ঢাকা     রোববার   ০৩ মার্চ ২০২৪ ||  ফাল্গুন ১৯ ১৪৩০

বিশ্বকাপ ফাইনাল: লড়াইটা হবে যাদের মধ্যে

আরিফুল হক বিজয় || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১১:৫৬, ১৯ নভেম্বর ২০২৩   আপডেট: ১৪:২০, ১৯ নভেম্বর ২০২৩
বিশ্বকাপ ফাইনাল: লড়াইটা হবে যাদের মধ্যে

মহারণের মহামঞ্চে আজ মুখোমুখি ভারত ও অস্ট্রেলিয়া। উপমহাদেশের মাটিতে লড়াইটা শুধু বাইশ জনের মাঝেই সীমাবদ্ধ থাকবে না। ম্যাচের পরতে পরতে দৃশ্যপট পাল্টে দিতে পারেন দুই দলের কয়েকজন পারফর্মার। দলীয় লড়াইয়ের ফাঁকে তাদের দ্বৈরথের দিকেও চোখ রাখতেই হবে। যারা পাল্টে দিতে পারেন ম্যাচের দৃশ্যপট। তেমন পাঁচটি দ্বৈরথের দিকে এবার দৃষ্টি ফেরানো যাক।

রোহিত বনাম স্টার্ক
চলতি আসরে ব্যাট হাতে দুর্দান্ত ফর্মে রয়েছেন ভারতের অধিনায়ক রোহিত শর্মা। পাওয়ারপ্লেতে প্রায় প্রতি ম্যাচেই রোহিতের আক্রমণাত্মক শুরু দলের মনোবল শক্ত করে তোলে। তাতে বড় সংগ্রহের কাজটা সহজ হয়ে যায়। আসরে ১০ ম্যাচে ৫৫০ রান নিয়ে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকের তালিকায় পাঁচে আছেন রোহিত। তার শুরুটা ভারতের জন্য প্রচুর সহায়ক হচ্ছে। আসরে প্রথম ১০ ওভারে (পাওয়ারপ্লে) রোহিতের রান ১৩৩। গড় ৮৮.৫০। 

ফাইনালে তার এই ভয়ঙ্কর রূপ থামাতে পারেন একমাত্র মিচেল স্টার্ক। রোহিতের সঙ্গে লড়াইটা হবে স্টার্কের। চলতি আসরে স্টার্ক পাওয়ারপ্লে’তে ওভারপ্রতি পাঁচ রানেরও কম করে দিয়েছেন। তুলে নিয়েছেন পাঁচ উইকেট। ফাইনালেও তার তার সামনে রোহিতের পরীক্ষাটা হবে অগ্নিপরীক্ষার মতো।

কোহলি বনাম হ্যাজেলউড
আসরে ভারতের ফাইনালে খেলার পেছনে অন্যতম বড় ভূমিকা রেখেছেন বিরাট কোহলি। ব্যাট হাতে রানের ফোয়ারা ছুটিয়ে রেকর্ডের পর রেকর্ড ভেঙেছেন।  ফাইনালে তার সঙ্গে লড়াইটা হতে পারে জশ হ্যাজেলউডের। লাইন এবং লেন্থের ধারাবাহিকতার ক্রমেই ভয়ঙ্কর হয়ে উঠছেন এই পেসার।

কোহলি হ্যাজেলউডের পুর্বের লড়াইয়ের দিকে তাকালে দেখা যায়, এ পেসারের বিরুদ্ধে রান করতে বেশ হিমশিম খেয়েছেন ‘রান মেশিন’ খ্যাত কোহলি। ডানহাতি এই পেসার ওয়ানডেতে কোহলিকে আট ইনিংসে পাঁচবার তাকে আউট করেছেন। কোহলি হ্যাজলউডের বিরুদ্ধে ৮৮ বল খেলে তুলতে পেরেছেন মাত্র ৫১ রান।

চেন্নাইয়েও লিগ পর্বের ম্যাচে হ্যাজলউডের বলে আউট হতে পারতেন কোহলি। শর্ট বল দিয়ে ভারতের সেরা ব্যাটারকে কাবু করে ফেলেছিলেন। তবে মিচেল মার্শ ক্যাচটা তালুতে রাখতে পারেননি। ফাইনালেও আরেকবার মুখোমুখি দুইজন। তাতে আরেকবার জমজমাট লড়াইয়ের অপেক্ষা।

আইয়ার- রাহুল বনাম জাম্পা
আসরে টুর্নামেন্টে অস্ট্রেলিয়ার সর্বোচ্চ উইকেট শিকারী অ্যাডাম জাম্পা। আহমেদাবাদের পিচে তার বিরুদ্ধে মাঝের ওভারগুলোয় ভালোই পরীক্ষা দিতে হবে ভারতের দুই ভরসা শ্রেয়াস আইয়ার ও লোকেশ রাহুলকে। কেননা, ফাইনালের ভেন্যুতে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচে ১০ ওভারে মাত্র ২১ রান খরচায় তিন উইকেট নিয়েছিলেন এই লেগস্পিনার।

ওয়ানডেতে মোট সাতবার জাম্পার মুখোমুখি হয়েছেন আইয়ার। তাতে সাত ইনিংসে দুবার ভারতীয় ব্যাটারকে আউট করেছেন তিনি। অন্যদিকে ১১ বার রাহুলের মুখোমুখি হয়ে চারবার পেয়েছেন তার উইকেট। তাতে ফাইনালেও রাহুল ও আইয়ারের সঙ্গে জাম্পার একটা লড়াই হয়ে যাবে সেটা বলার অপেক্ষা রাখে না।

ভারতীয় পেসত্রয়ী বনাম অস্ট্রেলিয়ান টপ অর্ডার
মহারণের মহামঞ্চে অস্ট্রেলিয়ার টপ অর্ডারকে মূল পরীক্ষাটা দিতে হবে ভারতের পেসত্রয়ীর সামনে। আসরে পাওয়ারপ্লেতে দ্রুততম রান তোলাতে দ্বিতীয় স্থানে আছে অস্ট্রেলিয়া। সে হিসেবে ভারতীয় পেসাররা কীভাবে ওয়ার্নার এবং ট্র্যাভিস হেডকে সামলাবে সেটাই হয়ে দাঁড়িয়েছে মুখ্য চালেঞ্জ।

এদিকে আসরে ভারত প্রথম ১০ ওভারে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ উইকেট ঝুলিতে পুরেছে। সেই সঙ্গে টুর্নামেন্টের সেরা পেস আক্রমণও তাদের। লড়াইয়ে ফিরলে দেখা যায়, ওয়ার্নার কখনোই ওয়ানডেতে জাসপ্রিত বুমরাহর বলে আউট হননি। তবে টুর্নামেন্টের শীর্ষ উইকেট শিকারী মোহাম্মদ শামির বলে ১০ ইনিংসে তিনবার আউট হয়েছেন এই বাঁহাতি।

ফাইনালেও মোহাম্মদ সিরাজ ও বুমরাহর সঙ্গে নতুন বলে শামিকে দেখা যাবে আক্রমণে। তাতে ওয়ার্নার ও হেডকে বেশ সতর্কই থাকতে হচ্ছে। এই তিনজনের বিরুদ্ধে ধৈর্য্যের একটা কঠিন পরীক্ষাই দিতে হবে অভিজ্ঞ ও নবীন দুই অজি তারকাকে।

জাদেজা-কুলদীপ বনাম অস্ট্রেলিয়ার মিডল অর্ডার
বিশ্বকাপের আগে চেন্নাইয়ে অস্ট্রেলিয়াকে স্রেফ খাবি খাইয়ে ছেড়েছিলেন কুলদীপ যাদব এবং রবীন্দ্র জাদেজা। সেই স্মৃতি অস্ট্রেলিয়ানদের মনে থাকার কথা। বিশেষ করে মিডল অর্ডারের। এই স্পিন জুটি অস্ট্রেলিয়ার মিডল অর্ডারকে বিপর্যস্ত করে তুলে নিয়েছিলেন ৫ উইকেট। ফাইনালেও অজিদের মধ্যভাগকে লড়তে হবে এই দুজনের বিরুদ্ধে।

আহমেদাবাদের পিচ এই টুর্নামেন্টে স্পিনারদের বেশ সহায়তা দিচ্ছে। এদিকে আসরে ব্যাটসম্যানরা জাদেজা ও কুলদীপের বিরুদ্ধে ওভারপ্রতি পাঁচের বেশি রান তুলতে পারেনি। যেটা কুলদীপ এবং জাদেজাকে আরও আত্মবিশ্বাসী করে তুলবে। মার্কাস স্টয়নিস ও গ্লেন ম্যাক্সওয়েলদের ভালো পরীক্ষার মধ্য দিয়েই যেতে হবে।

ঢাকা/বিজয়

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়