ঢাকা     শনিবার   ১৫ জুন ২০২৪ ||  আষাঢ় ১ ১৪৩১

স্বাস্থ্যসেবা এখন মানুষের দোরগোড়ায়: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২২:৫২, ২৯ মে ২০২৪  
স্বাস্থ্যসেবা এখন মানুষের দোরগোড়ায়: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

কমিউনিটি ক্লিনিকের মাধ্যমে স্বাস্থ্যসেবা এখন মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী ডা. সামন্ত লাল সেন। বুধবার (২৯ মে) সুইজারল্যান্ডের জেনেভায় বিশ্ব স্বাস্থ্য সম্মেলনে দ্বিতীয় অধিবেশনে মন্ত্রী পর্যায়ের প্যানেলে এ মন্তব্য করেন তিনি।

সম্মেলনের কাউন্ট্রি স্টেটমেন্ট অধিবেশনে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মস্তিষ্কনিসৃত ভিশনারি সিদ্ধান্ত কমিউনিটি ক্লিনিক। এই কমিউনিটি ক্লিনিক এখন দেশের প্রান্তিক মানুষের স্বাস্থ্যসেবায় আস্থার কেন্দ্রবিন্দুতে পরিনত হয়েছে। এর মাধ্যমেই নানারকম স্বাস্থ্যসেবা বাংলাদেশের প্রান্তিক মানুষের দোরগোড়ায় পৌছে দেওয়া হচ্ছে।

‘হেলথ ফর অল, অল ফর হেলথ’ এই প্রতিপাদ্যকে সামনে নিয়ে জেনেভায় মঙ্গলবার (২৮ মে) শুরু হয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সম্মেলন। এতে বাংলাদেশের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. সামন্ত লাল সেন। 

সম্মেলনে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার ভিশনারি ও বলিষ্ঠ নেতৃত্ব এবং সরকারের সুনির্দিষ্ট কর্মপরিকল্পনা বাস্তবায়নের মাধ্যমে ২০৪১ সালের মধ্যে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে তুলতে বদ্ধপরিকর। প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবার মান ও অবকাঠামোগত উন্নয়নসহ কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপনে কৌশলগত বিনিয়োগ বৃদ্ধির মাধ্যমে প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর দোড়গোঁড়ায় প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দিতে সরকার নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

তিনি বলেন, ইপিআই প্রোগ্রামের মাধ্যমে ১০টি রোগের বিরুদ্ধে টিকা প্রদান এবং গর্ভকালীন ও প্রসব পরবর্তী মাতৃস্বাস্থ্য সেবা বাড়ানোর ফলে বিগত ২০ বছরে মাতৃ ও শিশুমৃত্যু রোধে দক্ষিণ এশিয়া অঞ্চলে বাংলাদেশ উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি দেখিয়েছে। মানুষের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের কারণে গড় আয়ু ১৯৭১ সালের ৫০ থেকে বেড়ে বর্তমানে তা ৭৩ বছরে উন্নীত হয়েছে। ২০৩০ সালের মধ্যে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রার সূচকসমূহ অর্জনে বাংলাদেশ দৃঢ় প্রতিজ্ঞ।

এ সময় স্বাস্থ্যমন্ত্রী প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবার পরিধি ও মানোন্নয়নসহ স্বাস্থ্য সংক্রান্ত উন্নয়নে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক সহায়তা বৃদ্ধির ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন।

সম্মেলনের অধিবেশনে অংশ নেওয়া ছাড়াও স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. সামন্ত লাল সেন ইউনিসেফের ডেপুটি নির্বাহী পরিচালক ডা. টেড এবং বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার দক্ষিণ-পুর্ব এশিয়া অঞ্চলের আঞ্চলিক পরিচালক সায়মা ওয়াজেদের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে মিলিত হন।

এ সময় স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব মো. জাহাঙ্গীর আলম স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (পরিকল্পনা ও উন্নয়ন) অধ্যাপক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এমএ/এনএইচ

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়