ঢাকা     শনিবার   ২০ জুলাই ২০২৪ ||  শ্রাবণ ৫ ১৪৩১

‘রাশিয়ার বিরুদ্ধে পাল্টা আক্রমণ শুরু করতে প্রস্তুত ইউক্রেন’

আন্তর্জাতিক ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২০:৪২, ২৭ মে ২০২৩  
‘রাশিয়ার বিরুদ্ধে পাল্টা আক্রমণ শুরু করতে প্রস্তুত ইউক্রেন’

রুশ বাহিনীর বিরুদ্ধে পাল্টা আক্রমণের প্রস্তুতি নিচ্ছে ইউক্রেন

রুশ বাহিনীর বিরুদ্ধে ইউক্রেন তাদের দীর্ঘ প্রতীক্ষিত পাল্টা অভিযান চালাতে প্রস্তুত বলে জানিয়েছেন ন্যাশনাল সিকিউরিটি অ্যান্ড ডিফেন্স কাউন্সিলের সেক্রেটারি ওলেক্সি ডানিলভ।

তিনি আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম বিবিসিকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বলেছেন, ‘ভ্লাদিমির পুতিনের দখলদার বাহিনীর কাছ থেকে ইউক্রেনের ভূমি পুনরুদ্ধার করতে এ অভিযান আগামীকাল, পরশু বা এক সপ্তাহের মধ্যেই শুরু হতে পারে।’ তবে অভিযান শুরুর সুনির্দিষ্ট তারিখ জানাতে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন তিনি।

ওলেক্সি ডানিলভ বলেছেন, ইউক্রেনের সরকারের এ ক্ষেত্রে কোনো ভুল করার সুযোগ নেই। কারণ, এটি এক ঐতিহাসিক সুযোগ। এই সুযোগ হাতছাড়া করা যাবে না।

ওলেক্সি ডানিলভ যখন সাক্ষাৎকার দিচ্ছিলেন, তার মাঝখানেই প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কির একটি ফোন মেসেজ আসে তার কাছে। প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি তাকে রাশিয়ার বিরুদ্ধে পাল্টা অভিযানের লক্ষ্যে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে তলব করেন।

সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, বাখমুট হতে রাশিয়ার ওয়াগনার ভাড়াটে সেনাদলকে প্রত্যাহার করা হচ্ছে বলে তারা নিশ্চিত হয়েছেন। ইউক্রেন যুদ্ধে এ যাবত সবচেয়ে তীব্র লড়াই হয়েছে বাখমুটে।

ওলেস্কি ডানিলভ বলেন, ‘এর মানে এই নয় যে, এই বাহিনী আমাদের সঙ্গে লড়াই বন্ধ করে দিচ্ছে। এরা অন্য তিনটি জায়গায় নতুন করে সংগঠিত হচ্ছে।’

তিনি জানান, বেলারুশে এখন রাশিয়ার পরমাণু অস্ত্র মোতায়েন শুরু করার খবরে তিনি বিচলিত নন। এটি তাদের কাছে নতুন খবর নয়। রুশ বাহিনীর বিরুদ্ধে ইউক্রেন পাল্টা অভিযান চালানোর পরিকল্পনা করছে অনেক মাস ধরে। কিন্তু, সৈন্যদের প্রশিক্ষণ এবং পশ্চিমা মিত্রদের কাছ থেকে অত্যাধুনিক অস্ত্র পাওয়ার জন্য তারা সময় নিচ্ছিল।

এই পাল্টা অভিযানের ওপর অনেক কিছু নির্ভর করছে। ইউক্রেন তাদের জনগণ এবং পশ্চিমা মিত্রদের কাছে প্রমাণ করতে চায় যে, তারা রাশিয়ার প্রতিরক্ষা লাইন ভেদ করতে সক্ষম এবং সামরিক অচলাবস্থা ভেঙে তাদের ভূমি পুনর্দখলের ক্ষমতা রাখে।

ডানিলভ বলেন, সামরিক অধিনায়করা যখন হিসেব করে দেখতে পাবেন যে, আমরা যুদ্ধের ওই সময়টায় সবচেয়ে ভালো সাফল্য পাবো, তখনই সশস্ত্র বাহিনী তাদের অভিযান চালাবে।

ইউক্রেনের সশস্ত্র বাহিনী আক্রমণের জন্য প্রস্তুত কিনা, জানতে চাইলে তিনি উত্তর দেন, ‘আমাদের দেশকে রক্ষায় আমরা যেকোনো সময় প্রস্তুত। এটা সময়ের প্রশ্ন নয়। আমাদের বুঝতে হবে যে, আমাদের দেশকে ঈশ্বর যে ঐতিহাসিক সুযোগ দিয়েছেন, আমরা যেন একটি সত্যিকারের স্বাধীন ইউরোপীয় দেশ হতে পারি, সেই সুযোগ আমরা হারাতে পারি না।’

তিনি বলেন, ‘আমরা যদি এই অভিযানের দিন-তারিখ জানিয়ে দেই, সেটা আজব ব্যাপার হবে। এটা তো হতে পারে না। আমাদের দেশের জন্য আমাদের সামনে এখন একটা বড় দায়িত্ব আছে। আমরা যেটা বুঝি, তা হলো, এখানে ভুল করার কোনো অধিকার আমাদের নেই।’

 

তথ্যসূত্র: বিবিসি

ঢাকা/রফিক

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়