ঢাকা     সোমবার   ২২ এপ্রিল ২০২৪ ||  বৈশাখ ৯ ১৪৩১

৪৩ জেলায় শৈত্যপ্রবাহের বিস্তৃতি, কুয়াশায় আচ্ছন্ন ঢাকার আকাশ

নিউজ ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০৯:৩৯, ২৪ জানুয়ারি ২০২৪   আপডেট: ০৯:৪৯, ২৪ জানুয়ারি ২০২৪
৪৩ জেলায় শৈত্যপ্রবাহের বিস্তৃতি, কুয়াশায় আচ্ছন্ন ঢাকার আকাশ

ছবি: রাইজিংবিডি

বাড়ছে শৈত্যপ্রবাহের বিস্তৃতি। মৃদু থেকে মাঝারি শৈত্যপ্রবাহে কাঁপছে ৪৩ জেলা। আবহাওয়া অফিস বলছে, এমন পরিস্থিতি আরও দুই থেকে তিন দিন থাকতে পারে। খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগে আজ বুধবার (২৪ জানুয়ারি) বৃষ্টি হতে পারে।

এদিকে, আজ বুধবার (২৪ জানুয়ারি) ভোর থেকেই প্রচণ্ড কুয়াশায় ছেয়ে গেছে পুরো ঢাকা শহর। সকাল সাড়ে ৯টা পর্যন্ত সূর্যের দেখা পাওয়া যায়নি। রাজধানীতে চলাচলকারী গাড়িগুলোকে পথ দেখাচ্ছে হেডলাইট। তবে কুয়াশা থাকলেও ঢাকায় শীতের তীব্রতা অন্যদিনের তুলনায় কিছুটা কম অনুভূত হয়েছে।

গত মঙ্গলবার (২৩ জানুয়ারি) আগামী ৭২ ঘণ্টার আবহাওয়া পরিস্থিতি তুলে ধরে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছিলো আবহাওয়া অধিদপ্তর। জানা যায়, বুধবার (২৪ জানুয়ারি) সকাল ৯টা থেকে খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং ঢাকা বিভাগের দু-এক জায়গায় বৃষ্টি অথবা গুঁড়িগুঁড়ি বৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া দেশের অন্যত্র আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে। মধ্যরাত থেকে সকাল পর্যন্ত সারাদেশের কোথাও কোথাও মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশা পড়তে পারে। সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা ১ থেকে ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস বৃদ্ধি পেতে পারে এবং দিনের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে।

বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা থেকে ঢাকা, বরিশাল, খুলনা ও চট্টগ্রাম বিভাগের দু-এক জায়গায় বৃষ্টি অথবা গুঁড়িগুঁড়ি বৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া দেশের অন্যত্র আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে। মধ্যরাত থেকে সকাল পর্যন্ত দেশের নদী অববাহিকায় মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশা এবং অন্যত্র হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে। সারাদেশে রাত এবং দিনের তাপমাত্রা ১ থেকে ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস বৃদ্ধি পেতে পারে।

আবহাওয়াবিদ বজলুর রশিদ গণমাধ্যমকে বলেছেন, মৌলভীবাজার, বরিশাল, ভোলা, কুমিল্লা জেলাসহ ঢাকা, রংপুর, রাজশাহী ও খুলনা বিভাগের ওপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। সূর্যের দেখা মেলায় তাপমাত্রা বৃদ্ধির প্রবণতা থাকবে। তাতে কিছু কিছু জায়গায় শৈত্যপ্রবাহ প্রশমিত হতে পারে।

রাইজিংবিডির কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি বাদশা সৈকত জানিয়েছেন, উত্তরের হিমেল হাওয়া ও ঘন কুয়াশায় কুড়িগ্রামে জেঁকে বসেছে শীত। বুধবার (২৪ জানুয়ারি) জেলার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। কুড়িগ্রাম কৃষি আবহাওয়া অফিসের পর্যবেক্ষক সুবল চন্দ্র বলেন, কুড়িগ্রামে আজ সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। তাপমাত্রা আরও কয়েকদিন এমন থাকতে পারে।

রাইজিংবিডির ফেনী সংবাদদাতা সাহাব উদ্দিন জানিয়েছেন, মাঘের তীব্র শীতে দুর্ভোগ বেড়েছে স্বল্প আয়ের দিনমজুর ও শ্রমজীবী মানুষের। অব্যাহত শীতে বিপর্যস্ত ফেনীর সাধারণ মানুষ। সবচেয়ে বেশি দুর্ভোগে পড়ছেন রিকশাচালক, হকার, চুক্তিভিত্তিক কাজ করা শ্রমজীবীরা।ফেনী আবহাওয়া অফিসের উচ্চমান পর্যবেক্ষক মুজিবুর রহমান বলেন, চলতি সপ্তাহে জেলায় সর্বনিম্ন ১০ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। আরও কয়েকদিন শীতের তীব্রতা থাকতে পারে। এছাড়া, দু একদিনের মধ্যে চট্টগ্রাম বিভাগের কোথাও কোথাও বৃষ্টি হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।

রাইজিংবিডির পঞ্চগড় প্রতিনিধি আবু নাঈম জানিয়েছেন, বুধবার (২৪ জানুয়ারি) সকাল ৯টায় জেলার তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে দিনের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৮ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. রাসেল শাহ্ বলেন, জেলাে উপর দিয়ে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বইছে।আকাশের উপরিভাগে মেঘ ও ঘন কুয়াশা থাকায় সূর্যের তাপ ভূপৃষ্ঠে আসছে না। ফলে শীতের তীব্রতা বেশি অনুভূত হচ্ছে।

রাইজিংবিডির চুয়াডাঙ্গা সংবাদদাতা এম এ মামুন জানিয়েছেন, চুয়াডাঙ্গায় মৃদু শৈতপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। আজ সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার তবিবুর রহমান ও জেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আতাউর রহমান জানান,তাপমাত্রা কম থাকায় জেলার সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পাঠদান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। তবে দাপ্তরিক কার্যক্রম চালু আছে।

[ প্রতিবেদন তৈরিতে তথ্য দিয়েছেন সংশ্লিষ্ট জেলা প্রতিনিধি ও জেলা সংবাদদাতা ] 

/সাইফ/

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়