ঢাকা     শুক্রবার   ১৪ জুন ২০২৪ ||  জ্যৈষ্ঠ ৩১ ১৪৩১

মিশার ভাষ্য, তিনবারই হেরেছেন নিপুণ!

প্রকাশিত: ১৯:২৪, ১৯ মে ২০২৪  
মিশার ভাষ্য, তিনবারই হেরেছেন নিপুণ!

সম্প্রতি অনুষ্ঠিত হয়েছে চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির ২০২৪-২৬ মেয়াদের নির্বাচন। নির্বাচনের ২৬ দিন পর ফলাফল বাতিল চেয়ে নতুন নির্বাচন দাবি করে হাইকোর্টে রিট করেছেন পরাজিত সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী নিপুণ আক্তার। গণমাধ্যমে ডিপজল ও মিশাকে নিয়ে নেতিবাচক মন্তব্য করেন নিপুণ। বিষয়টি নিয়ে মুখ খুললেন শিল্পী সমিতির সদ্য নির্বাচিত সভাপতি মিশা সওদাগর।

মিশা সওদাগর বলেন, ‘নিপুণ হয়তো পরাজয় মেনে নিতে পারছে না। পেছন থেকে কেউ না কেউ নিপুণের কলকাঠি নাড়ছে। কারো কথায় এসব করতেছে। গতবারও তো সে জায়েদের কাছে ১৩ ভোটে হেরেছে। পরপর দুবার হারল। তার ধারণা থাকতে পারে, সে জিতবে। কিন্তু জেতেনি, এটাই বাস্তবতা। কাগজে-কলমেও লেখা, সে পরাজিত। একবার ইসি পদেও নির্বাচন করেছিল, সেখানেও হেরেছে। কিন্তু ব্যর্থতাকে মেনে না নেওয়া তো খেলার অংশ হতে পারে না— এটা মানতে হবে।’

নিপুণ চাইলেও শাবনূর হতে পারবেন না। তা উল্লেখ করে মিশা সওদাগর বলেন, ‘একটা কথা কি, নিপুণ তো কোনো দিন চাইলেও শাবনূর, মৌসুমী হবে না। এটা দর্শকেরা বানান। মিশা সওদাগরকে দর্শক বানিয়েছেন। আমিও কিন্তু শিল্পী সমিতির নির্বাচনে শুরুতে ইসি ছিলাম, এরপর কালচারাল সেক্রেটারি, তারপর সেক্রেটারি, এরপর ভাইস প্রেসিডেন্ট এখন মিলিয়ে তিনবারের প্রেসিডেন্ট। রাজনৈতিকভাবেও যদি উদাহরণ দিই, তৃণমূল থেকে উঠে আসা।’

মিশা সওদাগরকে সভাপতি পদে নিপুণের প্যানেলে চেয়েছিলেন। তা উল্লেখ করে মিশা বলেন, ‘বলতে চাই না তারপরও বলতে হচ্ছে, আমার কললিস্টে আছে, নিপুণ আমাকে একাধিকবার ফোন করেছে। লোক পাঠিয়েও কথা বলেছে— আমাকে তার প্যানেল থেকে সভাপতি করতে চেয়েছিল। শাকিব খানকেও চেয়েছিল। তার আগে পত্রপত্রিকায় যখন দেখছি, নিপুণ একে প্রেসিডেন্ট চায়, ওকে চায়, ডিপজল ভাইকে বলেছেন— তিনিও না করে দিয়েছেন। আর আমি করিনি। কারণ, ডিপজল ভাইকে কথা দিয়ে দিয়েছি। তবে নিপুণের যেন শুভবুদ্ধির উদয় হয়। আশা করব, সে আরো ধৈর্যশীল হবে। আমি তাকে দেখতে চাই একজন অভিনেত্রী হিসেবে। আমার জুনিয়র হিসেবে। সহকর্মী ও সহযোদ্ধা হিসেবে। নির্বাচনের পরদিন সে যে মননশীল, ধীশক্তিসম্পন্ন উদ্ভাবনী চিন্তা নিয়ে আমাদের ফুলের মালা পরিয়েছিল, তাতে আমাদের মস্তিষ্ক অক্সিজেন পেয়েছিল— চাইব এটার ধারাবাহিকতা বজায় রাখুক, তাহলে অনেক ভালো কিছু হবে, চলচ্চিত্রের জন্যও তা ইতিবাচক বার্তা দেবে।’

গত ১৯ এপ্রিল বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির ২০২৪-২৬ মেয়াদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এতে জয়ী হয় মিশা-ডিপজল প্যানেল। তবে প্রায় মাস খানেক পর ফলাফল বাতিল চেয়ে নতুন নির্বাচন দাবি করে রিট করেছেন পরাজিত সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী নিপুণ আক্তার।

ঢাকা/রাহাত/শান্ত

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়