ঢাকা     রোববার   ১৪ এপ্রিল ২০২৪ ||  বৈশাখ ১ ১৪৩১

যেভাবে ধনিয়া পাতার স্বাস্থ্য উপকারিতা পেতে পারেন

দেহঘড়ি ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১০:১৯, ২৪ জানুয়ারি ২০২৪   আপডেট: ১০:২২, ২৪ জানুয়ারি ২০২৪
যেভাবে ধনিয়া পাতার স্বাস্থ্য উপকারিতা পেতে পারেন

ধনিয়া পাতা রন্ধনশৈলীতে একটি জনপ্রিয় গার্নিশিং উপাদান। ডাল, সবজি বা ভাতের প্লেট সাজানোর জন্য ধনিয়া পাতার জুড়ি নেই। এই পাতা খাদ্য পরিবেশনকে সুন্দর করে তোলে, আবার সুগন্ধও যোগ করে।

যাইহোক, আপনি যদি মনে করেন যে ধনিয়া পাতা শুধুমাত্র খাবার প্লেট সাজানোর কাছে ব্যবহার করা হয় তাহলে আপনার ধারনা সংশোধন করার সময় এসেছে। অনেকেই জানেন না, এই পাতাগুলো আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য বেশ উপকারী হতে পারে। নিয়মিতভাবে ধনিয়া পাতা খেলে হজম শক্তি বাড়ে। এছাড়া আরও কিছু স্বাস্থ্য উপকারিতা পাওয়া যায়।

এখানে ধনিয়া পাতার পাঁচটি স্বাস্থ্য উপকারিতা উল্লেখ করা হলো:

ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য ভালো: ধনিয়া পাতায় কিছু এনজাইম আছে যা রক্তে শর্করার মাত্রা কমাতে সাহায্য করে বলে জানা যায়। ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য একটি উপযুক্ত খাবার। ভালো উপকারিতা পাওয়ার জন্য পানির বোতলে কয়েকটি ধনিয়া পাতা ভিজিয়ে রাখুন। সারাদিন ধনিয়া পাতা ভেজানো পানি পান করুন।

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়: রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা শক্তিশালী করতে পারে ধনিয়া পাতা। এগুলো অ্যান্টিঅক্সিডেন্টে সমৃদ্ধ। যা ক্ষতিকারক সংক্রমণ এবং রোগের বিরুদ্ধে লড়াই করতে সাহায্য করে। এতে অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল বৈশিষ্ট্যও রয়েছে। যা আমাদের সামগ্রিক স্বাস্থ্যকে উন্নত করে। 

ত্বকের জন্য ভালো: চর্মরোগ বিশেষজ্ঞরা বলেন, আমাদের শরীরে উচ্চ মাত্রার অ্যাসিডিটির কারণে ত্বকে লালভাব দেখা দেয়। ধনিয়া পাতা অম্লতা কমিয়ে এ সমস্যা সমাধান করে। ত্বকের বিভিন্ন সমস্যা দূর করে উজ্জ্বলতা বাড়ায়।

হজমে সাহায্য করে: ধনিয়া পাতা আপনার খাদ্যতালিকায় থাকলে পাচনতন্ত্রকে সুস্থ রাখবে। এতে থাকা ফাইবার হজম প্রক্রিয়া ভালো রাখে। গ্যাসের সমস্যা প্রতিরোধ করে। 

হৃদয়ের জন্য ভালো: ধনিয়া পাতা আপনার হার্টের স্বাস্থ্যেরও উন্নতি করতে পারে। যেহেতু এটি একটি মূত্রবর্ধক, তাই এটি আমাদের শরীর থেকে অতিরিক্ত সোডিয়াম বের করে দেয়। যা কোলেস্টেরলের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে। শুধু তাই নয় আপনার খাদ্যতালিকায় ধনিয়া পাতা যোগ করে উচ্চ রক্তচাপ কমাতে পারেন। বেশ কিছু গবেষণায় দেখা গেছে যে, ধনিয়া পাতা হৃদরোগের ঝুঁকি কমায়।

আপনার ডায়েটে ধনিয়া পাতা যেভাবে অন্তর্ভুক্ত করবেন: এখন যেহেতু আপনি ধনিয়া পাতার অবিশ্বাস্য উপকারিতা সম্পর্কে জানেন, আপনার পরবর্তী প্রশ্ন হবে- কীভাবে এগুলোকে খাদ্যতালিকায় অন্তর্ভুক্ত করবেন? বিভিন্ন উপায় আছে, আপনি একটি সুস্বাদু স্মুদি বা জুস প্রস্তুত করে খেতে পারেন। জুস তৈরি করতে হলে ধনিয়া পাতার সঙ্গে মধু যোগ করতে হবে। ধনিয়া পাতার চাটনি খেতে পারেন। এটি স্ন্যাকস জাতীয় খাবারের সঙ্গে উপভোগ্য। খাবার পানিতে অল্প কয়েকটি পাতা ভিজিয়ে রেখে দিতে পারেন। ওই পানিতে চুমুক দিয়ে সুগন্ধ পাবেন, স্বাস্থ্য উপকারিতাও মিলবে।

তথ্যসূত্র: এনডিটিভি

/লিপি

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়