ঢাকা     শনিবার   ২১ মে ২০২২ ||  জ্যৈষ্ঠ ৭ ১৪২৯ ||  ১৯ শাওয়াল ১৪৪৩

টাঙ্গাইলে স্বামী হত্যায় স্ত্রীসহ ৩ জনের দোষ স্বীকার 

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২২:৪৩, ৮ জানুয়ারি ২০২২  
টাঙ্গাইলে স্বামী হত্যায় স্ত্রীসহ ৩ জনের দোষ স্বীকার 

ডিবি পুলিশের সঙ্গে গ্রেপ্তারকৃত তিন আসামি

টাঙ্গাইলে স্বামী হত্যার দায় স্বীকার করে তার স্ত্রী, স্ত্রীর প্রেমিকসহ তিনজন আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন। শনিবার (৮ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় টাঙ্গাইল সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শামসুল আলমের আদালতে তারা জবানবন্দি দেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পুলিশের আদালত পরিদর্শক তানভীর হাসান। 

শুক্রবার (৭ জানুয়ারি) জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি উত্তর) আসামিদের গ্রেপ্তার করে। গত (২৫ ডিসেম্বর) ঢাকা-টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কের পাশে কালিহাতী উপজেলার সল্লা চরপাড়া এলাকার কলাবাগান থেকে ইমাম হোসেন নামে যুবকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, নিহত ইমাম হোসেনের স্ত্রী খাদিজা আক্তার (২১), তিনি উপজেলার দেউপুর গ্রামের জহিরুদ্দিনের মেয়ে; পরকীয়া প্রেমিক ভূঞাপুর উপজেলার সিরাজকান্দি গ্রামের হাবিবুর রহমানের ছেলে সবুর খান বাবু (২০) ও তাদের ভাড়াটিয়া পাবনার ভেড়ামারা উপজেলার মহনগঞ্জ গ্রামের জালাল মিয়ার ছেলে জনি শেখ (২৫)।

ডিবি (উত্তর) পুলিশের এসআই জাহাঙ্গীর আলম জানান, বঙ্গবন্ধুসেতু পূর্ব থানায় নিহতের বাবা বাদী হয়ে মামলা করার পর তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করে পুলিশ জানতে পারে, পরকীয়ার কারণে খাদিজার পরামর্শে ইমান হোসেনকে হত্যা করে মরদেহ ফেলে রাখা হয়। শুক্রবার (৭ জানুয়ারি) রাতে আসামিদের গ্রেপ্তার করা হয়। শনিবার (৮ জানুয়ারি) দুপুরে তাদের আদালতে পাঠানো হয়। সন্ধ্যায় তারা হত্যার বিষয়টি স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দি দেন।

গত ২৫ ডিসেম্বর কলা বাগানে ইমাম হোসেনে মরদেহ দেখতে পায় স্থানীয়রা। মরদেহের শরীরে আঘাতার চিহ্ন ছিল। পরে মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ ময়নাতদন্তের জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। পরে নিহতের বাবা ইসমাইল হোসেন বাদী হয়ে ২৬ ডিসেম্বর অজ্ঞাতদের আসামি করে মামলা দায়ের করে।
 

কাওছার/বকুল 

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়