ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৯ ভাদ্র ১৪২৪, ২৪ আগস্ট ২০১৭
Risingbd
শোকাবহ অগাস্ট
সর্বশেষ:

পেটের সমস্যার প্রাকৃতিক সমাধান

এস এম গল্প ইকবাল : রাইজিংবিডি ডট কম
প্রকাশ: ২০১৭-০৮-০৭ ১০:১২:০৫ এএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০৮-০৭ ১২:২৯:৫১ পিএম
প্রতীকী ছবি

এস এম গল্প ইকবাল : পেটে গ্যাস হলে, কোষ্ঠকাঠিন্য দেখা দিলে, বমি বমি ভাব আসলে কিংবা বদহজম হলে কিছু ঘরোয়া ও প্রাকৃতিক প্রতিকার ব্যবস্থার মাধ্যমে সুস্থ থাকা যায়।

গাজর ও পুদিনার জুস
পেটের অস্বস্তি কমাতে গাজর ও পুদিনার মিশ্রণে তৈরি জুস খেলে উপকার পাবেন। গাজরে পুষ্টি পাবেন এবং পুদিনা আপনার পেট খারাপ উপশম করবে। চারটি গাজরের টুকরা টুকরা অংশ, চার কাপ পানি ও এক চা-চামচ শুকনো পুদিনা বা এক টি-ব্যাগ পুদিনা সিদ্ধ করুন। চুলার জ্বাল কমিয়ে ১৫ মিনিট বা গাজর নরম না হওয়া পর্যন্ত সিদ্ধ করুন। টি-ব্যাগ দিয়ে থাকলে তুলে ফেলুন। এরপর মিশ্রণটি ব্লেন্ডারে মিক্স করে জুস উপভোগ করুন। অধিকতর ভালো ফলাফল পেতে এতে আদা মেশাতে পারেন ও সুস্বাদু করার জন্য লেবুর রস দিতে পারেন।

ভাত চা
পেট খারাপ নিয়ন্ত্রণে আনতে বা ডায়রিয়া থামাতে ভাত চা পান করতে পারেন। ৬ কাপ পানিতে ১/২ কাপ চাল ১৫ মিনিট ধরে সিদ্ধ করুন। তারপর চাল তুলে ফেলুন এবং পানির সঙ্গে অল্প মধু বা চিনি মিশিয়ে উষ্ণ থাকতে পান করুন।

পোড়া পাউরুটি
পেটে অস্বস্তি অনুভব হলে পাউরুটি খেলে ভালো ফল দেয়, কিন্তু পোড়া পাউরুটি খেলে অধিকতর ভালো ফল পাওয়া যায়। পাউরুটির পোড়া অংশ শরীরে উৎপন্ন বিষ যা আপনাকে অসুস্থ করে তোলে তা শুষে নেয়। পাউরুটিতে জেলি মাখুন যাতে খেতে সুস্বাদু লাগে।

আপেল সিডার ভিনেগার
আপেল সিডার ভিনেগার হেঁচকি ও গলা ব্যথা যেমন দূর করে, তেমনি অশান্ত পেটকেও শান্ত করে। এক টেবিল চামচ আপেল সিডার ভিনেগার, এক কাপ গরম পানি এবং এক টেবিল চামচ মধুর মিশ্রণ বদহজম উপশম করবে এবং ক্র্যাম্পিং ও পেটের গ্যাস দূর করবে। বুকজ্বালা জনিত অস্বস্তি কমাতেও এর ভূমিকা রয়েছে।

চেরি, কিশমিশ, অ্যাপ্রিকট ও আলুবোখারা
আপনার যদি কোষ্ঠকাঠিন্য হয় তাহলে চেরি, কিশমিশ, অ্যাপ্রিকট কিংবা আলুবোখারা খেতে পারেন। আঁশ জাতীয় এসব ফল শরীরের ক্রিয়া গতিশীল রাখবে ও পেটের অস্বস্তি কমাবে।

দই
পেট ব্যথা হলে আপনি সম্ভবত ডেইরি জাতীয় খাবার কামনা করবেন না। আপনার জন্য সুখবর হল এমন অবস্থায় আপনি দই খেতে পারবেন। দইকে বলা হয় জীবন্ত ব্যাকটেরিয়া। দইয়ের ব্যাকটেরিয়া ক্ষতি নয়, উপকারই করে। হজম সমস্যা দূর করতে এবং রোগপ্রতিরোধ ব্যবস্থাকে উন্নত করতে দই খেতে পারেন। পেট খারাপ হলে সাধারণ দই খাবেন, চিনি বা ফ্লেভার এতে যোগ করবেন না।

জিরা
জিরাতে রয়েছে ভিটামিন ও মিনারেল যা ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়ার বৃদ্ধিকে বাধাগ্রস্ত করে। ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়া বদহজম, গ্যাস ও পেটে ফোলা বা পেটভর্তি সমস্যা সৃষ্টি করে পেটের অবস্থা খারাপ করে। খাবার গ্রহণের পর বা পেটে গ্যাস অনুভব করলে একমুঠো জিরা চাবাতে থাকুন।

মৌরি
বদহজম, গ্যাস বা পেট ফোলা সমস্যায় মৌরি সাহায্য করতে পারে। পেট খারাপ হলে মৌরি চায়ে চুমুক দিন। কিছু মৌরি চাবাতে থাকুন, এটি হজমে সাহায্য করে, গ্যাস কমায়, ক্র্যাম্পিং দূর করে এবং বমি বমি ভাব কমায়।

তাপ
পেটে অস্বস্তি হলে গরম পানির বোতল বা হিটিং প্যাড পেটের ওপর রাখুন। তাপ রক্তপ্রবাহ বৃদ্ধি করে এবং ব্যথার অনুভূতি পাকস্থলী থেকে বাইরের দিকে নিয়ে যায়।

তথ্যসূত্র : রিডার্স ডাইজেস্ট
 

 

 

রাইজিংবিডি/ঢাকা/৭ আগস্ট ২০১৭/ফিরোজ

Walton Laptop