ঢাকা     রোববার   ১৪ জুলাই ২০২৪ ||  আষাঢ় ৩০ ১৪৩১

ক্রিকেটার পাইলটের মায়ের মৃত্যু

রাজশাহী প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৩:৩৬, ২৫ জুন ২০২৪  
ক্রিকেটার পাইলটের মায়ের মৃত্যু

বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক খালেদ মাসুদ পাইলটের মা নার্গিস আরা বেগম মারা গেছেন। 

মঙ্গলবার (২৫ জুন) বেলা ১১টার দিকে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) চিকিৎসাধীন অবস্থায়  তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। 

মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭২ বছর। তিনি দুই ছেলে, এক মেয়ে, নাতি-নাতনিসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তিনি নগরীর সাগরপাড়া এলাকার বাসিন্দা ছিলেন। 

নার্গিস আরা বেগম বার্ধক্যজনিত নানা অসুখে ভুগছিলেন।  

খালেদ মাসুদ পাইলট ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিয়ে মায়ের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

রামেক হাসপাতালের আইসিইউ ইনচার্জ ডা. আবু হেনা মোস্তফা কামাল জানান, নার্গিস আরা বেগমের উচ্চ রক্তচাপ ছিল। শরীরে লবণের সংকট ছিল। এছাড়া তিনি হৃদরোগ, কিডনি, ডায়াবেটিস ও থাইরয়েডের সমস্যায় ভুগছিলেন। এসব জটিলতা নিয়ে সোমবার তাকে রামেক হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করা হয়। পরদিন তিনি মারা গেলেন। মৃত্যুর পর পরিবারের সদস্যরা মরদেহ হাসপাতাল থেকে বাড়ি নিয়ে গেছেন বলেও জানান তিনি।

ফেসবুকে দেওয়া পোস্টে খালেদ মাসুদ পাইলট তার মায়ের জন্য দোয়া চেয়েছেন। আজ (মঙ্গলবার) বাদ এশা নগরীর টিকাপাড়া কবরস্থানে জানাজা শেষে মরদেহ দাফন করা হবে বলেও তিনি জানিয়েছেন।

পাইলটের মায়ের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন। তিনি মরহুমার বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করেছেন। পাশাপাশি তিনি শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন।

এর আগে ২০১৭ সালের ২৭ আগস্ট খালেদ মাসুদ পাইলটের বাবা সাবেক ফুটবলার শামসুল আলম মোল্লা (৭৮) বাড়ির পাশের একটি পুকুরে গোসল করতে নেমে পানিতে ডুবে মারা যান।

কেয়া/টিপু

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ