ঢাকা     রোববার   ১৪ জুলাই ২০২৪ ||  আষাঢ় ৩০ ১৪৩১

অর্থ অবমুক্তি ও ব্যয় বিল দাখিলের সময়সীমা বাড়লো

বিশেষ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৭:০১, ২১ জুন ২০২৪  
অর্থ অবমুক্তি ও ব্যয় বিল দাখিলের সময়সীমা বাড়লো

চলতি ২০২৩-২০২৪ অর্থবছরের পরিচালন ও উন্নয়ন বাজেটের আওতায় অর্থ অবমুক্তি ও ব্যয় বিল দাখিলের সময়সীমা বাড়িয়েছে সরকার। পুনঃনির্ধারিত নতুন সময়সীমা অনুযায়ী, পরিচালন ও উন্নয়ন বাজেটের আওতায় অর্থ অবমুক্তির (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে) সর্বশেষ তারিখ ২৩ জুন (আগে ছিল ১৩ জুন) এবং পরিচালন ও উন্নয়ন উভয় খাতে নতুন ব্যয় বিল দাখিলের সর্বশেষ তারিখ ২৪ জুন (আগে ছিল ১৩ জুন) ধার্য করা হয়েছে।  অন্যান্য তারিখ অপরিবর্তিত রাখা হয়েছে।  

অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থ বিভাগের বাজেট অনুবিভাগ-১ থেকে বুধবার এ-সংক্রান্ত একটি পরিপত্র  জারি করা হয়েছে। এতে বলা হয়েছে, পরিচালন ও উন্নয়ন খাতের অর্থ অবমুক্তি, ব্যয় বিল দাখিল ও চেক ইস্যুর এ সময়সীমা কোনোভাবেই আর বাড়ানো হবে না। তবে, সকল প্রকার বেতন-ভাতা সংক্রান্ত বিল এ সময়সীমার আওতামুক্ত থাকবে।

পরিচালন ও উন্নয়ন উভয় খাতে ফেরত বিল দাখিলের সর্বশেষ তারিখ ২৫ জুন। পরিচালন ও উন্নয়ন উভয় বাজেটের আওতায় বিল নিষ্পত্তি ও চেক ইস্যুর সর্বশেষ তারিখ ২৭ জুন। বাজেট বরাদ্দের আওতায় বিদেশ থেকে পণ্য ইত্যাদি আমদানির ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট আমদানি ও মূল্য পরিশোধের সর্বশেষ তারিখ ২৭ জুন নির্ধারণ করা হয়েছে।

পরিপত্রে আরও বলা হয়েছে, যেসব ক্ষেত্রে ৩০ জুনের মধ্যে আমদানি ও মূল্য পরিশোধের প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা যাবে না, সেক্ষেত্রে অসুবিধার কারণ, চলতি অর্থবছরে স্থাপিত এলসি’র বিপরীতে আগামী অর্থবছরে পরিশোধযোগ্য অর্থের পরিমাণ ইত্যাদি বিস্তারিতভাবে উল্লেখপূর্বক স্বয়ংসম্পূর্ণ প্রতিবেদন সর্বশেষ ২০ জুনের মধ্যে অর্থ বিভাগে পাঠাতে হবে।

অন্যদিকে, বাজেট বরাদ্দের বিপরীতে বাংলাদেশ ব্যাংক কর্তৃক কোনো আমদানি এলসি স্থাপন কিংবা নিষ্পত্তির সর্বশেষ তারিখ ২৭ জুন।  

অর্থ বিভাগ জানায়, অর্থবছরের শেষদিকে বিভিন্ন মন্ত্রণালয়/বিভাগ/অধিদপ্তর/সংস্থা কর্তৃক দাখিল করা নিয়মিত বিল ও ফেরত বিলসমূহের ওপর সংশ্লিষ্ট হিসাবরক্ষণ অফিস কর্তৃক পূর্ব-নিরীক্ষার কাজ সুষ্ঠু ও যথাযথভাবে সম্পন্ন করার লক্ষ্যে অর্থবছরের শেষে ব্যয় বিল দাখিল, বিল নিষ্পত্তি ও চেক ইস্যুর ক্ষেত্রে শৃঙ্খলা বজায় রাখা প্রয়োজন।

হাসনাত/রফিক

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ