ঢাকা     শনিবার   ১৩ এপ্রিল ২০২৪ ||  চৈত্র ৩০ ১৪৩০

ইজরায়েলি গণহত্যার প্রতিবাদে রাবিতে অনশন

রাবি সংবাদদাতা || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৭:৪৮, ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪  
ইজরায়েলি গণহত্যার প্রতিবাদে রাবিতে অনশন

গাজায় ইজরায়েলি আগ্রাসন ও গণহত্যার প্রতিবাদ এবং ক্ষুধার্ত মানুষের প্রতি সহমর্মিতা জানিয়ে অনশনে করেছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় (রাবি) ফ্রেন্ডস অব প্যালেস্টাইন। বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ শামসুজ্জোহা চত্বরে সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত এ প্রতিকী অনশন করা হয়।

অনশনে অংশগ্রহণকারী শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা ফিলিস্তিনের গাজায় ইজরায়েলি আগ্রাসন বন্ধ, জরুরী খাদ্য ও চিকিৎসা সহায়তা প্রদানসহ সারা বিশ্বের মানবতাবাদী বিবেককে জাগ্রত হওয়ার আহ্বান জানান।

অনশনকারী বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের শিক্ষার্থী মনিমুল ইসলাম বলেন, ফিলিস্তিনের উপর যে আক্রমণ চলছে তা গণহত্যা। জায়োনিজম একটা উগ্র জাতীয়তাবাদ। জায়োনিজমের নামে ফিলিস্তিনের অনেক নিরীহ লোককে হত্যা করা হচ্ছে। এ অন্যায়ের বিরুদ্ধে আমরা অনশন কর্মসূচি পালন করছি।

অনশনরত অন্য শিক্ষক অধ্যাপক ড. ইফতেখারুল আলম মাসুদ বলেন, ইসরায়েলের জায়োনবাদী অত্যাচারের বিরুদ্ধে সারা বিশ্বের মানবতাবাদী বিবেক এক। তবুও গণহত্যা থামছে না। সারা বছর তাদের আক্রমণ চলতে থাকে এবং রমজান আসলে আরও ভয়ংকর রুপ ধারণ করে। ইহুদীবাদের দখলদারীত্ব আর গণহত্যার প্রতিবাদে আজ আমাদের এ কর্মসূচি। আমরা ফিলিস্তিনের নিপীড়িত মানুষের পাশে আছি, এটা জানাতে চাই।

অনশনরত বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন খান বলেন, গাজায় ইসরায়েলী আগ্রাসনের ফলে সেখানে খাবারের সংকট এবং মানবিক বিপর্যয় চলছে। চিকিৎসার পর্যাপ্ত ব্যবস্থা নেই। সেখানকার মানুষেরা খাদ্য সঙ্কটে ভুগছে। গাজায় বাহির থেকে কোনো প্রকার সহায়তা করতে দিচ্ছে না। সভ্য সমাজে এ রকম পরিস্থিতিতে আমাদের হৃদয়ে রক্তক্ষরণ হচ্ছে। আমরা চাই অবিলম্বে এ গণহত্যা বন্ধ হোক।

অনশন কর্মসূচিতে উপস্থিত, ছিলেন বাংলাদেশ রেলওয়ে অবসরপ্রাপ্ত সহকারী প্রকৌশলী  সাইদুর রহমান চৌধুরীসহ রাবির বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থীরা।

/শাকিবুল/মেহেদী/

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়