ঢাকা, সোমবার, ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১৯ নভেম্বর ২০১৮
Risingbd
সর্বশেষ:

পুরুষের গনোরিয়া রোগের ৪ উপসর্গ

এস এম গল্প ইকবাল : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৮-০৯-০৩ ৯:১৭:১৪ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-০৯-০৩ ৯:২৪:১২ পিএম
প্রতীকী ছবি

এস এম গল্প ইকবাল : গনোরিয়া হচ্ছে, একটি যৌনবাহিত রোগ। পুরুষের ক্ষেত্রে এই রোগে প্রস্রাবের সময় জ্বালাপোড়া ও মূত্রনালি দিয়ে পুজ বের হয়।

সাধারণত মূত্রনালি, পায়ুপথ, মুখগহ্বর এবং চোখ গনোরিয়ার জীবাণু দ্বারা সংক্রমিত হতে পারে। সময়মতো চিকিৎসা না করালে এই রোগ অণ্ডথলি, প্রোস্টেট, অণ্ডকোষ অথবা বিরলক্ষেত্রে আপনার রক্তে ছড়াতে পারে। এই ইনফেকশন অণ্ডকোষের অংশ এপিডিডাইমিসে ক্ষত সৃষ্টি করতে পারে এবং অনুর্বরতার সম্ভাবনা বৃদ্ধি করে। গনোরিয়া সারা শরীরে ছড়িয়ে পড়তে পারে, এমনকি এটি শরীরের অস্থিসন্ধিসমূহ ও হার্টের ভালবকেও আক্রান্ত করতে পারে।

এই রোগে আক্রান্ত হওয়ার হার ক্রমশ বাড়ছে। যুক্তরাষ্ট্রের সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশনের (সিডিসি) উপাত্তে দেখা যায়, ২০১৬ থেকে ২০১৭ সালে পুরুষদের মধ্যে গনোরিয়ার হার দ্বিগুণ হয়েছে।

গনোরিয়া অ্যান্টিবায়োটিক দিকে চিকিৎসাযোগ্য এবং চিকিৎসা চললে কিছুদিনের মধ্যেই এটি নির্মূল হয়ে যায়, বলেন এনওয়াইইউ ল্যানগোন হেলথের ইনফেকশাস ডিজিজেস অ্যান্ড ইমিউনোলজির ক্লিনিক্যাল অ্যাসিস্ট্যান্ট প্রফেসর গ্যাব্রিয়েল রেবিক। নিয়মিত পরীক্ষা এবং দ্রুত চিকিৎসা গনোরিয়া ছড়ানো থামাতে পারে, তাই কোনো সন্দেহজনক উপসর্গ দেখলে অবিলম্বে চিকিৎসকের কাছে যাওয়া গুরুত্বপূর্ণ।

কিছু গনোরিয়ার পুরুষদের কোনো উপসর্গ প্রকাশ পায় না। যদিও এ রোগের কিছু লক্ষণ রয়েছে- বিশেষ করে এই ইনফেকশন অগ্রসর হতে থাকলে কিছু লক্ষণ দেখা দিতে পারে, বলেন ডা. রেবিক। এ প্রতিবেদনে গনোরিয়ারর চারটি উপসর্গ দেওয়া হলো, যা অবশ্যই আপনার জানা থাকা উচিত।

* ডিসচার্জ
ডা. রেবিক বলেন, ‘আমার জানামতে এই ইনফেকশনের সর্বাধিক কমন লক্ষণ হচ্ছে ডিসচার্জ।’ ডিসচার্জ পাতলা হতে পারে অথবা ঘন হতে পারে, এটি পুরুষভেদে নির্ভর করে। সিডিসি অনুসারে, কোনো পুরুষ ইনফেক্টেড হওয়ার দুই সপ্তাহের মধ্যে তার ডিসচার্জের অভিজ্ঞতা হবে। ডা. রেবিক বলেন, ‘ডিসচার্জের বর্ণ কিংবা পরিমাণ যাই হোক না কেন কিংবা ডিসচার্জ প্রতিনিয়ত হোক বা অনিয়মিত হোক, কোনো ডিসচার্জই স্বাভাবিক নয়। যেকোনো ধরনের ডিসচার্জ হলে আপনার চিকিৎসকের শরণাপন্ন হওয়া উচিত।’

* নিতম্বে চুলকানি
মায়ো ক্লিনিক অনুসারে, গনোরিয়া মলদ্বারকেও আক্রমণ করতে পারে, যার ফলে মলদ্বারীয় চুলকানি ও ডিসচার্জ বা রক্তপাত হতে পারে। ডা. রেবিক বলেন, কিছু লোকের ডায়রিয়া হতে পারে এবং প্রাকৃতিক কর্ম সারার সময় ব্যথা অনুভব হতে পারে।

* গলা ব্যথা
ডা. রেবিক বলেন, ‘এটি জেনে রাখা গুরুত্বপূর্ণ যে, ওরাল সেক্স থেকেও গনোরিয়া হতে পারে। তিনি বলেন, ‘গলায় গনোরিয়া ডেভেলপ হওয়া অনেক লোকের উপসর্গ দেখা দেয় না।’ মায়ো ক্লিনিকের মতে, কারো কারো গলাব্যথা হতে পারে এবং লসিকাগ্রন্থি ফুলে যেতে পারে।

* ব্যথা অথবা ফোলা
ডা. রেবিক বলেন, ‘কিছু লোক গনোরিয়ার সংস্পর্শে আসার পর প্রাথমিক পর্যায়ে উপসর্গ প্রকাশ নাও পেতে পারে।’ মায়ো ক্লিনিকের মতে, গনোরিয়া ইনফেকশন পার্শ্ববর্তী স্থানে, যেমন- অণ্ডথলি ও অণ্ডকোষ, ছড়ানো শুরু করলে এপিডিডাইমিসে প্রদাহ হতে পারে, যার সঙ্গে থাকতে পারে কুঁচকি ব্যথা।

তথ্যসূত্র : ম্যান’স হেলথ

পড়ুন : পুরুষের মারাত্মক একটি ক্যানসারের ৮ লক্ষণ

* পুরুষ হরমোন সম্পর্কে ৯টি প্রশ্নের উত্তর

* পুরুষের ইউরিনারি ইনকনটিনেন্স সমস্যা

* পুরুষের এনলারজড প্রস্টেটের ৭ লক্ষণ


* পুরুষের স্তন ক্যানসারের ৪ উপসর্গ



রাইজিংবিডি/ঢাকা/৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮/ফিরোজ

Walton Laptop
 
     
Marcel
Walton AC