছেন।

নড়াইল-২ আসনে মোট ভোটার ৩ লাখ ৬৫ হাজার ৭২৯ জন। এর মধ্যে ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন ২ লাখ ৩ হাজার ২১১ জন। আওয়ামী লীগ মনোনীত
প্রার্থী মাশরাফি বিন মুর্তজা ১ লাখ ৮৯ হাজার ১০২ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। সাত প্রার্থীর মধ্যে ওয়ার্কার্স পার্টির সাবেক এমপি শেখ হাফিজুর রহমান ৪০৪১টি, জাতীয় পার্টির খন্দকার ফায়েকুজ্জামান ফিরোজ ১৯০৯টি, এনপিপির মনিরুল ইসলাম ৫৮০টি, গণফ্রন্টের লতিফুর রহমান ৫৮২টি, ইসলামী ঐক্যজোটের মাহবুবুর রহমান ১৮৫২টি, স্বতন্ত্র প্রার্থী নুর ইসলাম ১৩৬৩টি এবং সৈয়দ ফয়জুল আমীর লিটু ৩৫৬ ভোট পেয়েছেন।

জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন বলেন, জামানত ফেরত পেতে নির্বাচনে অংশ নেওয়া প্রার্থীকে মোট প্রদত্ত ভোটের আট ভাগের একটি ভোট বেশি পেতে হয়। নড়াইলের দুটি আসনে ১৩ প্রার্থীর কেউ ওই পরিমাণ ভোট পাননি। নির্বাচন কমিশনের বিধি অনুযায়ী তাদের জামানত বাজেপ্রাপ্ত হয়েছে।’

শরিফুল/মাসুদ

ঘটনাপ্রবাহ

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়