Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     মঙ্গলবার   ২৭ জুলাই ২০২১ ||  শ্রাবণ ১২ ১৪২৮ ||  ১৪ জিলহজ ১৪৪২

বরিশালে পুলিশের নির্যাতনে যুবকের মৃত্যুর অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১২:৩০, ৩ জানুয়ারি ২০২১   আপডেট: ১২:৪৩, ৩ জানুয়ারি ২০২১
বরিশালে পুলিশের নির্যাতনে যুবকের মৃত্যুর অভিযোগ

বরিশালে নির্যাতনে পুলিশ হেফাজতে থাকা অবস্থায় নির্যাতনের কারণে মো. রেজাউল করিম রেজা (৩০) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

শনিবার (২ জানুয়ারি) গভীর রাতে রেজার শরীর থেকে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে বরিশাল শেরে বাংলা মেডিক‌্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

রোববার (২ জানুয়ারি) সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বরিশাল কোতোয়ালি মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. নুরুল ইসলাম।

মৃত মো. রেজাউল করিম রেজা বরিশাল নগরীর ২৪ নম্বর সাগরদী এলাকার আ. হামিদ খান সড়কের বাসিন্দা ও মো. ইউনুস মিয়ার ছেলে। তিনি সদ্য এলএলবি পাশ করে বরিশালের আদালতে প্রশিক্ষণ নিচ্ছিলেন।

মৃত রেজাউল কমির রেজার বাবা মো. ইউনুস মিয়া জানান, গত ৩১ ডিসেম্বর বরিশাল ডিবি পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মহিউদ্দিন তার ছেলেকে থানায় ধরে নিয়ে যায়। এরপর রেজাকে ডিবি কার্যলয়ে নিয়ে নির্মম নির্যাতন চালায়। পরে আর তার ছেলের খোঁজ পাওয়া যায়নি। শুক্রবার রাতে (১ জানুয়ারি) হাসপাতাল থেকে ফোন করে বলা হয় তার ছেলে প্রিজন সেলে ভর্তি আছেন। তার শরীর থেকে অতিরিক্ত রক্ত বের হচ্ছে। চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী তাকে দুই ব্যাগ রক্তও দেওয়া হয়। কিন্তু এরপর রেজা মারা যায়। এসআই মহিউদ্দিনের নির্যাতনের কারণে তার ছেলে মারা গেছে বলে তিনি দাবি করেন।

রেজার ফুপাতো ভাই ও স্থানীয় বাসিন্দা মো. মাহফুজ হোসেন জানান, এসআই মহিউদ্দিনের বাড়ি একই এলাকায়। তিনি দীর্ঘদিন ধরে এলাকায় পুলিশের ক্ষমতা দেখিয়ে যাকে-তাকে মারধর করতেন। ৩১ ডিসেম্বর নিরহ ও ভদ্র যুবক রেজাকে ধরে নিয়ে যান। এরপর তার কাছে সিরিঞ্জ ও প্যাথেডিন পেয়েছে দাবি করে ডিবি কার্যলয়ে নিয়ে নির্মম নির্যাতন চালায়। অতিরিক্ত নির্যাতনে তার মৃত‌্যু হয়েছে।

এদিকে, এই সংবাদের বিষয়ে কথা বলার জন‌্য এসআই মহিউদ্দিনকে বারবার ফোন করলেও তিনি ফোন ধরেননি, কেটে দিয়েছেন।

অপরদিকে, এ ঘটনার প্রতিবাদে ২৪ নম্বর ওয়ার্ডের স্থানীয়রা বিক্ষোভ করেছেন। তারা বিষয়টি সুষ্ঠ তদন্তের দাবি জানিয়েছেন।

বরিশাল কোতোয়ালি মডেল থানা পুলিশের ওসি মো. নুরুল ইসলাম জানান, সুরাতহাল শেষে লাশটি ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। তবে ঘটনা যাই ঘটুক না কেন, বিষয়টি সুষ্ঠ তদন্ত করা হবে। এ নিয়ে কোনো বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করা যাবে না।

স্বপন/বুলাকী

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়