ঢাকা     শনিবার   ২২ জুন ২০২৪ ||  আষাঢ় ৮ ১৪৩১

জাবিতে হাতেনাতে ৩ ছিনতাইকারী আটক

জাবি সংবাদদাতা || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৭:৩৯, ১১ জুন ২০২৪  
জাবিতে হাতেনাতে ৩ ছিনতাইকারী আটক

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) দিনে-দুপুরে ছিনতাইয়ের অভিযোগে তিনজনকে আটক করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১১ জুন) বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের মুক্তমঞ্চ থেকে মীর মশাররফ হোসেন হলগামী সড়কে ছিনতাইয়ের সময় তাদের আটক করে বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তা শাখা।

আটককৃতরা হলেন, ক্যাম্পাসের রিকশাচালক আরিফুল ইসলাম হৃদয় (১৭), বিশ্ববিদ্যালয়ের মওলানা ভাসানী হলের পরিচ্ছন্নতাকর্মীর ছেলে আদনান (১৪) ও ডেইরি ফার্ম উচ্চবিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণির ছাত্র তানভীর (১৩)।

ভুক্তভোগী ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার সকাল ১১টায় কেয়া ও সাদিক নামের স্কুল পড়ুয়া দুই শিক্ষার্থী বিশ্ববিদ্যালয়ে ঘুরতে আসেন। এ সময় মুক্তমঞ্চের পাশের সড়ক দিয়ে মীর মশাররফ হোসেন হলের দিকে যাওয়ার সময় তাদের পথরোধ করে দাঁড়ান রিকশাচালক আরিফুর ইসলাম হৃদয়। তাদের পরিচয় জিজ্ঞেস করে বহিরাগত নিশ্চিত হওয়ার পর সে তার আরেক সহযোগী আদনানকে ফোন করে আসতে বলেন এবং ভুক্তভোগীদের সঙ্গে বাকবিতণ্ডায় জড়ান।

এ সময় আদনান এসে ভুক্তভোগীদের কাছ থেকে টাকা ও মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয়। এসময় ভুক্তভোগীদের সমাধানের আশ্বাস দিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের বড় ভাই পরিচয়ে সেখানে উপস্থিত হন অষ্টম শ্রেণির ছাত্র তানভীর। এ সময় তারা ভুক্তভোগীদের বিশ্ববিদ্যালয়ের সুন্দরবন এলাকার দিকে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। ঘটনার এক পর্যায়ে সেখানে নিরাপত্তা শাখার কর্মকর্তারা উপস্থিত হয়ে ওই তিনজনকে ছিনতাইয়ের অভিযোগে হাতেনাতে আটক করে নিরাপত্তা অফিসে নিয়ে যান।

ভুক্তভোগী সাদিক বলেন, ‘আমরা দুজন বিশ্ববিদ্যালয়ে ঘুরতে এসেছিলাম। মুক্তমঞ্চের পাশে যাওয়ার পর আমাকে একজন ডেকে নিয়ে যায়। আমার কাছে পরিচয় জানতে চায়। কথা বলার এক পর্যায়ে আমার কাছ থেকে মোবাইল ও ৩০০ টাকা কেড়ে নেয়। নিরাপত্তা শাখার কর্মকর্তারা সেখানে উপস্থিত হলে তারা মোবাইল ফেলে দেয়।’

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান নিরাপত্তা কর্মকর্তা সুদীপ্ত শাহিন বলেন, দিনের বেলায় বিশ্ববিদ্যালয়ের অভ্যন্তরে এ ধরনের ঘটনা অনাকাঙ্ক্ষিত। বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তা শাখা ২৪ ঘণ্টা তাদের দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছে। ছিনতাইয়ের ঘটনার খবর পেয়ে আমাদের অফিসাররা সেখানে উপস্থিত হয় এবং তাদের আটক করে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা ছিনতাইয়ের কথা স্বীকার করেছে। আমরা আপাতত তাদেরকে পুলিশে সোপর্দ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। 

/আহসান/মেহেদী/

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়