ঢাকা     রোববার   ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ||  ফাল্গুন ১২ ১৪৩০

গাজায় পুরুষদের গণগ্রেপ্তার করছে ইসরায়েলি বাহিনী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৬:২১, ৮ ডিসেম্বর ২০২৩   আপডেট: ১৬:৪৪, ৮ ডিসেম্বর ২০২৩
গাজায় পুরুষদের গণগ্রেপ্তার করছে ইসরায়েলি বাহিনী

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া বেশ কয়েকটি ছবিতে দেখা গেছে, ইসরায়েলি সামরিক বাহিনী গাজায় পুরুষদের গণগ্রেপ্তার করেছে। বন্দিদের অন্তর্বাস খুলে ও চোখ বেঁধে রাস্তায় হাঁটু গেড়ে বসিয়ে রাখা হয়েছে। পরে তাদেরকে একটি সামরিক গাড়িতে উঠিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়।

গাজার পুরুষদের কবে ও কেন গ্রেপ্তার করা হয়েছিল সেই বিষয়টি অস্পষ্ট। তবে কয়েকজন বন্দির পরিচয় তাদের সহকর্মী বা পরিবারের সদস্যরা নিশ্চিত করেছে।

সিএনএন বন্দিদের মধ্যে এক জনের আত্মীয়ের সঙ্গে কথা বলেছে। বন্দিদের মধ্যে এক জনের নিয়োগকর্তা, জানিয়েছেন, অন্তত কিছু পুরুষ বেসামরিক নাগরিক, জঙ্গি গোষ্ঠীর সঙ্গে তাদের কোনো সম্পর্ক নেই।

ইউরো-মেডিটারিয়ান হিউম্যান রাইটস মনিটর একটি আটকের একটি চিত্র পোস্ট করেছে এবং বৃহস্পতিবার তার ওয়েবসাইটে একটি বিবৃতিতে বলেছে, ‘ইসরায়েলি সেনাবাহিনী কয়েক ডজন ফিলিস্তিনি বেসামরিক নাগরিককে আটক করেছে এবং ভয়াবহ নির্যাতন করেছে।’

এতে আরও বলা হয়েছে, ‘ইউরো-মেড মনিটর খবর পেয়েছে যে, ইসরায়েলি বাহিনী চিকিৎসক, শিক্ষাবিদ, সাংবাদিক ও বয়স্ক পুরুষদেরসহ বাস্তুচ্যুত লোকদের নির্বিচারে গ্রেপ্তার করছে।’

ইসরায়েলি সেনাবাহিনী এ ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে।

তবে ইসরায়েলি সংবাদমাধ্যম ছবিগুলোকে হামাস সদস্যদের আত্মসমর্পণ হিসাবে চিত্রিত করেছে।

বৃহস্পতিবার একটি সংবাদ সম্মেলনে ইসরায়েলি সামরিক বাহিনী আইডিএফের মুখপাত্র রিয়ার অ্যাডমিরাল ড্যানিয়েল হাগারিকে একজন সাংবাদিক এই ছবিগুলো সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করলে তিনি বলেন, ‘আমরা অনেক বন্দী, হামাস সন্ত্রাসীদের ছবি দেখেছি, যাদেরকে আইডিএফ স্থল অভিযানের সময় গ্রেপ্তার করেছিল।’

তিনি বলেন, ‘আমরা তদন্ত করে দেখছি কার সাথে হামাসের সম্পর্ক আছে, আর কার নেই। আমরা তাদের সবাইকে গ্রেপ্তার করেছি এবং জিজ্ঞাসাবাদ করেছি। আমাদের কাজ শেষ না হওয়া পর্যন্ত আমরা সেই ঘাঁটিগুলোর প্রতিটি ভেঙে ফেলতে থাকব।’

ঢাকা/শাহেদ

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়