Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     মঙ্গলবার   ১৯ অক্টোবর ২০২১ ||  কার্তিক ৩ ১৪২৮ ||  ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

ফেরার অপেক্ষায় শিক্ষার্থীরা, চলছে হল খোলার প্রস্তুতি

আবু বকর ইয়ামিন || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৩:২৩, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১   আপডেট: ১৩:৫৯, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১

দীর্ঘ দেড় বছর খুলেছে স্কুল-কলেজ। আগামী ২৭ সেপ্টেম্বরের পর থেকে খোলতে পারবে বিশ্ববিদ্যালয়ও। ইতোমধ্যে আগামী ২৬ সেপ্টেম্বর লাইব্রেরি ও ৫ অক্টোবর হল খোলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। হল ও লাইব্রেরি খোলতে ক্যাম্পাসজুড়ে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি।

সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) সরেজমিনে দেখা যায়, বিশ্ববিদ্যালয় খোলার সিদ্ধান্তের পর হলগুলোতে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি। চলছে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতার কাজ। হলের গেটে গেটে রয়েছে হাত ধোয়ার ব্যবস্থা। স্বাস্থ্য বিষয়ে সচেতনতা বাড়ানোর লক্ষ্যে প্রতিটি আবাসিক হল ও একাডেমিক ভবনের দৃশ্যমান জায়গায় স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণের নির্দেশিকা সম্বলিত ব্যানার ফেস্টুন টাঙানো হয়েছে।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলের এক কর্মকর্তা বলেন, হল খোলছে এটা খুবই আনন্দের খবর।  শিক্ষার্থীরা না থাকলে আমাদের নিজেদেরই হলে একা একা লাগে। সবাই আবার আসবে। দেখা হবে।এটা ভাবতেই ভালো লাগছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে চলছে হল খোলার ব্যাপক প্রস্তুতি (ছবি: রাইজিংবিডি)

জিয়াউর রহমান হলের কেয়ারটেকার শাহ আলম বলেন, হল খোলার ঘোষণার পূর্ব প্রস্তুতি হিসেবে আমাদের কার্যক্রম চলমান রয়েছে। সংশ্লিষ্ট দায়িত্বরতরা আগে থেকেই নিজেদের স্ব স্ব দায়িত্ব পালন করছেন। হলের সামনে শিক্ষার্থীদের জন্য হাত পরিষ্কার করার ব্যবস্থা করা হয়েছে। মাস্ক পরে যাতে সবাই হলে প্রবেশ করে সে ব্যপারেও সতর্ক করা আছে।

কেন্দ্রীয় লাইব্রেরি ও বিজ্ঞান লাইব্রেরিতেও নেওয়া হয়েছে সার্বিক সুরক্ষা ব্যবস্থা।  সবাই যাতে নিয়ম মেনে লাইব্রেরিতে প্রবেশ করে সে সংক্রান্ত নির্দেশনাও দেওয়া হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, শিক্ষার্থীরা ২৬ সেপ্টেম্বর থেকে সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগার, বিজ্ঞান গ্রন্থাগার ও বিভাগীয়/ইনস্টিটিউটের সেমিনার লাইব্রেরিগুলো ব্যবহার করতে পারবেন। সংশ্লিষ্ট আবাসিক শিক্ষার্থীরা ৫ অক্টোবর সকাল ৮টা থেকে হলে উঠতে পারবেন। শিক্ষার্থীদের সেবা প্রদানকারী কর্মকর্তা-কর্মচারীদেরও টিকা সনদ/প্রমাণপত্র সঙ্গে রাখতে হবে।

টিকা গ্রহণ সাপেক্ষে পর্যায়ক্রমে স্নাতক প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থীদের জন্য আবাসিক হল খুলে দেওয়া হবে। আবাসিক হলগুলোতে আগের মতো ঠাসাঠাসি করে বসবাস এবং কোনো ‘গণরুম’ রাখা যাবে না। স্বাস্থ্যবিধি মেনে শুধু নিয়মিত আবাসিক শিক্ষার্থীরা হলে অবস্থান করবেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের শতভাগ শিক্ষার্থী টিকা কার্যক্রমের আওতায় আসার পর সশরীরে শ্রেণি কার্যক্রমের তারিখ নির্ধারণ করা হবে।  বিশ্ববিদ্যালয়ের শহিদ বুদ্ধিজীবী ডা. মোহাম্মদ মোর্তজা মেডিক‌্যাল সেন্টারে টিকা কেন্দ্র স্থাপনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। যেসব শিক্ষার্থী এখনও টিকা নেওয়ার জন‌্য রেজিস্ট্রেশন করেননি, তাদের জাতীয় পরিচয়পত্র/জন্মনিবন্ধন সনদ দিয়ে আগামী ২৭ সেপ্টেম্বরের মধ্যে রেজিস্ট্রেশন করে টিকা নিতে বলা হয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে চলছে হল খোলার ব্যাপক প্রস্তুতি (ছবি: রাইজিংবিডি)

জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক গোলাম রাব্বানী বলেন, সবকিছু নিয়ম মেনেই হবে। ৫ অক্টোবর থেকে অনার্স চতুর্থ বর্ষ এবং মাস্টার্সের শিক্ষার্থীরা নিজ নিজ হলে উঠতে পারবেন।  উঠার সময় অবশ্যই প্রমাণপত্র দেখাতে হবে। 

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেন, হল ও লাইব্রেরি খোলার বিষয়ে সংশ্লিষ্টদের নির্দেশনা দেওয়া আছে।  স্বাস্থ্যবিধি মেনে সবকিছু মেনটেন করা হবে। আমরা আমাদের শিক্ষার্থীদের প্রতি আশাবাদী তাদের মাধ্যমে নিয়মের ব্যত্যয় ঘটবে না। আমাদের শিক্ষার্থীরা শৃঙ্খলাবদ্ধ। তারা গাইডলাইন অনুসরণ করেই হলে উঠবেন। আর সার্বিক বিষয় তদারকিতে সংশ্লিষ্ট প্রশাসনকে নির্দেশনা দেওয়া আছে।

ইয়ামিন/এসবি

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়