ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ২৫ এপ্রিল ২০২৪ ||  বৈশাখ ১২ ১৪৩১

‘এক্সবিআরএল’ রিপোর্টিং প্লাটফর্ম চালুর উদ্যোগ বিএসইসির

নুরুজ্জামান তানিম || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২০:২৭, ৮ জানুয়ারি ২০২৩  
‘এক্সবিআরএল’ রিপোর্টিং প্লাটফর্ম চালুর উদ্যোগ বিএসইসির

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানিগুলোর বিভিন্ন প্রতিবেদন একই ছাদের নিচে পেতে এক্সটেনসিবল বিজনেস রিপোর্টিং ল্যাঙ্গুয়েজ (এক্সবিআরএল) প্ল্যাটফর্ম চালু করার উদ্যোগ নিয়েছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতসহ বিশ্বের ৭০টি দেশে এ প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করা হচ্ছে। এক্সবিআরএল বিশ্বে গ্রহণযোগ্যতা অর্জন করায় বিশ্বব্যাপী মূলধারার কর্পোরেট রিপোর্টিংয়ের ভবিষ্যৎ বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।

তথ্য মতে, এক্সবিআরএল হলো ব্যবসায়িক এবং আর্থিক তথ্যের ইলেকট্রনিক যোগাযোগের জন্য একটি ভাষা, যা কর্পোরেট ব্যবসা এবং সরকারি নিয়ন্ত্রকদের মধ্যে যোগাযোগের জন্য ব্যবহার হয়ে থাকে। এক্সবিআরএল একটি কেন্দ্রীয় তথ্য অবকাঠামো সিস্টেম, যা রিয়েল-টাইম ভিত্তিতে এবং ডিফারেনশিয়াল রেগুলেটরি প্রয়োজনীয়তা অনুযায়ী একাধিক নিয়ন্ত্রককে তথ্য দিয়ে সহায়তা করতে পারে। এ প্ল্যাটফর্ম বিশ্বব্যাপী মূলধারার কর্পোরেট রিপোর্টিংয়ের ভবিষ্যৎ বলে মনে করা হচ্ছে। এক্সবিআরএলের গ্রহণযোগ্যতা বৃদ্ধি পাওয়ায় বিশ্বের বিভিন্ন দেশে তা চালু করা হয়েছে।

তথ্য মতে, দেশে এক্সবিআরএল চালু করার বিষয়ে আলোচনার জন্য গত বছরের ২৯ ডিসেম্বর অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগ, বাংলাদেশের কম্পট্রোলার অ্যান্ড অডিটর জেনারেল, বাংলাদেশ ব্যাংক, জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর), ফাইন্যান্সিয়াল রিপোর্টিং কাউন্সিল (এফআরসি), দ্য ইনস্টিটিউট অফ চার্টার্ড অ্যাকাউন্ট্যান্টস অফ বাংলাদেশ (আইসিএবি), ইনস্টিটিউট অফ কস্ট অ্যান্ড ম্যানেজমেন্ট অ্যাকাউন্ট্যান্টস অফ বাংলাদেশ (আইসিএমএবি), ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) ও চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠক করেছে বিএসইসি। বৈঠকে বিষয়টি নিয়ে প্রাথমিক পর্যালোচনায় এ সংক্রান্ত একটি কমিটি গঠনের বিষয়ে নীতিগত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বিএসইসির চেয়ারম্যানের অনুমোদন সাপেক্ষে এ কমিটি গঠন করা হবে। দেশে কিভাবে এ প্ল্যাটফর্ম চালু করা যায় এবং কিভাবে তা পরিচালনা করা হরে সে বিষয়ে সুপারিশ করবে গঠিত কমিটি। এই এক্সবিআরএল প্লাটফর্ম সবার জন্য উন্মুক্ত রাখা হবে কি-না সে বিষয়েও পরামর্শ দিতে গঠিত কমিটি।

এদিকে, বিএসইসি বাংলাদেশে এক্সবিআরএল প্ল্যাটফর্ম প্রতিষ্ঠার লক্ষে বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক সংস্থার সাথে কাজ করছে। ইতোমধ্যে এ বিষয়ে আইআরআইএস বিজনেস সার্ভিসেস লিমিটেড বিএসইসির কাছে সম্পূর্ণ তথ্য জমা দিয়েছে। এ প্রস্তাবটি আরও ভালো করে শেষ করতে এর সাথে বিএসইসির কমিশনার অধ্যাপক ড. মিজানুর রহমান কাজ করছেন বলে জানা গেছে।

কমিশনের মনে করে, এক্সবিআরএল হবে অনলাইন রিপোর্টিং সাবমিশন প্ল্যাটফর্ম। এটা তৈরি হলে সকল তালিকাভুক্ত কোম্পানি তাদের আর্থিকসহ বিভিন্ন প্রতিবেদন‌‌ এবং রিপোর্ট অনলাইনে সাবমিট করতে পারবে। আর এ প্ল্যাটফর্ম থেকে যে কেউ প্রতিবেদন পড়তে ও ডাউনলোড করতে পারবেন।‌ এই প্ল্যাটফর্মে আরও বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধা থাকবে। যে কেউ এখান থেকে তথ্য নিয়ে পর্যালোচনা করতে পারবে।

এ বিষয়ে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বিএসইসির এক কর্মকর্তা বলেন, এক্সবিআরএল নিয়ে দেশের বিভিন্ন স্টেকহোল্ডারদের সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। বৈঠকে আলোচনায় বিভিন্ন বিষয় উঠে এসেছে। বিষয়টি নিয়ে কমিটি গঠন করা হতে পারে, যে এ প্ল্যাটফর্ম প্রতিষ্ঠার কাজকে এগিয়ে নেবে। প্লাটফর্ম থেকে প্রতিবেদন কীভাবে পাওয়া যাবে বা এর জন্য কী পরিমাণ ফি নির্ধারণ করা হবে সে বিষয়ে পরে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। বিশ্বের ৭০টি দেশে এ রিপোর্টিং প্ল্যাটফর্ম চালু রয়েছে।

ঢাকা/এনএইচ

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়