Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     বুধবার   ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||  আশ্বিন ৭ ১৪২৮ ||  ১৩ সফর ১৪৪৩

শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুট: ফেরিতে যান ও যাত্রী পারাপার চলছে

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৫:৩১, ২৩ জুলাই ২০২১  
শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুট: ফেরিতে যান ও যাত্রী পারাপার চলছে

দেশব্যাপী ১৪ দিনের কঠোর বিধিনিষেধ শুরুর প্রথমদিন বিধিনিষেধ উপেক্ষা করে শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটে যাত্রী ও যানবাহন পারাপার হচ্ছে।

শুক্রবার (২৩ জুলাই) সকাল থেকে শতশত যাত্রী ও যানবাহন পারাপার হতে দেখা যায় নৌরুটের ফেরিগুলোতে। পূর্বের মতো আজও যাত্রী ও যানবাহনের চাপ রয়েছে শিমুলিয়া ঘাটে।

এদিকে, নৌরুটে লঞ্চ বন্ধ থাকলেও লকডাউনে বাস্তবায়নের লক্ষে ঘাটের অভিমুখে ও ঢাকা-মাওয়া এক্সপ্রেসওয়েতে পুলিশের নজরদারি, চেকপোস্ট বসানো হয়েছে। চেকপোস্ট অতিক্রম করে ঢাকা-মাওয়া এক্সপ্রেসওয়ে হয়ে শতশত দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলগামী যাত্রীরা ঘাটে এসে উপস্থিত হচ্ছে। জরুরি ও বিধিনিষেধ আওতার বাইরে যাত্রী ও যানবাহন পারাপারের কথা থাকলেও অবাধে পারাপার হচ্ছে সকল যান ও জনসাধারণ। ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের একাধিক চেকপোস্ট থাকার পরও দক্ষিণাঞ্চল থেকে আসা যাত্রী ও যানবাহন রাজধানীর ঢাকায় যেতে দেখা গেছে।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন করপোরেশনের (বিআইডাব্লিউটিসি) শিমুলিয়া ঘাটের ব্যবস্থাপক (বাণিজ্য) মো. ফয়সাল আহমেদ জানান, নৌরুটে ১৭টির মধ্যে বর্তমানে ১২টি ফেরি চলাচল করছে। সরকার ঘোষিত বিধিনিষেধ আরোপের সময়ের আগে এবং পরে ঘাটে আসা যাত্রী যানবাহন পারাপার করা হচ্ছে। ঘাটে শতাধিক ব্য‌ক্তিগত ও পণ্যবাহী গাড়ি অপেক্ষায় রয়েছে।

এসব যানবাহন পারাপারের পর ফেরির সংখ্যা আরও কমিয়ে আনা হবে।

বিআইডব্লিউটিএ শিমুলিয়া লঞ্চঘাটের পরিদর্শক মো. সোলেমান জানান, বৃহস্পতিবার (২২ জুলাই) রাত ১০টা পর্যন্ত লঞ্চ চলাচলের পরে সব লঞ্চ বন্ধ করা হয়েছে। লকডাউনের নিয়ম অনুযায়ী আজ শুক্রবার এ নৌপথে আর কোন লঞ্চ চলেনি। লঞ্চঘাটে যাত্রীও নেই। ঘাটে যেসব যাত্রীরা আসছে তারা ফেরিতে করে পদ্মা পার হচ্ছে।

রতন/এমএম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ