Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     সোমবার   ২৫ অক্টোবর ২০২১ ||  কার্তিক ৯ ১৪২৮ ||  ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র পরিদর্শনে পররাষ্ট্রমন্ত্রী

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২০:০৮, ১৬ নভেম্বর ২০২০   আপডেট: ২০:১৫, ১৬ নভেম্বর ২০২০
রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র পরিদর্শনে পররাষ্ট্রমন্ত্রী

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের নিয়ে রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র পরিদর্শন করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

সোমবার (১৬ নভেম্বর) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, গত শুক্র ও শনিবার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও সচিবসহ মন্ত্রণালয়ের মহাপরিচালকের সমমান ও তদূর্ধ্ব পদের কর্মকর্তাগণ রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র পরিদর্শন করেন। পরিদর্শনকালে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিমন্ত্রী ইয়াফেস ওসমান এবং এ মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র প্রকল্প বাস্তবায়নের সঙ্গে ওৎপ্রোতভাবে সম্পৃক্ত। বাংলাদেশের ভিয়েনা ও মস্কো মিশনের মাধ্যমে এ প্রকল্পের বিষয়ে আইএইএ ও রাশিয়ার সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করা হচ্ছে। এ প্রকল্প বাস্তবায়ন, নিরাপত্তা রক্ষাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আন্তর্জাতিক সংস্থা এবং আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষার সুবিধার্থে বাংলাদেশি কূটনীতিক ও সম্ভাব্য রাষ্ট্রদূতদের জন্য সরেজমিনে এ পরিদর্শনের আয়োজন করা হয়। এছাড়া, পারমাণবিক শক্তিকে ইতিবাচক কাজে ব্যবহারের বিষয়টি আন্তর্জাতিক পর্যায়ে তুলে ধরতে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাদের জন‌্য এ পরিদর্শন কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

পরিদর্শনকালে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র বাংলাদেশের গর্ব। এটি এ দেশের ইতিহাসের অংশ হিসেবে থাকবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এটা আমাদের বড় অর্জন।’

তিনি বলেন, ‘আমরা পারমাণবিক শক্তিকে নেতিবাচক কাজে ব্যবহারের বিপক্ষে। বাংলাদেশ এ বিষয়ে অত্যন্ত সোচ্চার এবং পৃথিবীর মধ্যে অন্যতম দৃষ্টান্ত। তবে ভালো কাজে এ প্রযুক্তির ব্যবহার আমরা সব সময় সমর্থন করি। বাংলাদেশ পারমাণবিক শক্তিকে কেবল শান্তিপূর্ণ কাজে ব্যবহার করতে চায়। পারমাণবিক শক্তি ভালো কাজে ব্যবহারের এ প্রকল্প বিশ্বে আমাদের ভাবমূর্তি আরও উজ্জ্বল করবে।’

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাদের কাছে এ প্রকল্পের অগ্রগতিসহ সার্বিক কার্যক্রম উপস্থাপন করেন রাশিয়ার নির্মাণ প্রতিষ্ঠানের প্রকল্প পরিচালক। প্রকল্পের কাজের অগ্রগতিতে পররাষ্ট্রমন্ত্রী সন্তোষ প্রকাশ করেন এবং নির্মাণ প্রতিষ্ঠানকে ধন্যবাদ জানান। যথাসময়ে এ প্রকল্পের কাজ শেষ হবে বলে আশা ব্যক্ত করেন তিনি।

ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেন, ‘রাশিয়া সব সময় বাংলাদেশের ঘনিষ্ট বন্ধু। স্বাধীনতাযুদ্ধ চলাকালে জাতিসংঘে বাংলাদেশের পক্ষে তিন বার ভেটো দেওয়াসহ সার্বিক সহযোগিতা করেছে রাশিয়া।’

বাংলাদেশের জ্বালানি খাতসহ ব্লু ইকোনোমিতে রাশিয়ার বিনিয়োগ ও সহায়তা কামনা করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

পরে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাদের নিয়ে উত্তরা গণভবন পরিদর্শন করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

ঢাকা/হাসান/রফিক

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়