ঢাকা     রোববার   ২৬ জুন ২০২২ ||  আষাঢ় ১২ ১৪২৯ ||  ২৫ জিলক্বদ ১৪৪৩

নিয়মের সুবিধা নিয়ে ফার্নান্দোর জায়গায় রাজিতা: শ্রীলঙ্কার কোচ

ক্রীড়া প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম থেকে || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২১:০৪, ১৭ মে ২০২২  
নিয়মের সুবিধা নিয়ে ফার্নান্দোর জায়গায় রাজিতা: শ্রীলঙ্কার কোচ

পেসার শরিফুলের শর্ট বলে বিশ্ব ফার্নান্দো হেলমেটে আঘাত পেয়েছিলেন দ্বিতীয় দিন। এরপর ব্যাটিং করেছেন, বোলিং করেছেন। মঙ্গলবার তৃতীয় দিনের সকালেও ২২ গজে হাত ঘুরিয়েছেন। কিন্তু আচমকা তার কনকাশন বদলি হয়ে মাঠে নামেন কাসুন রাজিতা। যিনি বল হাতে ছিলেন দিনের সেরা। অতিথিদের এটা  ট্যাকটিক্যাল মুভ নাকি সতর্কতা? কোচ ক্রিস সিলভারউড জানালেন, নিয়মের সুবিধা নিয়েই ফার্নান্দোকে বাইরে রাখা হয়েছে। নামানো হয়েছে রাজিতাকে।

চট্টগ্রামে মঙ্গলবার মধ্যাহ্ন বিরতির পর মাঠে নামেননি ফার্নান্দো। দিনের প্রথম সেশনে ৪ ওভার করে বেহিসেবী রান দিয়েছেন। তামিম ইকবাল তাকে উইকেটে স্বাগত জানান দুই চার হাঁকিয়ে। তার বলে বাউন্ডারি হাঁকানা আরেক ওপনার মাহমুুদুল হাসান জয়ও।

বাঁহাতি পেসারের বোলিংয়ে ছিল না বিষ। আলগা বোলিংয়ে রান দিচ্ছিলন অহরহ। তাকে সাবলীল খেলছিলেন ব্যাটসম্যানরা। আগের দিন শেষ সেশনে ৪ ওভার হাত ঘুরান। ব্যাটসম্যানদের জন্য হুমকি হতে পারেননি। সব মিলিয়ে ৮ ওভারে ৪২ রান দিয়েছেন ৫.২৫ ইকোনমিতে।

বিরতির পর তাকে আর নামায়নি শ্রীলঙ্কা। কোচের দাবি, তার শরীরে আগের দিনের আঘাতের উপসর্গ বাড়ায় তাকে সতর্কতার অংশ হিসেবে সরিয়ে নেওয়া হয়। সিলভারউড বলেছেন,‘আপনি এটা একেবারেই ভুলভাবে দেখছেন। খেলোয়াড়দের কল্যাণ এখানে সর্বোচ্চ প্রাধান্যের বিষয়। ব্যাপারটা হলো সে কাল মাথায় আঘাত পেয়েছে। এই দিনের শুরু থেকে তার বেশ কিছু উপসর্গ দেখা দেয়। কাজেই প্রথমত আমরা নিশ্চিত করতে চেয়েছি সে যেন ঠিক থাকে। এই কারণেই সে খেলা ছেড়ে গেছে।'

রাজিতাকে প্রথমে একাদশে নেওয়া হয়নি। কনকাশন সাবে মাঠে নেমে নিজের প্রথম ওভারেই নাজমুল হোসেন শান্তর উইকেট পেয়েছেন। পরবর্তীতে মুমিনুলকে ভেতরে ঢোকানো বলে বোল্ড করেন। দ্রুতগতির এ পেসারের প্রশংসা করে সিলভারউড বলেছেন,‘কনকাশন সাবে বিশ্বের বদলি হিসেবে এসে কাসুন ভালো বল করেছে। আমরা খুশি যে সে উইকেট পেয়েছে। তার উপস্থিতির জানান দিয়েছে। দেখে ভালো লেগেছে সুযোগটি লুফে নিয়েছে।’ ১১ ওভার হাত ঘুরিয়ে ৪ মেডেনে ১৭ রানে ২ উইকেট পেয়েছেন এ পেসার।

তবে দলের সামগ্রিক বোলিং পারফরম্যান্সে খুব একটা সন্তুষ্ট নন সিলভারউড,‘আমরা গতকাল যেভাবে বোলিং শেষ করেছি তা হতাশাজনক ছিল। আমরা একদমই ভালো অবস্থায় ছিলাম না। বাংলাদেশকে ক্রেডিট দেওয়া উচিত। তারা ভালোভাবে নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে।’

এমন উইকেটে বাংলাদেশের বোলাররা যেভাবে বোলিং করেছে তা একদম পারফেক্ট বলে মন্তব্য করেছেন,‘আমরা সেরা দল নিয়ে মাঠে নেমেছি। তবে আমাদের আরো গোছানো ও স্থির হতে হবে। এমন উইকেটে বাংলাদেশ কেমন করেছে তা দেখা উচিত। তারা সোজা এবং লেন্থ বোলিং করেছে। আমাদের ব্যাটসম্যানদের চাপে রেখেছে। সেভাবেই আমাদের বোলিং করা উচিত।’  

চট্টগ্রাম/ইয়াসিন

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়