ঢাকা     শুক্রবার   ২৪ মে ২০২৪ ||  জ্যৈষ্ঠ ১০ ১৪৩১

৬ ফিফটির ম্যাচে শেষ হাসি অগ্রণীর 

ক্রীড়া প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৯:৪৫, ২৫ মার্চ ২০২৩  
৬ ফিফটির ম্যাচে শেষ হাসি অগ্রণীর 

ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগে (ডিপিডিসিএল) অগ্রণী ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাব ও সিটি ক্লাবের মুখোমুখি লড়াইয়ে দুই দলের ৬ জন ব্যাটসম্যান ফিফটি করেছেন। দুই দলের সমান ৩ জন করে ব্যাটসম্যান ফিফটি করলেও শেষ হাসি হেসেছে অগ্রণী।

শনিবার বিকেএসপির ৪ নাম্বার মাঠে টস হেরে ব্যাটিং করতে নেমে ৮ উইকেটে ২৯১ রান করে অগ্রণী। রান তাড়া করতে নেমে নির্ধারিত ওভার শেষে ৯ উইকেটে ২৭৩ রানে থামে সিটি। অগ্রণী ১৮ রানের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে।

অগ্রণীর হয়ে তিনটি ফিফটি করেন আজমীর আহমেদ, মারশাল আইয়ুব ও আজিম নাজির কাজী। ৯২ বলে সর্বোচ্চ ৮৯ রান করেন আজমির। মাত্র ১১ রানের জন্য সেঞ্চুরি পাননি তিনি। তার ইনিংসটি সাজানো ছিল ১০টি চার ও ৫টি ছয়ের মারে। ফিফটি করেন ৫৭ বলে। তার হাতে ওঠে ম্যাচ সেরার পুরষ্কার।

এ ছাড়া ভারতীয় ব্যাটসম্যান আজিম ৭৭ বলে ৬৬ ও অধিনায়ক মার্শাল ৫৭ বলে ৬২ রান করেন। শেষ দিকে ১৮ বলে ২১ রান আসে আবু হায়দার রনির ব্যাট থেকে। সিটির হয়ে সর্বোচ্চ ৪টি উইকেট নেন রবিউল হক। ৩টি উইকেট শিকার করেন তৌফিক আহমেদ।

অগ্রণীর তিন ফিফটির জবাবে সিটিও তিন ফিফটি করে। কিছুটা ধীরগতির ব্যাটিং ও কোনো ব্যাটসম্যান বড় ইনিংস খেলতে না পারায় দলটি শেষ পর্যন্ত জয়ের বন্দরে পৌঁছাতে পারেনি।

সর্বোচ্চ ৫৯ রান করেন তৌফিক খান তুষার। তিনি ৫৬ বলে ৫টি চার ও ৪টি ছক্কায় এই রান করেন। শাহরিয়ার কমল ৬৮ বলে ৫১ ও রাফসান আল মাহমুদ ৭৩ বলে ৫৩ রান করেন। এ ছাড়া ৪৫ বলে ৪৬ রান করেন আসিফ আহমেদ রাতুল। অগ্রণীর হয়ে সর্বোচ্চ ৩টি উইকেট নেন মোহাম্মদ শরিফুল্লাহ।

৪ ম্যাচে ২ জয়ে টেবিলের ষষ্ঠ স্থানে আছে অগ্রণী। সিটি সমান ম্যাচ খেলে এখন পর্যন্ত জয়ের মুখ দেখেনি। 

ঢাকা/রিয়াদ

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়