ঢাকা     বুধবার   ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ||  ফাল্গুন ১৫ ১৪৩০

আবাসিক হল থেকে রাবি শিক্ষার্থীর মরদেহ উদ্ধার

রাবি সংবাদদাতা || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৬:৪৫, ১০ ডিসেম্বর ২০২৩   আপডেট: ১৯:৩৬, ১০ ডিসেম্বর ২০২৩
আবাসিক হল থেকে রাবি শিক্ষার্থীর মরদেহ উদ্ধার

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) শামসুজ্জোহা হল থেকে এক শিক্ষার্থীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। রোববার (১০ ডিসেম্বর) বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে হলের ১৮৪ নম্বর কক্ষ থেকে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। তবে মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে এখনো কিছু জানা যায়নি।

নিহত মো. ফুয়াদ আল ফতিব (২৩) বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজকর্ম বিভাগের মাস্টার্সে শিক্ষার্থী। তিনি গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম রাজিবপুর গ্রামের আমিনুল ইসলাম সাজুর ছেলে।

বিভাগের সহপাঠী ও হল সূত্রে জানা যায়, বিশ্ববিদ্যালয়ের শামসুজ্জোহা হলের ১৮৪ নম্বর কক্ষে থাকতে মো ফুয়াদ আল ফতিব। চাকরির পরীক্ষা দিয়ে গতকাল শনিবার (৯ ডিসেম্বর) দিবাগত রাতে তিনি গ্রামের বাড়ি থেকে রাত আনুমানিক ৩টায় কক্ষে আসেন। এরপর আজ রোববার বিকেল ৩টা পর্যন্ত তাকে ফোনে না পেয়ে সহপাঠীরা তার কক্ষে এসে অচেতন অবস্থায় দেখতে পান। পরে হল প্রশাসনের সহায়তায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (রামেক) নিয়ে গেলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেন জোহা হল প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক একরামুল ইসলাম বলেন, শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে খবর পেয়ে আমরা দ্রুত ১৮৪ নম্বর কক্ষে যায়। সেখান থেকে তাকে উদ্ধার করে রামেকের জরুরি বিভাগে নিয়ে গেলে ৩-৪ ঘণ্টা আগেই সে মারা গেছে বলে জানান কর্তব্যরত চিকৎসক। তার মরদেহ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে রাখা আছে। রিপোর্ট দেখার পর বাকি পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

মৃত্যুর কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন, এখনও মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে কিছু জানা যায়নি। হল প্রশাসনের পক্ষ থেকে তার কক্ষ তালাবদ্ধ করে রাখা হয়েছে।

সমাজকর্ম বিভাগের অধ্যাপক ড. গোলাম কিবরিয়া ফেরদৌস বলেন, ‘আমার খুব প্রিয় ছাত্র ছিলো ফুয়াদ। সে খুব মেধাবী, পড়াশোনা শেষ করেই বিসিএস ক্যাডার হবে প্রত্যাশা ছিলো তার। তাকে হারিয়ে আমিসহ আমাদের বিভাগ নিস্তব্ধ হয়ে গেছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘সে (ফুয়াদ) সুইসাইড করার মতো ছেলে না। আমরা তার মৃত্যুর আসল কারণ জানতে চাই।’

এ বিষয়ে মতিহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রুহুল আমিন রাইজিংবিডিকে বলেন, ‘আমি রামেক থেকে থানায় আসলাম। নিহতের বড়ভাই একটি অভিযোগ দায়ের করেছে। মামলাটি প্রক্রিয়াধীন আছে।’

মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘মরদেহ ময়না তদন্তের জন্য রামেকের মর্গে রাখা হয়েছে। রিপোর্ট হাতে পাওয়ার আগে কিছু বলা যাচ্ছে না।’

/শাকিবুল/মেহেদী/

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়