ঢাকা     মঙ্গলবার   ২৯ নভেম্বর ২০২২ ||  অগ্রহায়ণ ১৫ ১৪২৯ ||  ০৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪১৪

পাকিস্তানকে মাটিতে নামালো থাইল্যান্ড

ক্রীড়া ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১২:২৪, ৬ অক্টোবর ২০২২   আপডেট: ১৩:২৪, ৬ অক্টোবর ২০২২
পাকিস্তানকে মাটিতে নামালো থাইল্যান্ড

টানা দুটি ম্যাচে দাপট দেখিয়ে জয় পাওয়া পাকিস্তানকে থামালো থাইল্যান্ড। বৃহস্পতিবার সিলেট আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে নারী এশিয়া কাপের তৃতীয় ম্যাচে ঐতিহাসিক জয় পেলো তারা ৪ উইকেটে।

সিদ্রা আমিনের হাফ সেঞ্চুরিতে আগে ব্যাটিংয়ে নেমে ৫ উইকেটে ১১৬ রান করে পাকিস্তান। জবাবে ওপেনার নাথাকান চান্থাম হাফ সেঞ্চুরি করেন। তার ম্যাচসেরা পারফরম্যান্সে ৫১ বলে ৬১ রানের ইনিংসে ভর করে ১ বল বাকি থাকতে জেতে থাইল্যান্ড। ১৯.৫ ওভারে ৬ উইকেটে ১১৭ রান করে তারা।

ম্যাচ শেষে থাই অধিনায়ক নারুয়েমল চাইওয়াই বলেছেন, ‘খুবই শিহরিত। পাকিস্তান শক্তিশালী দল। আমরা প্রত্যেক দলকে হারাতে চাই। কিন্তু এই মুহূর্তে আমরা আমাদের ফিল্ডিং ও ব্যাটিং উপভোগ করছি। আমি চাই আমার দল মজা করুক এবং জয় আপনাআপনি চলে আসবে। শেষ দুটি ম্যাচে আমরা সঠিক লেন্থ-লাইনে বল করতে পারিনি। আজ বোলাররা ভালো করেছে।’ 

চান্থাম ম্যাচ শেষ করে আসতে পারেননি। ১৯তম ওভারের চতুর্থ বলে ছক্কা মারতে চেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু ডিপ মিড উইকেটে সিদ্রার ক্যাচ হন। আগের ওভারে ছক্কা খাওয়া নিদা দার তাকে আউট করে যেন দলে স্বস্তি ফেরান। 

তখনও ৮ বলে দরকার ছিল ১২ রান। নিদা বাকি দুই বলে আর দুটি রান দেন। শেষ ওভারে থাইদের লাগতো ১০ রান। ডায়ানা বেগ শুরুতেই দেন ওয়াইড। পরের বলে নাত্তায়া বুচাথাম নেন এক রান। নতুন ব্যাটসম্যান রোচেনান কানোহ তৃতীয় বলে চার মেরে থাইল্যান্ডকে ম্যাচে ফেরান। পরের দুই বলে ২ ও ১ রান নিয়ে স্কোরে সমতা ফেরান। পঞ্চম বলে মিডউইকেট দিয়ে একটি রান নিয়ে ম্যাচ জেতান বুচাথাম।

৭৭ মিনিট ক্রিজে থেকে চান্থামই জয়ের ভিত গড়ে দেন। অন্যদিকের ব্যাটসম্যানরা শুধুই যাওয়া আসার মধ্যে ছিলেন। যদিও চান্থামের সঙ্গে নান্নাপাত কানচারোয়েঙ্কাইয়ের ৪০ রানের  উদ্বোধনী জুটি শক্ত ভিত গড়ে দিয়েছিল। নবম ওভারে জোড়া ধাক্কার পর নারুয়েমল চাইওয়াই হাল ধরেন চান্থামকে নিয়ে। ৪২ রানের শক্ত জুটিতে তিনি অবদান রাখেন দ্বিতীয় সেরা ১৭ রান করেন। 

পাকিস্তানের পক্ষে নিদা ও তুবা হাসান দুটি করে উইকেট নেন।

থাইল্যান্ড প্রথম ২ পয়েন্ট অর্জন করে সেমিফাইনালের দৌড়ে যোগ দিলো। তাদের বাকি দুটি ম্যাচ আমিরাত ও মালয়েশিয়ার বিপক্ষে। বাকি চার পয়েন্ট পেলে শেষ চারে ওঠা তাদের জন্য সহজই হবে।

ঢাকা/ফাহিম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়