ঢাকা     শনিবার   ০২ মার্চ ২০২৪ ||  ফাল্গুন ১৮ ১৪৩০

৫৭ সেকেন্ডে ৪৩ সিল মারেন বহিষ্কৃত ছাত্রলীগ নেতা, ঘটনা তদন্তে কমিটি

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০৯:০৯, ৭ নভেম্বর ২০২৩   আপডেট: ০৯:৩১, ৭ নভেম্বর ২০২৩
৫৭ সেকেন্ডে ৪৩ সিল মারেন বহিষ্কৃত ছাত্রলীগ নেতা, ঘটনা তদন্তে কমিটি

ব্যালট পেপারে সিল মারছেন বহিষ্কৃত ছাত্রলীগ নেতা আজাদ হোসেন। ছবি: ভিডিও থেকে নেওয়া

লক্ষ্মীপুর-৩ (সদর) আসনের উপনির্বাচনে ছাত্রলীগের সাবেক এক নেতার প্রকাশ্যে নৌকা প্রতীকে সিল মারার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে। এতে ভোটকেন্দ্রে ওই নেতাকে একাধিক ব্যালট পেপারে নৌকা প্রতীকে সিল মারতে দেখা যায়। সোমবার (৬ নভেম্বর) ভিডিওটি ছড়িয়ে পড়ার পর সমালোচনা তৈরি হয়েছে।

ছড়িয়ে পড়া ৫৭ সেকেন্ডের ভিডিওতে দেখা গেছে, ভোটকক্ষে বসে এক ব্যক্তি ব্যালট পেপারে অনবরত নৌকা প্রতীকে সিল মারছেন। তার গলায় নৌকা প্রতীকের কার্ড ঝুলছে। এ সময় ৪৩টি ব্যালটে নৌকা প্রতীকে তাকে সিল মারতে দেখা যায়। তাকে নৌকায় সিল মারতে সহযোগিতা করছেন কক্ষে থাকা অন্য একজন ব্যক্তি।

এদিকে, ভিডিও চিত্র সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ার পর দেশব্যাপী সমালোচনার ঝড় ওঠে। বিষয়টি রিটার্নিং কর্মকর্তার নজরে আসার পর এক সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। সোমবার রাতে গঠন করা হয় তদন্ত কমিটি। কমিটিতে জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ সফিকুর রহমানকে আগামী তিন কার্যদিবসের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন দিতে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

উপ-নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা ও কুমিল্লা আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ফরহাদ হোসেন তদন্ত কমিটির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ফরহাদ হোসেন বলেন, ঘটনাটি খতিয়ে দেখতে লক্ষ্মীপুর জেলা নির্বাচন কর্মকর্তাকে দিয়ে এক সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। আগামী তিন কার্যদিবসের মধ্যে তাকে তদন্ত প্রতিবেদন দিতে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। ঘটনার সত্যতা পেলে নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জানা গেছে, একাধিক সিল মারা ওই ব্যক্তির নাম আজাদ হোসেন। তিনি সদর উপজেলা দিঘলী ইউনিয়নের দক্ষিণ খাগুড়িয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে নৌকার এজেন্ট হিসেবে দায়িত্বে ছিলেন (গত ৫ নভেম্বর লক্ষ্মীপুর-৩ আসনের উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়)।  আজাদ চন্দ্রগঞ্জ থানা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি ছিলেন। গত অক্টোবর দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে তাকে বহিষ্কার করে জেলা ছাত্রলীগ।

বিষয়টি নিয়ে আজাদ হোসেনের মুঠোফোনে একাধিকবার ফোন করেও তার সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি। চন্দ্রগঞ্জ থানা ছাত্রলীগের সভাপতি আবু তালেব গণমাধ্যমকে বলেন, আজাদ তাদের কমিটির সহ-সভাপতি ছিলেন। শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে জেলা ছাত্রলীগ তাকে গত ৮ অক্টোবর বহিষ্কার করে।

উপনির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা ও কুমিল্লা আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা ফরহাদ হোসেন বলেন, ভিডিওটি দেখেছি। বিষয়টি আমাদের নজরে এসেছে। ঘটনাটি গুরুত্ব সহকারে দেখা হচ্ছে।

দক্ষিণ খাগুড়িয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে প্রিজাইডিং অফিসার নুর হোসেন বলেন, বিষয়টি আমার জানা নেই। কেউ আমার কাছে অভিযোগ করেনি। তবে ব্যালট কিভাবে পেয়েছে এ নিয়ে কোনো সদুত্তর দিতে পারেননি।

উল্লেখ্য, গত ৩০ সেপ্টেম্বর লক্ষ্মীপুর-৩ আসনের সংসদ সদস্য এ কে এম শাহজাহান কামাল মারা যান। ৩ অক্টোবর আসনটি শূন্য ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন। ৪ অক্টোবর উপনির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হয়। ৫ নভেম্বর উপনির্বাচন হয়।  ঘোষিত ফল অনুযায়ী লক্ষ্মীপুর-৩ (সদর) সংসদীয় আসনের উপনির্বাচনের ১ লাখ ২০ হাজার ৫৯৯ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন নৌকা প্রতীকের প্রার্থী গোলাম ফারুক পিংকু। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী লাঙল প্রতীকের প্রার্থী মুহাম্মদ রাকিব হোসেন পেয়েছেন ৩ হাজার ৮৪৬ ভোট। তবে নির্বাচনে জাল ভোট, কেন্দ্রে ক্ষমতাসীনদের বলপ্রয়োগ, কেন্দ্র এজেন্ট ঢুকতে না দেওয়া ও এজেন্টদের বের করে দেওয়ার অভিযোগে রোববার লক্ষ্মীপুর প্রেসক্লাবে পৃথক সংবাদ সম্মেলন করে জাতীয় পার্টি ও জাকের পার্টি প্রার্থী ভোট বর্জনের ঘোষণা দেন।

/জাহাঙ্গীর লিটন/এসবি/

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়