ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৪, ২৫ মে ২০১৭
Risingbd
নজরুল জয়ন্তী
সর্বশেষ:

দ্রোহ ও বেদনার কবি কাজী নজরুল

|| অজয় দাশগুপ্ত ||
কাজী নজরুল ইসলাম আমাদের বেদনার কবি। তাঁকে আমরা নানাভাবে ব্যাখ্যা করার নামে মূলত জালে আবদ্ধ করে ফেলি। সেই কবে থেকে শুরু হয়েছে এর যেন শেষ নাই।

টেক্সাসান জীবন থেকে : ১৪তম পর্ব

দিলরুবা আহমেদ : ছেলে খুশি তাতেই সে খুশি। রেবেকার খুশিতে আমিও খুশি হই। ব্রেন্ডা বয়সে জেইসনের থেকে বছর তিনেক বড় আবার হেভি মোটা।

‘কবি পোষা পাখি হয়ে গেলে বুঝতে হবে সমাজ নষ্ট হয়ে গেছে’

সমকালীন বাংলা কবিতায় হেলাল হাফিজ এক রাজকুমারের নাম। প্রতিবাদ ও প্রেম, দ্রোহ আর বিরহের এই কবি অকল্পনীয় নৈপুণ্য ও মমতায় শব্দের মালা গেঁথে কবিতাপ্রেমী মানুষকে অনির্বচনীয় আমোদ দিয়ে চলেছেন।

রাধিকার সঙ্গে মেট্রো রেলে

|| শুভদীপ বড়ুয়া ||

রাধিকাকে দেখতাম সকাল সাড়ে ৭টার মেট্রোর সিটে বসে এক মনে অ্যালিস্টেয়ার ম্যাকলিনের ‘সান্তোরিনি’ পড়তে।

ধর্ষণ গুরুতর অপরাধ: কোনো অজুহাতই গ্রাহ্য নয়

পূরবী বসু : চট্টগ্রামের বিস্তার সাহিত্য গোষ্ঠীর মাহিয়া আবরারের কাছ থেকে সদ্য আসা পোস্টারটি যা এই লেখার সঙ্গে গাঁথা রয়েছে, আমার আজকের মন্তব্যের প্রণোদনা।

রজনীগন্ধাপুর: শেষ পর্ব

|| ইমদাদুল হক মিলন ||

তার মানে তৃতীয়বার স্বপ্নপূরণ হলো লিনা ভাবির।
একজাক্টলি। লেগে থাকলে কোনও না কোনওভাবে মানুষের স্বপ্নপূরণ হয়। যেমন তোমার ব্যাপারে আমার হয়েছে।

বৈশাখের পঙ্‌ক্তিমালা

জ্বলে ওঠে যেন আগুনের শিখা || আল মাহমুদ


ছুটছি ত্বরিৎ প্রবাহের মত যেন কালবৈশাখী-

ঝড়ের বেগে শরীরে লেগে কি যে অনুভূতি!

বিশ্বশান্তির পক্ষে লড়াইয়ে রবীন্দ্রনাথ আমাদের প্রেরণা ॥ আহমদ রফিক

এক.

‘হিংসায় উন্মত্ত পৃথ্বী নিত্য নিঠুর দ্বন্দ্ব’- কবির এ উদ্বেগ-উকণ্ঠা যেন অশান্ত বিশ্বে স্থায়ী রূপ নিতে শুরু করেছে। বিগত শতকে মনীষীদের শান্তির পক্ষে উচ্চারণ মনে হয় দাগ কাটছে না স্বার্থপর, আধিপত্য চেতনার অচলায়তনে।

রবীন্দ্রনাথ ও রোলিংস : ছোটগল্পে অভিন্ন কথক

|| মোজাফফর হোসেন ||

বাংলা সাহিত্যে কবিতা, উপন্যাস, নাটক, গান ও প্রবন্ধে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের মেধা ও গভীর জীবনদর্শনের যে পূর্ণতা ঘটেছিল তা তাঁর ছোটগল্পে এসে অনেকখানি উপচে পড়েছে।

ছোটগল্প: লাশের যোগবিয়োগ

|| মাহবুব আলী ||

শেখ রহিম বারান্দার এককোণায় বসে থাকেন। গদি-আঁটা চেয়ার। আয়েশ করে বসেন। রাস্তার পাশে বাড়ি। অগ্নিকোণ-মুখি বারান্দা। সারাদিন বাস-রিকশা-অটো কত যানবাহন চলছে।

বাংলা গল্পে শাহাদুজ্জামান কেন স্বতন্ত্র?

কে এম রাকিব: বাংলা কথাসাহিত্যে শাহাদুজ্জামান স্বতন্ত্র একটি স্থান দখল করেছেন নিজগুণে। অতিব্যবহারে এই ধরনের কথাবার্তা ক্লিশের মতো শোনায়।

যে চলে যায়, সে আর ফেরে না

শিহাব শাহরিয়ার: কাজী আরিফ। চলে গেলেন দূর সীমানায়। দূর শাদা কুয়াশায়। সপ্ত সমুদ্র পেরিয়ে সপ্ত আকাশেরও ওপারে।

টেক্সাসান জীবন থেকে : ১৩তম পর্ব

দিলরুবা আহমেদ : মানুষের সঙ্গে মানুষের চেহারার মিল থাকাটাই স্বাভাবিক। চোখ-নাক-মুখ একই ব্যাপার সবার। তারপরও একেকজনের চেহারা একেক ধরনের।

রজনীগন্ধাপুর : দশম পর্ব

|| ইমদাদুল হক মিলন ||

সামনে হাতের ডানদিকে তিনচারটা তেঁতুল গাছ। বিশাল বিশাল গাছ। তেঁতুলের একেবারে বন হয়ে আছে। ঝিরঝিরে পাতা নাচছে হাওয়ায়। রোদে ঝলমল করছে মাথার ওপর।

সায়েন্স ফিকশন || সিনেস্থেশিয়া

|| দীপেন ভট্টাচার্য ||

১৯৮০-এর দশকের মাঝামাঝি রথখোলা মোড়ের কাছে নবাবপুর রোডের ওপর আমার একটা চেম্বার ছিল।