ঢাকা     বুধবার   ২৫ মে ২০২২ ||  জ্যৈষ্ঠ ১১ ১৪২৯ ||  ২৩ শাওয়াল ১৪৪৩

ঈদে সুস্থ থাকতে

দেহঘড়ি ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৩:২৫, ২ মে ২০২২   আপডেট: ১৩:৪২, ২ মে ২০২২
ঈদে সুস্থ থাকতে

ঈদ মানেই আনন্দ। ঈদ মানেই ঘোরাঘুরি। সবারই নানা আয়োজন থাকে এই দিনটি ঘিরে। খাওয়া দাওয়ার আয়োজন, ঘোরাঘুরির আয়োজন।

স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের মতে, এসব কিছুর মাঝে খেয়াল রাখতে হবে স্বাস্থ্যের ব্যাপারটা যেন অগ্রাধিকার পায়। কারণ শরীর যদি ভালো না থাকে তাহলে ঈদের দিনটা সুন্দরভাবে উপযাপন করবেন কীভাবে। শরীর ভালো থাকলেই তো ঈদ উপভোগ করা যাবে আনন্দের সঙ্গে। সুতরাং খেয়াল রাখুন কিছু বিষয়।

ঈদের দিনে প্রায় সবার বাড়িতেই মিষ্টি জাতীয় খাবার, টক জাতীয় খাবার এবং ঝাল জাতীয় খাবার থাকে। আমরা যখন কোনো বাড়িতে বেড়াতে যাই তখন সেই বাড়ির লোকজন অতি আগ্রহ নিয়ে তাদের খাবার পরিবেশন করেন আমাদের সামনে।

কিন্তু ভুলে যাচ্ছেন না তো, এই সবগুলো খাবার একসঙ্গে খেলে আপনার পাকস্থলী আপনার ওপর অভিমান করতে পারে। সে হয়তো আপনার শরীরের সঙ্গে বিট্রেও করতে পারে। তাই এই ব্যাপারে আপনার একটু সতর্ক থাকা দরকার।

সকালে নিজের বাড়িতে আমরা আমাদের পছন্দের খাবারগুলো খেয়ে থাকি। এতেই আমাদের পাকস্থলী প্রায় পরিপূর্ণ হয়ে যায়। তারপর যখন কারো বাড়িতে যাই তখন আবার খেতে থাকি। ঈদের দিন কারো বাড়িতে গেলে, আর কেউ খাবার দিলে তা ফিরিয়ে দেওয়া যায় না একেবারে। তাই খেতে থাকুন কিন্তু পরিমাণ বুঝে। আপনার শরীর যতখানি নিতে পারবে। সকালেই অনেক বেশি খেয়ে ফেললে আপনি সারাদিন ঘুরবেন কীভাবে। নিশ্চয় আপনি আপনার বিশেষ দিনটিকে মাটি করতে চাইবেন না।

তবে রোদ যদি বেশি থাকে তাহলে গরমে সারাদিন বাইরে না থাকা ভালো। বিকালের পর রোদটা কমতে থাকে। আপনি চাইলে তখন বেড়াতে যেতে পারেন। এসময় মাস্ক পরে নিন। কোভিডসহ অন্যান্য শ্বাসতন্ত্রের রোগ থেকে সুরক্ষা মিলবে।

বাইরে ঘোরাঘুরি আর বিভিন্ন ধরনের খাবারের মাঝে যদি পানি ঠিকমতো না খান তবে শরীর অসুস্থ হয়ে পড়তে পারেন। আবহাওয়া গরম থাকলে, শরীরে পানির চাহিদাও বেশি থাকবে। ঈদে প্রায় সব বাড়িতেই তৈলাক্ত খাবার বেশি বানানো হয়ে থাকে, সেই জন্যেও পানি বেশি করে খাওয়া দরকার। প্রচুর পানি পান করুন। তবে খাবারের ফাঁকে ফাঁকে পানি খাবেন না, এতে হজম রসগুলো পাতলা হয়ে যায়। ফলে হজমে অসুবিধা হয়। খাওয়ার অন্তত এক ঘণ্টা পর পানি পান করুন।

/ফিরোজ/

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়